দ্বিতীয় দিনে গ্যাস সংকটে দুর্ভোগে মানুষ

ঢাকার উপকণ্ঠে আমিন বাজারে তিতাস গ্যাসের সরবরাহ লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় আজ দ্বিতীয় দিনেও রাজধানীর কিছু এলাকায় তীব্র গ্যাস সংকট অব্যাহত আছে।
গ্যাস না থাকায় মাটির চুলায় রান্না করছেন একজন। ২৪ মার্চ, ২০২১, মোহাম্মদপুর, ঢাকা। ছবি: রাশেদ সুমন

ঢাকার উপকণ্ঠে আমিন বাজারে তিতাস গ্যাসের সরবরাহ লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় আজ দ্বিতীয় দিনেও রাজধানীতে তীব্র গ্যাস সংকট অব্যাহত আছে।

ফলে, মোহাম্মদপুর, লালমাটিয়া, ধানমন্ডি, জিগাতোলা, রাজাবাজার, ইন্দিরা রোড, পীরবাগ, হাজারিবাগ ও ইস্কাটন এলাকার হাজার হাজার মানুষ গ্যাস সংকটের কারণে দুর্ভোগে পড়েছেন।

স্থানীয়রা জানান, গ্যাস সরবরাহ অপর্যাপ্ত এবং অনেকের চুলায় কোনো গ্যাস না থাকায় রান্না করা কঠিন হয়ে পড়েছে।

টিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের কর্মকর্তারা বলেছেন, আরএইচডি কনট্রাক্টরের কারণে গ্যাস লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

তারা জানান, সোমবার রাত ৯টার দিকে আমিন বাজারের তুরাগ নদীর ওপর নির্মাণাধীন সালেহপুর সেতুর কাজ চলাকালীন ফিডার লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এরপর থেকে এই সমস্যা শুরু হয়।

তিতাসের পরিচালক (অপারেশন) শফিকুল ইসলাম খান দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘বর্তমান সংকট ক্ষতির কারণে নয়। তারা এখন অন্য লাইনের মাধ্যমে গ্যাস সরবরাহ করছে। কিন্তু, তিতাস নেটওয়ার্ক সিস্টেমে গ্যাস সরবরাহের ঘাটতি আছে।’

তিনি বলেন, ‘আমরা এখন গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানি লিমিটেড (জিটিসিএল) থেকে কম গ্যাস পাচ্ছি।’

তিনি জানান, আমিন বাজারে দুটি সরবরাহ লাইন আছে। একটি ১২ ইঞ্চি পাইপলাইন এবং আরেকটি ১৬ ইঞ্চি পাইপলাইনের।

তিনি বলেন, ‘যেহেতু ১৬ ইঞ্চি পাইপলাইন ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি, তাই আমরা এর মাধ্যমে গ্যাস সরবরাহ করছি।’

তিতাসের পরিচালক আরও বলেন, ‘নদীর নিচে গ্যাস লাইন মেরামতের কাজ করতে সময় লাগছে। তবে, আমরা আজকের মধ্যে মেরামত শেষ করব।’

Comments

The Daily Star  | English

Hiring begins with bribery

UN independent experts say Bangladeshi workers pay up to 8 times for migration alone due to corruption of Malaysia ministries, Bangladesh mission and syndicates

28m ago