খেলা

বাংলাদেশের চাওয়া প্রথম দশ ওভারে বিনা উইকেটে ৩০-৪০ রান

টপ-অর্ডারে জুটি গড়ার ওপর গুরুত্ব দিচ্ছেন টাইগারদের ব্যাটিং কোচ জোনাথান লুইস।
cricket nz ban
ছবি: বিসিবি

শুরুতে উইকেট না হারালে প্রথম দশ ওভারে অল্প রান এলেও সেই ঘাটতি পরে পুষিয়ে দিতে পারবে বাংলাদেশ। এমনটাই মনে করেন টাইগারদের ব্যাটিং কোচ জোনাথান লুইস। সেজন্য টপ-অর্ডারে জুটি গড়ার ওপর গুরুত্ব দিচ্ছেন সাবেক এই ইংলিশ ব্যাটসম্যান।

ডানেডিনে প্রথম ওয়ানডেতে শুরুর দিকে ২ উইকেট হারায় বাংলাদেশ। ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় ম্যাচে বিবেচিত সময়ে পতন হয় ১ উইকেটের। এরপর তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকারের জুটিতে ঘুরে দাঁড়ায় বাংলাদেশ। তারা রানের চাকা খুব বেশি সচল না রাখলেও গড়ে দেন ভিত। তা কাজে লাগিয়ে শেষ দিকে ঝড় তোলেন মোহাম্মদ মিঠুন। তাতে বাংলাদেশ পায় চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহ। যদিও তা জয়ের জন্য পর্যাপ্ত হয়নি।

মন্থর শুরু নিয়ে মাথা ঘামাতে চাইছেন না স্বল্প মেয়াদে দায়িত্ব পাওয়া লুইস। বৃহস্পতিবার নিউজিল্যান্ড থেকে পাঠানো ভিডিও বার্তায় তার চাওয়া উইকেট না হারানো, ‘প্রথম দশ ওভারে আমরা যে কিছু রান আমরা তুলতে পারি না, আমরা বিশ্বাস করি, পরবর্তী সময়ে এটা আমরা পুষিয়ে দিতে পারব, যদি না আমাদের প্রতিষ্ঠিত ব্যাটসম্যানরা ইনিংস পুনর্নির্মাণের চাপ খুব বেশি আকারে নিয়ে ফেলে। যদি আমরা প্রথম দশ ওভারে ৩০-৪০ রান করি কোনো উইকেট না হারিয়ে, তবে আমরা অনুভব করব যে, এটা ঠিক আছে।’

জুটি গড়ে ভিত পেলে পরে আগ্রাসী হওয়ার সুযোগ থাকে। এটা বোঝাতে তিনি টানেন মিঠুনের উদাহরণ, ‘ডানেডিনে আমরা দুই-তিন উইকেট হারিয়ে নিউজিল্যান্ডকে ইনিংস নিয়ন্ত্রণ করতে দিয়েছিলাম। (তবে ক্রাইস্টচার্চে) তামিম ও সৌম্যর মধ্যে যখন জুটি হয়, তখন সেটা মিঠুনকে আগ্রাসী হতে এবং আমাদের একটি ভালো স্কোর পেতে সাহায্য করেছিল।’

Jon Lewis
ছবি:ডারহাম কাউন্টি ক্লাব

ক্রাইস্টচার্চে ১০৮ বলে ৭৮ রানের ইনিংস খেলেন বাংলাদেশের ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম। তার ব্যাটিং সম্পর্কে লুইস বলেছেন, ‘আমি মনে করি, বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের জন্য বিদেশে ব্যাটিংয়ের বড় চ্যালেঞ্জ হলো নতুন বলে মানসম্পন্ন সিম বোলিং ও একটু বাড়তি বাউন্স মোকাবিলা করা। বেশিরভাগের চেয়ে তামিমের অভিজ্ঞতা বেশি। ইনিংসের দ্বিতীয়ার্ধের ভিত্তি তৈরি করতে সে তার ভূমিকাটি ব্যবহার করে থাকে।’

একই ম্যাচে মারমুখী ব্যাটিংয়ে নজর কেড়ে নেওয়া মিঠুন প্রসঙ্গে তার ভাষ্য, ‘মিঠুন ক্রাইস্টচার্চে একটি অসাধারণ ইনিংস খেলেছে। সে নিজেকে বলের লাইনের কাছাকাছি নেওয়ার চেষ্টা করছিল। বিকল্প হিসেবে লেগ-সাইডকে রেখে সে কেবল অফ-সাইডেই বাড়তি নজর দিচ্ছিল না। ঢাকা বা চট্টগ্রামের চেয়ে বল যেখানে বাউন্স করে স্টাম্পের কিছুটা উপরে ওঠে, সেখানে আপনি এমনটা করতে পারেন।’

ওয়েলিংটনে আগামীকাল শুক্রবার সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডেতে মুখোমুখি হবে দুদল। বেসিন রিজার্ভে খেলা শুরু হবে বাংলাদেশ সময় ভোর চারটায়।

Comments