ভিসার অনিশ্চয়তায় ভারতে বিশ্বকাপ নিয়ে ক্ষুব্ধ পাকিস্তান

মার্চের মধ্যে ভিসার লিখিত নিশ্চয়তা না দিলে ভারত থেকে ভেন্যু সরিয়ে সংযুক্ত আরব আমিরাতে নেওয়ার দাবি তাদের।
ehsan mani
ছবি: এএফপি

আর ক’মাস পরই ভারতে হতে যাচ্ছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। কিন্তু সেখানে পাকিস্তানের ক্রিকেটার, সাংবাদিক আর সমর্থকরা  যেতে পারবেন কীনা তা এখনো নিশ্চিত নয়। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) প্রধান এহসান মানি তাই জানিয়েছেন ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া। মার্চের মধ্যে ভিসার লিখিত নিশ্চয়তা না দিলে ভারত থেকে ভেন্যু সরিয়ে সংযুক্ত আরব আমিরাতে নেওয়ার দাবি তাদের।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হওয়ার কথা ছিল ২০২০ সালে অস্ট্রেলিয়ায়। ২০২১ সালে ছিল ভারতে। করোনাভাইরাসের কারণে সূচিতে আসে বদল। ২০২০ সালের আসর সরে যায় ২০২২ সালে। আর ভারতে আগের সূচিতেই অক্টোবর-নভেম্বরে হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ।

এই বিশ্বকাপে অংশ নিতে যাওয়া অন্যতম দল পাকিস্তান। কিন্তু দেশটির সঙ্গে ভারতের কূটনৈতিক সম্পর্ক এখন চরম বৈরি অবস্থায়। পাকিস্তানের নাগরিকদের ভারতের ভিসা বলতে গেলে অলিখিতভাবে নিষিদ্ধ।

এমন পরিস্থিতিতে ভারতে হতে যাওয়া বিশ্বকাপে ভিসা পাওয়ার নিশ্চয়তা দাবি করে আসছিল পাকিস্তান। কিন্তু তা এখনো না মেলায় ক্ষুব্ধ তারা। লাহোরে সংবাদ মাধ্যমের সামনে হাজির হয়ে পিসিবি প্রধান তাই জানান ক্ষোভ ও হতাশার কথা, ‘ভারতে খেলতে যাওয়ার ব্যাপারে আমাদের সরকারের কোন আপত্তি নেই। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলতে যাওয়ার ব্যাপারে আমরা আইসিসির সঙ্গে একমতও আছি। কিন্তু তাদের বলেছি ভিসার জন্য লিখিত নিশ্চয়তা চাই। কেবল ক্রিকেটার নয়। আমাদের সমর্থক, সাংবাদিক, বোর্ড কর্তাদের জন্যও ভিসা দরকার। আইসিসির নীতিমালাতেই তা আছে। আমরা সেটাই চেয়ে আসছি।’

ভিসা সমস্যা সমাধান না হওয়ায় মানি সমালোচনা করেন আইসিসিরও, ‘আইসিসি কথা রাখেনি। তারা বলেছি ২০২০ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে ভিসার সমস্যা মিটিয়ে ফেলবে। তা হয়নি। আমি জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতেও যোগাযোগ করেছি। তাদের বলেছি মার্চের মধ্যে নিশ্চিত করতে। মার্চ মাস পর্যন্ত তারা সময় নিয়েছে।’

মার্চের পরও বিষয়টি ঝুলে থাকলে আর ভারতে বিশ্বকাপ চায় না পাকিস্তান, ‘এরপর না হলে আমি বলব বিশ্বকাপ ভারত থেকে সরিয়ে নেওয়া হোক। সংযুক্ত আরব আমিরাতকে ভেন্যু করা হোক।’

Comments

The Daily Star  | English

Govt must bring back Tarique to execute court verdict: PM

Prime Minister Sheikh Hasina today said the government will bring back BNP's Acting Chairman Tarique Rahman, who has been sentenced in the court of Bangladesh

18m ago