‘এ ধরনের ম্যাচের আগে রোনালদো খুব উত্তেজিত থাকে’

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে টিকে থাকা নিয়ে জুভেন্টাসের সামনে রয়েছে বাঁচা-মরার লড়াই।
ronaldo porto
ছবি: টুইটার

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে টিকে থাকা নিয়ে জুভেন্টাসের সামনে রয়েছে বাঁচা-মরার লড়াই। জয়ের বিকল্প তো নেই-ই, মেলাতে হবে নির্দিষ্ট সমীকরণ। পরের পর্ব নিশ্চিত করার অভিযানে তারা তাকিয়ে আছে দলের সেরা তারকা ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর দিকে।

ইউরোপের সর্বোচ্চ ক্লাব আসরের শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগে মঙ্গলবার রাতে এফসি পোর্তোর মুখোমুখি হবে জুভেন্টাস। তাদের ঘরের মাঠ আলিয়াঞ্জ স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত দুইটায়। প্রথম লেগে পর্তুগিজ ক্লাব পোর্তোর মাঠে ২-১ গোলে হেরেছিল ইতালিয়ান সিরি আর শিরোপাধারীরা। ফলে ন্যূনতম ১-০ ব্যবধানে জিতলে শেষ আটের টিকিট পাবে আন্দ্রেয়া পিরলোর শিষ্যরা।

পোর্তোর বিপক্ষে কঠিন পরীক্ষায় নামার আগে সংবাদ সম্মেলনে জুভেন্টাসের তারকা ডিফেন্ডার লিওনার্দো বোনুচ্চি বলেছেন, রোনালদোর উপর ভরসা রাখছেন তারা, ‘এ ধরনের ম্যাচের আগে ক্রিস্তিয়ানো খুব উত্তেজিত থাকে। (অতীতে) একটি সাক্ষাৎকারে সে বলেছিল যে, সম্ভব হলে সে কেবল চ্যাম্পিয়ন্স লিগেই খেলত। তাই সে কতটা তেজ নিয়ে এই ম্যাচে নামতে যাচ্ছে তা আমরা কল্পনা করতে পারি।’

পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী রোনালদো চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসের সর্বোচ্চ গোলদাতা। এই প্রতিযোগিতায় তার নামের পাশে রয়েছে ১৩৪ গোল। এখন পর্যন্ত রেকর্ড সাত মৌসুমে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়েছেন তিনি। এবারের আসরে তিনি জালের ঠিকানা খুঁজে নিয়েছেন চারবার। তার সবশেষ গোল দুটি ছিল বার্সেলোনার বিপক্ষে, ন্যু ক্যাম্পে।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গ্রুপ পর্বে লিওনেল মেসির চেয়ে কম গোল রোনালদোর। কিন্তু নকআউট পর্বে ৩৫ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড অনেক ব্যবধানে এগিয়ে। গত দুই মৌসুমে শেষ ষোলোতে জুভেন্টাসের পাঁচ গোলের সবগুলো করেছেন তিনি।

২০১৮-১৯ মৌসুমে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদের কাছে প্রথম লেগে ২-০ গোলে হারের পর ফিরতি লেগে ৩-০ গোলে জিতে শেষ আট নিশ্চিত করেছিল জুভরা। হ্যাটট্রিক করেছিলেন রোনালদো। গতবার প্রথম লেগে অলিম্পিক লিওঁর কাছে ১-০ ব্যবধানে হার মানে তুরিনের বুড়িরা। পরের লেগে রোনালদোর জোড়া গোলে ২-১ ব্যবধানে জিতলেও শেষরক্ষা হয়নি। অ্যাওয়ে গোলের সুবাদে শেষ আটে উঠেছিল লিওঁ।

প্রতিপক্ষকে হালকাভাবে না নিলেও ঘুরে দাঁড়িয়ে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে আশাবাদী অভিজ্ঞ বোনুচ্চি, ‘পোর্তোকে সম্মান করার পাশাপাশি আমরা ম্যাচটা জিততে মুখিয়ে আছি। গত ম্যাচগুলোতে আমরা যেটা দেখেছি, আমাদের লড়াই করার যে মনোবল রয়েছে, তা দিয়ে আমরা দারুণ ফল অর্জন করতে পারি এবং আমরা সবকিছু নিংড়ে দিব।’

জুভেন্টাসের কোচ পিরলো ম্যাচটির গায়ে সেঁটে দিয়েছেন ফাইনালের তকমা, ‘এই ম্যাচটা আমাদের জন্য ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ। কে পরের পর্বে যাবে তা নির্ধারিত হবে বিধায় এটা আমাদের জন্য ফাইনালের মতো। পোর্তোর ক্ষেত্রেও একই। প্রথম লেগের নেতিবাচক ফল থেকে ঘুরে দাঁড়াতে হবে আমাদের। সর্বশক্তি ব্যবহার করে এটা আমাদের করতে হবে।’

Comments

The Daily Star  | English