প্রথম সেশনে ৫ উইকেট নিল বাংলাদেশ, লিড একশো ছাড়িয়ে লঙ্কানদের ইনিংস ঘোষণা

পাল্লেকেলেতে প্রথম টেস্টের পঞ্চম দিনেও উইকেটে বিশাল কোন ক্ষত তৈরি হয়নি। ৮ উইকেটে ৬৪৮ রান নিয়ে লাঞ্চ বিরতিতে গেছে স্বাগতিকরা। হাতে ২ উইকেট বাংলাদেশ থেকে তারা এগিয়ে আছে ১০৭ রানে।
Taskin Ahmed
ছবি: এসএলসি

শ্রীলঙ্কার লক্ষ্য দ্রুত রান বাড়ানো, বাংলাদেশের লক্ষ্য দ্রুত উইকেট নেওয়া। তাতে দুদলের প্রত্যাশাই কিছুটা পূরণ হয়েছে। প্রথম সেশনে ১৩৭ রান নিয়েছে শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ তুলেছে ৫ উইকেট।

পাল্লেকেলেতে প্রথম টেস্টের পঞ্চম দিনেও উইকেটে বিশাল কোন ক্ষত তৈরি হয়নি। ৮ উইকেটে ৬৪৮ রান নিয়ে লাঞ্চ বিরতিতে যায় স্বাগতিকরা। লাঞ্চের পর তারা আর ব্যাট করতে নামেনি। দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছে বাংলাদেশ। 

এদিন দ্রুত রান তোলার মিশন নিয়ে নেমেছিল শ্রীলঙ্কা। জুতসই একটা লিড নিয়ে নাটকীয় কিছুর প্রত্যাশার কথা জানিয়েছিল আগের দিন। কিন্তু দিনের পঞ্চম ওভারে তাদের আঘাত দেন তাসকিন আহমেদ। টানা ভাল বল করতে থাকা এই পেসার পান দ্বিতীয় উইকেট। দেড়শো ছাড়ানো ধনঞ্জয়া তার বলে থার্ড ম্যাচে ঠেলে সিঙ্গেল নিতে গিয়ে স্টাম্পে টেনে বোল্ড হন।

এতে চতুর্থ উইকেটে দিমুথ করুনারত্নের সঙ্গে ভাঙ্গে তার ৩৪৫ রানের বিশাল জুটি। করুনারত্নেও পরে টেকেননি বেশিক্ষণ। তাসকিনের পরের ওভারে পুল করতে গিয়েছিলেন। কিন্তু ধরা পড়েন শর্ট মিডউইকেটে। ২৪৪ রানে গিয়ে থামেন লঙ্কান অধিনায়ক। এখন পর্যন্ত ৩০ ওভার বল করা তাসকিন পান তৃতীয় উইকেট। এই টেস্টে শুরু থেকেই বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে ধারাবাহিক লাইন-লেন্থে বল করে গেছেন তিনি। গতির সঙ্গে মিলিয়ে বুদ্ধি দিয়েও বৈচিত্র্য এনে মরা পিচে প্রানপণ চেষ্টা চালাতে দেখা গেছে তাকে। কঠিন উইকেটেও তাই শেষ পর্যন্ত কিছু উইকেট ধরা দিয়েছে তার হাতে। 

অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে বল হাতে নিয়ে পরে উইকেট নেন ইবাদত হোসেনও। তার বাইরের বল তাড়া করতে গিয়ে উইকেটের পেছনে ধরা পড়েন ১২ রান করে পাথুম নিশানকা। 

ক্রিজে এসে নিরোশান ডিকভেলা দ্রুত রান আনতে শুরু করেছিলেন। বিপদজনক হয়ে উঠার আগে তাকে থামানো যায় রান আউটে। ৩৩ বলে ৩১ করা লঙ্কান কিপার ব্যাটসম্যান হাসারাঙ্গার সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝিতে কাটা পড়েন।

এরপর সুরাঙ্গা লাকমালকে নিয়ে রান বাড়াতে থাকেন ওয়েইন্দু হাসারাঙ্গা। পেসের পর স্পিন দিয়ে তাদের আটকানো কঠিন হচ্ছিল। মেহেদী হাসান মিরাজ, আর তাইজুল ইসলাম এদিনও ছিলেন মলিন। তাদের বল থেকে দ্রুত রান আনতে কোন সমস্যা হচ্ছিল না লঙ্কানদের।

লাঞ্চের ঠিক আগে অবশ্য থামতে হয় হাসারাঙ্গাকে। তাইজুলের বলে চালাতে গিয়ে বোল্ড হন ৫৫ বলে ৪৩ করা এই অলরাউন্ডার।

এই টেস্টের বাকি আছে আর দুই সেশন। বাংলাদেশের দ্বিতীয় ইনিংস দ্রুত মুড়ে দেওয়ার স্বপ্ন ছিল স্বাগতিকদের।  কিন্তু উইকেটের আচরণ বলছে, খুব তাড়া না থাকলে এই উইকেটে ব্যাটসম্যানদের আউট হওয়ার সুযোগ কম।

 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

(পঞ্চম দিনের লাঞ্চ পর্যন্ত)

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস: ৫৪১/৭

শ্রীলঙ্কা প্রথম ইনিংস: ১৭৯ ওভারে ৬৪৮/৮ (ডিক্ল)  (আগের দিন ১৪৯ ওভারে ৫১২/৩) (করুনারত্নে ২৪৪, থিরিমান্নে ৫৮, ওশাদা ২০, ম্যাথিউস ২৫, ধনঞ্জয়া ১৬৬, নিশানকা ১২, ডিকভেলা ৩১ , হাসারাঙ্গা ৪৩, লাকমাল ব্যাটিং, ২৩*, বিশ্ব ব্যাটিং ০*  ; আবু জায়েদ ০/৭৬, তাসকিন ৩/১১২, ইবাদত ১/৯১, মিরাজ ১/১৬০, তাইজুল ২/১৬৪, মুমিনুল ০/১৮, সাইফ ০/৫)।

Comments

The Daily Star  | English

Sajek accident: Death toll rises to 9

The death toll in the truck accident in Rangamati's Sajek increased to nine tonight

6h ago