তৃণমূলের ৩ গুরুত্বপূর্ণ নেতা সুব্রত, ফিরহাদ, মদন ও সাবেক মন্ত্রী শোভন গ্রেপ্তার

নারদা মামলায় তৃণমূলের তিন নেতা ও সাবেক এক মন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে ভারতের সেন্ট্রাল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (সিবিআই)। তারা হলেন— মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভার সদস্য সুব্রত মুখোপাধ্যায় ও ফিরহাদ হাকিম, তৃণমূলের বিধানসভার সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী মদন মিত্র এবং সাবেক মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায়।
সুব্রত, ফিরহাদ, মদন ও শোভন।

নারদা মামলায় তৃণমূলের তিন নেতা ও সাবেক এক মন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছে ভারতের সেন্ট্রাল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (সিবিআই)। তারা হলেন— মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভার সদস্য সুব্রত মুখোপাধ্যায় ও ফিরহাদ হাকিম, তৃণমূলের বিধানসভার সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী মদন মিত্র এবং সাবেক মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায়।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, ওই চার জনকে তাদের বাড়ি থেকে তুলে নিজাম প্যালেসে নিয়ে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। আজ তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেবে সিবিআই। আজকেই তাদের আদালতে হাজির করা হবে।

সূত্র আরও জানিয়েছে, নারদা কাণ্ডের আরও এক অভিযুক্ত আইপিএস অফিসার এসএমএইচ মির্জার বিরুদ্ধেও আজকেই অভিযোগপত্র দেওয়া হতে পারে।

এই চার নেতাকে গ্রেপ্তারের ঘটনা ঘিরে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতি করোনা আবর্তের ভেতরেই নতুন করে শরগরম হয়ে উঠেছে।

তৃণমূলের সংসদ সদস্য সৌগত রায় এই গ্রেপ্তারের নিন্দা করে একে ‘বিজেপির প্রতিহিংসামূলক আচরণ’ বলে মন্তব্য করেছেন।

কলকাতার সাবেক মেয়র ও সাবেক মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায় তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন। তবে, চলতি বছর পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনে মনোনয়ন না পেয়ে তিনি বিজেপি থেকে পদত্যাগ করেন। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত তিনি কোনো দলে যোগ দেননি। শোভনের স্ত্রী তৃণমূলের বিধায়ক স্বামীর সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদের মামলা করলেও গ্রেপ্তারের খবর পেয়ে নিজাম প্যালেসে আইনজীবীদের সঙ্গে পরামর্শ করতে গেছেন।

সূত্র জানায়, গ্রেপ্তার চার নেতাকে এই মুহূর্তে নিজাম প্যালেসে বসিয়ে রাখা হয়েছে। আজ স্থানীয় সময় দুপুর ২টার দিকে তাদের বাঙশাল কোর্টে হাজির করা হবে।

Comments

The Daily Star  | English