ফল প্রকাশের দুদিন পরও বিরোধীরা হামলার শিকার, নিহত ১৪

পশ্চিবঙ্গে বিধানসভা ভোটের ফল প্রকাশিত হয়েছে দুদিন হলো। আগামীকাল বুধবার তৃতীয় বারের জন্যে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শপথ নেবেন। এই অবস্থার ভেতরেও শাসক তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিরোধী বাম ও বিজেপির কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলার অভিযোগ আরও জোরালো হয়ে উঠছে।
ছবি: সংগৃহীত

পশ্চিবঙ্গে বিধানসভা ভোটের ফল প্রকাশিত হয়েছে দুদিন হলো। আগামীকাল বুধবার তৃতীয় বারের জন্যে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শপথ নেবেন। এই অবস্থার ভেতরেও শাসক তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিরোধী বাম ও বিজেপির কর্মী-সমর্থকদের ওপর হামলার অভিযোগ আরও জোরালো হয়ে উঠছে।

ফলাফল প্রকাশের পর থেকে এখন পর্যন্ত বাম-বিজেপির অন্তত ১৪ জন রাজনৈতিক হিংসার শিকার হয়েছেন।

পূর্ব বর্ধমানের জামালপুরের নবগ্রামে নিজ বাড়িতে নিহত হয়েছেন সিপিআই (এম) কর্মী কাকলী ক্ষেত্রপাল (৫২)। দলের অভিযোগ, তৃণমূলের সমর্থকরা কাকলীর বাড়িতে ঢুকে তাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। একই চিত্র পূর্ব বর্ধমানের আরও বেশ কয়েকটি এলাকায়।

অভিযোগ তুলছে তৃণমূল কংগ্রেসও। তাদের দাবি, বর্ধমানের রায়না থানার সমসপুরের মালিকপাড়ায় বিজেপির আক্রমণে নিহত হয়েছেন তাদের কর্মী গণেশ মালিক।

তবে বিজেপি এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তাদের দাবি, তৃণমূলের সমর্থকরা তাদের কর্মীদের বাড়িতে হামলা করতে গেলে নিজেদের ভেতর সংঘর্ষে গণেশের মৃত্যু হয়।

উত্তর চব্বিশ পরগণার দেগঙ্গা বিধানসভার দত্তপুকুর থানার কদম্বগাছিতে ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের কর্মী হাসানুর জামান (৫৩) নিহত হয়েছেন।

তার মরদেহ নিয়ে টানা পাঁচ ঘণ্টা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছেন সংযুক্ত মোর্চার কর্মীরা। পরে পুলিশের আশ্বাসে অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়।

পূর্ব বর্ধমান থেকে নদিয়া, উত্তর-চব্বিশ পরগণা, দক্ষিণ-চব্বিশ পরগণা, কোচবিহার, পশ্চিম বর্ধমান— সব জায়গায় তাদের কর্মী-সমর্থকরা আক্রান্ত বলে অভিযোগ করেছে সিপিআই (এম)। তাদের আরও অভিযোগ, উত্তর-চব্বিশ পরগণার হাড়োয়ার সোনাপুকুর, শঙ্করপুর, বকজুড়ি, শালিপুরজুড়ে শাসক তৃণমূলের তাণ্ডব চলছে।

নদিয়ার চোপড়ায় সিপিআই (এম) কার্যালয়ে আগুন প্রসঙ্গে রাজ্য সম্পাদক মণ্ডলীর সদস্য সুমিত দে বলেন, ‘আমি কিছু জানি না, খোঁজ নিচ্ছি।’

বিজেপির অভিযোগ, ভোট-পরবর্তী সহিংসায় তাদের দলের নয় জনের মৃত্যু হয়েছে। তৃণমূল জানিয়েছে, তাদের চার সমর্থক প্রাণ হারিয়েছেন।

নির্বাচন-পরবর্তী সহিংসতার বিষয়ে রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর গতকাল রাজ্যের মুখ্যসচিবের সঙ্গে আলোচনা করেছেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শান্তি বজায় রাখতে বললেও নানা জায়গা থেকে বিচ্ছিন্ন সহিংসতার সংবাদ আসছে।

বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ রাজ্যপাল ধনকরের সঙ্গে দেখা করে তাদের কর্মী-সমর্থকদের ওপর শাসক তৃণমূলের হামলার অভিযোগ করেছেন। বিজেপি জানিয়েছে, সহিংসতা বন্ধ না হলে তারা অবস্থান কর্মসূচি করবে।

আরও পড়ুন

বুধবার শপথ নেবেন মমতা

Comments

The Daily Star  | English
Qatar emir’s visit to Bangladesh

Qatari Emir Al Thani arrives in Dhaka for a 2-day visit

Qatari Emir Sheikh Tamim Bin Hamad Al Thani arrived in Dhaka for a two-day visit today afternoon

39m ago