খেলা

যে কৌশলে নতুন অস্ত্রে শান দিচ্ছেন মোস্তাফিজ

প্রথম ওয়ানডেতে ভেতরে ঢুকানো বলে সুনিল আম্রিসকে এলবিডব্ললিউ বানান মোস্তাফিজ। আরও অন্তত তিনবার তাকে বল ভেতরে আনতে (ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বেলায়) দেখা যায়।
mustafizur rahman & ottis gibson
ছবি: বিসিবি

ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বেলায় ভেতরে আনার বিদ্যা এতদিন অধরা ছিল মোস্তাফিজুর রহমানের। পেস বোলিং কোচ ওটিস গিবসন তা নিয়ে কাজ করছিলেন নিবিড়ভাবে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতেই মিলেছে ফল পাওয়ার আভাস। কিছু বল ভেতরে ঢোকাতে দেখা যায় মোস্তাফিজকে। গিবসন জানালেন, সামনের ম্যাচগুলোতে মোস্তাফিজের এই ঝলক আরও দেখা যাবে।

প্রথম ওয়ানডেতে ভেতরে ঢুকানো বলে সুনিল আম্রিসকে এলবিডব্ললিউ বানান মোস্তাফিজ। আরও অন্তত তিনবার তাকে বল ভেতরে আনতে (ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বেলায়) দেখা যায়।

আরও পড়ুন- তূণে যোগ হচ্ছে কাঙ্ক্ষিত সেই অস্ত্র, আভাস দিলেন মোস্তাফিজ

বৃহস্পতিবার দলের অনুশীলন শেষে গণমাধ্যমে পাঠানো ভিডিও বার্তায় গিবসন জানান সামান্য টেকনিক্যাল বদলেই মিলেছে ফল,  ‘সে (মোস্তাফিজ) অনেক পরিশ্রম করেছে। তার সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতাও বেশ ভালো। তার সঙ্গে কাজ করা আনন্দদায়ক। আমরা চেষ্টা করছি বল ভেতরে আনার, আমরা অনেক কিছু নিয়েই কাজ করেছি। তার কবজির পজিশন নিয়ে কাজ করেছি। সে ইতিমধ্যে প্রমাণ করেছে যে সে তার কবজির পজিশন ঠিক জায়গায় আনলে বল ভেতরের দিকে সুইং করাতে পারে।’

পেস বোলিং কোচের আশা পরের ম্যাচগুলোতে অনেকবেশি বল ভেতরে আনতে দেখা যাবে মোস্তাফিজকে, ‘ আশা করছি সে এখান থেকে আরও ভালো করবে এবং সামনের ম্যাচ গুলোয় আপনারা আরও বল ভেতরের দিকে সুইং করতে দেখবেন।’

ক্যারিয়ারের শুরু থেকে স্বভাবজাত কাটারে দুনিয়া মাত করেন মোস্তাফিজ। ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বেলায় যা আড়াআড়িভাবে বেরিয়ে যায়। তার এই দক্ষতা বিশ্বের বেশিরভাগ দলেরই জানা। বৈচিত্র্য আনতে বাঁহাতি পেসারদের ইনস্যুয়িং এক বড় অস্ত্র। এটা ভাণ্ডারে থাকলে কাটারও আরও কার্যকর হতে বাধ্য।

শুক্রবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে নামবে বাংলাদেশ। এই ম্যাচ জিতলেই নিশ্চিত হয়ে যাবে সিরিজ। 

Comments

The Daily Star  | English

Student politics, Buet and ‘Smart Bangladesh’

General students of Buet have been vehemently opposing the reintroduction of student politics on their campus, the reasons for which are powerful, painful, and obvious.

58m ago