ঘরের মাঠে কাজ এগিয়ে রাখার সুবাদে শেষ চারে রিয়াল

অ্যানফিল্ডে কোয়ার্টার ফাইনালের ফিরতি লেগ গোলশূন্য ড্র হয়েছে।
real madrid liverpool
ছবি: টুইটার

একের পর এক আক্রমণ চালিয়েও জালের ঠিকানা খুঁজে পেল না ইংলিশ জায়ান্ট লিভারপুল। স্প্যানিশ পরাশক্তি রিয়াল মাদ্রিদের সেরা প্রচেষ্টাও পৌঁছাতে পারল কেবল পোস্ট অবধি। তবে ঘরের মাঠে কাজ এগিয়ে রাখার সুবাদে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালে উঠল জিনেদিন জিদানের দল।

বুধবার রাতে অ্যানফিল্ডে দুদলের কোয়ার্টার ফাইনালের ফিরতি লেগ গোলশূন্য ড্র হয়েছে। প্রথম লেগে আলফ্রেদো দি স্তেফানো স্টেডিয়ামে রিয়াল জিতেছিল ৩-১ গোলে। ওই ম্যাচের ফলই চ্যাম্পিয়ন্স লিগের রেকর্ড ১৩ বারের চ্যাম্পিয়নদের দিয়েছে শেষ চারের টিকিট।

টানা তিনবার শিরোপা জেতার পর গত দুই মৌসুমে শেষ ১৬ থেকে বাদ পড়েছিল রিয়াল। এবার সেই ব্যর্থতার শিকল ছিন্ন করেছে তারা। ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে লস ব্লাঙ্কোসদের প্রতিপক্ষ ইংল্যান্ডের আরেক শীর্ষস্থানীয় ক্লাব চেলসি। তারা সেমিতে উঠেছে এফসি পোর্তোকে বিদায় করে।

ছিটকে যাওয়া লিভারপুল বল দখলে এগিয়ে থাকার পাশাপাশি আক্রমণেও আধিপত্য দেখায়। ইয়ুর্গেন ক্লপের শিষ্যরা গোটা ম্যাচে নেয় ১৫টি শট। যার মধ্যে চারটি ছিল লক্ষ্যে। অন্যদিকে, রিয়ালের নেওয়া মাত্র ছয়টি শটের দুটি ছিল লক্ষ্যে।

আক্রমণের চেয়ে রক্ষণ জমাট রেখে গোল হজম না করার দিকেই মনোযোগ ছিল রিয়ালের। চোটজর্জর দলটি খেলে ‘বাস পার্কিং’ ফুটবল। ফলে ম্যাচের অধিকাংশ সময়ে লিভারপুলের গোলরক্ষক বাদে প্রায় সব খেলোয়াড় ছিলেন সফরকারীদের অর্ধে।

স্বাগতিক ভক্ত-সমর্থকরা অবশ্য দুষতে পারেন তাদের ফরোয়ার্ডদের। গোল করতেই যেন ভুলে গিয়েছিলেন তারা! দ্বিতীয় মিনিটে সাদিও মানের পাসে মোহামেদ সালাহ সুবর্ণ সুযোগ নষ্ট করেন। ৪০তম মিনিটে আবার হতাশ করেন মিশরের এই ফরোয়ার্ড। পরের মিনিটে জর্জিনিও ভাইলানডামও ব্যর্থ হন। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুর দিকে রবার্তো ফিরমিনোর প্রচেষ্টা পরীক্ষায় ফেলতে পারেনি রিয়াল গোলরক্ষক থিবো কোর্তোয়াকে। শট না নিয়ে মানেও হাতছাড়া করেন গোলের সুযোগ।

সুযোগ পেয়েছিল রিয়ালও। ২০তম মিনিটে করিম বেনজেমার শট পোস্টে বাধা পায়। পাল্টা আক্রমণে দ্বিতীয়ার্ধেও ভীতি ছড়ায় তারা। কিন্তু ভিনিসিয়ুস জুনিয়র আর বেনজেমাকে নিশানা ভেদ করতে দেননি লিভারপুল গোলরক্ষক অ্যালিসন।

ম্যাচ শুরুর আগে অবশ্য ন্যাক্কারজনক এক কাণ্ড ঘটে। স্টেডিয়ামে যাওয়ার সময় রিয়ালের টিম বাসে ঢিল ছুঁড়ে জানালার কাঁচ ভেঙে দেয় লিভারপুল একদল উগ্র সমর্থক। আলরেডস কর্তৃপক্ষ ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করার পাশাপাশি আনুষ্ঠানিকভাবে ক্ষমাও চেয়েছে।

Comments