'ফেদেরার চ্যাম্পিয়ন কিন্তু ভালো মানুষ নয়'

রাফায়েল নাদালের সঙ্গে যৌথভাবে সবচেয়ে বেশি গ্রান্ডস্লামের মালিক রজার ফেদেরার। উন্মুক্ত যুগে জিমি কনরের পর সবচেয়ে বেশি এটিপি শিরোপা জয়ের রেকর্ডও তার। নিঃসন্দেহে বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় এ সুইস তারকা। কিন্তু মানুষ হিসেবে খুব একটা ভালো নন! এমন বিস্ফোরক মন্তব্যই করেছেন আরেক টেনিস তারকা নোভাক জোকোভিচের বাবা সরদিয়ন জোকোভিচ।
ছবি: সংগৃহীত

রাফায়েল নাদালের সঙ্গে যৌথভাবে সবচেয়ে বেশি গ্রান্ডস্লামের মালিক রজার ফেদেরার। উন্মুক্ত যুগে জিমি কনরের পর সবচেয়ে বেশি এটিপি শিরোপা জয়ের রেকর্ডও তার। নিঃসন্দেহে বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় এ সুইস তারকা। কিন্তু মানুষ হিসেবে খুব একটা ভালো নন! এমন বিস্ফোরক মন্তব্যই করেছেন আরেক টেনিস তারকা নোভাক জোকোভিচের বাবা সরদিয়ন জোকোভিচ।

ফেদেরারের উপর জোকোভিচের বাবার রাগ অবশ্য নতুন কিছু নয়। জোকোভিচের ক্যারিয়ারের শুরুর দিকের এক ম্যাচে ফেদেরারের সঙ্গে তার বাদানুবাদ হয়। তখন থেকেই এ সুইস তারকার উপর ক্ষেপে আছেন জোকোভিচের বাবা।

সম্প্রতি নিজ দেশের টেলিভিশন চ্যানেল কেওয়ানের শো 'এইস অব ইলিভেন'কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে জোকোভিচের বাবা বলেছেন, '১৫ বছর আগে সে (ফেদেরার) আমার ছেলেকে আক্রমণ করেছিল যখন সে মাত্র একজন তরুণ খেলোয়াড়, ১৮ কি ১৯ বছর বয়স। আমি বলি সে হয়তো একটি মহান চ্যাম্পিয়ন খেলোয়াড়, হয়তো ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়। কিন্তু এটা ঠিক যে সে চ্যাম্পিয়ন হলেও ফেদেরার একজন ভালো মানুষ নয়।'

এছাড়া করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শেষ না হতে এ সার্বিয়ান তারকা একটি টেনিস টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছিলেন। সেখানে ফেদেরার ও নাদালদের আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন জোকোভিচ। কিন্তু তারা সাড়া দেননি। জোকোভিচের বাবার রাগটা তাতে আরও বাড়ে। এরপর নানা সাক্ষাৎকারে তাদের উপর রাগ ঝেড়েছেন তিনি।

অবশ্য জোকোভিচের আয়োজন করা সে টেনিস টুর্নামেন্টে খেলতে গিয়ে অনেক খেলোয়াড়ই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন। তাই মাঝপথে থাকিয়ে দিতে হয় সে আসর। নিয়ে সাড়া বিশ্বের তোপের মুখে পড়েন জোকোভিচ। গণমাধ্যমে তাকে নিয়ে অনেক সমালোচনা হয়।

এ বিষয়টিও মানতে পারছেন না জোকোভিচের বাবা। তার ধারণা বিদেশি গণমাধ্যমে ইচ্ছে করেই জোকোভিচের বদনাম করা হয়, 'বিদেশি গণমাধ্যমগুলো আমাদের নিয়ে ভালো কিছু বলে না। তাদের দ্বারা নানা ভাবে বিরক্ত হই। সত্যি বলতে কি আমরা কোনো বিতর্কিত বিষয়ের অংশ হতে চাই না। তারা আমাদের বিষয়ে নানা কটূক্তি করে নানা বদনাম করে যা খুবই বিরক্তিকর।'

Comments

The Daily Star  | English

Eid rush: People suffer as highways clog up

As thousands of Eid holidaymakers left Dhaka yesterday, many suffered on roads due traffic congestions on three major highways and at an exit point of the capital in the morning.

4h ago