বাড্ডায় যুবকের মরদেহ উদ্ধার

রাজধানীর মেরুল বাড্ডা এলাকার একটি বাসা থেকে জহিরুল ইসলাম (৪৫) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার ভোররাত ৩টার দিকে পশ্চিম মেরুল বাড্ডার বাসার সাততলা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে পুলিশ।
স্টার অনলাইন গ্রাফিক্স

রাজধানীর মেরুল বাড্ডা এলাকার একটি বাসা থেকে জহিরুল ইসলাম (৪৫) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার ভোররাত ৩টার দিকে পশ্চিম মেরুল বাড্ডার বাসার সাততলা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে পুলিশ।

বিষয়টি দ্য ডেইলি স্টারকে নিশ্চিত করেছেন বাড্ডা থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রাকিবুল আলম। তিনি জানান, মরদেহ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য তা ঢাকা মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠানো হয়েছে।

জহিরুলের ভাই নজরুল ইসলাম জানান, পুরান ঢাকার ওয়ারীতে তাদের স্থানীয় বাড়ি। জহিরুল একটি অফিসে ডিজাইনের কাজ করতেন। অফিস ছিল মেরুল বাড্ডায়। জহিরুলের স্ত্রী প্রায় এক বছরে ধরে যুক্তরাষ্ট্রে থাকে। গত বছর লকডাউনের পর থেকে জহিরুল অফিসেই থাকতেন।

জহিরুল যে অফিসে কাজ করতেন, সেখানকার ম্যানেজার মাসুদ আলম বলেন, ‘ওয়ারীতে আমাদের অফিসের একটি ডিজাইন কারখানা আছে। আমি সেখানেই থাকি। গত ৩০ মার্চ রাতে জহিরুলের সঙ্গে শেষ কথা হয়। তার জয়পুরহাট যাওয়ার কথা ছিল। এরপর থেকে তার মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।’

তিনি আরও বলেন, ‘গতকাল রাতে বাড্ডার অফিসের বাড়িওয়ালা ফোন দিয়ে জানান, অফিসের রুম থেকে গন্ধ বের হচ্ছে। রাতে সেখানে গিয়ে দরজা খোলা দেখতে পাই। পরে জহিরুলের আত্মীয়-স্বজন ও পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। রুমের ভেতরে ঢুকে জহিরুলকে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পাই।’

মরদেহের সুরতহাল প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে বাড্ডা থানার এসআই রাকিবুল আলম বলেন, ‘গত রাতে খবর পেয়ে পশ্চিম মেরুল বাড্ডার একটি ভবনের সাততলা থেকে একজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মরদেহ ফ্যানের সঙ্গে ঝুলে ছিল। পচন ধরায় মরদেহটি প্রায় গলে গিয়েছিল। ধারণা করা হচ্ছে, ৩১ মার্চ সকাল ৮টার পর কোনো এক সময় তিনি গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।’

Comments

The Daily Star  | English
Depositors money in merged banks

Depositors’ money in merged banks will remain completely safe: BB

Accountholders of merged banks will be able to maintain their respective accounts as before

5h ago