জিতেও শিরোপা ধরে রাখা হলো না রিয়ালের

ঘরের মাঠ আলফ্রেদো দি স্তেফানো স্টেডিয়ামে ২-১ গোলে জিতেছে রিয়াল।
ছবি: টুইটার

শিরোপা ধরে রাখতে জয়ের বিকল্প ছিল না রিয়াল মাদ্রিদের। সেই সঙ্গে পয়েন্ট হারাতে হতো অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদকে। তবে ভিয়ারিয়ালের বিপক্ষে লম্বা সময় জুড়ে পিছিয়ে থাকা রিয়াল শেষ পর্যন্ত পূর্ণ তিন পয়েন্ট আদায় করে নিলেও আরেক ম্যাচে পা হড়কায়নি অ্যাতলেতিকো। ফলে জিতেও রানার্সআপ হয়ে স্প্যানিশ লা লিগার ২০২০-২১ মৌসুম শেষ করল জিনেদিন জিদানের দল। 

শনিবার রাতে আসরের শেষ রাউন্ডে ঘরের মাঠ আলফ্রেদো দি স্তেফানো স্টেডিয়ামে ২-১ গোলে জিতেছে রিয়াল। ম্যাচের ২০তম মিনিটে ভিয়ারিয়ালকে এগিয়ে নিয়েছিলেন ইয়েরিমি পিনো। নির্ধারিত সময়ের তিন মিনিট বাকি থাকতে স্বাগতিকদের সমতায় ফেরান করিম বেনজেমা। এরপর যোগ করা সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে লস ব্লাঙ্কোসদের জয় নিশ্চিত করেন লুকা মদ্রিচ।

রিয়াল ভায়াদোলিদের মাঠে ২-১ গোলে জিতে লা লিগার শিরোপা জিতেছে অ্যাতলেতিকো। অস্কার প্লানোর গোলে প্রথমার্ধে পিছিয়ে পড়া দিয়েগো সিমিওনির দল দ্বিতীয়ার্ধে সমতায় ফেরে আনহেল কোরেয়ার লক্ষ্যভেদে। দশ মিনিট পর লুইস সুয়ারেজ অতিথিদের পক্ষে জয়সূচক গোলটি করেন।

৩৮ ম্যাচ শেষে ২৬ জয় ও ৮ ড্রয়ে অ্যাতলেতিকো অর্জন করেছে ৮৬ পয়েন্ট। দ্বিতীয় স্থানে থাকা গতবারের চ্যাম্পিয়ন রিয়াল ২৫ জয় ও ৯ ড্রয়ে পেয়েছে ৮৪ পয়েন্ট। ৭৯ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে থেকে মৌসুম শেষ করেছে লিগের আরেক পরাশক্তি বার্সেলোনা। তারা এইবারের মাঠে ১-০ গোলে জিতেছে আঁতোয়ান গ্রিজমানের গোলে।

ভিয়ারিয়ালের শুরুটা উজ্জ্বল হলেও গোল হজমের পর ধীরে ধীরে নিজেদের গুছিয়ে নেয় রিয়াল। দ্বিতীয়ার্ধে আক্রমণে ধার বাড়ায় তারা। বল দখলে এগিয়ে থাকার পাশাপাশি প্রতিপক্ষের গোলমুখে তারা নেয় ১৪টি শট। এর মধ্যে লক্ষ্যে ছিল চারটি। অন্যদিকে, সফরকারীদের ছয়টি শটের দুইটি ছিল লক্ষ্য বরাবর।

৫৫তম মিনিটে হেডে জালের ঠিকানা খুঁজে পেয়েছিলেন বেনজেমা। কিন্তু তার গোলটি বাতিল করা হয় অফসাইডের কারণে। দারুণ ছন্দে থাকা এই তারকা অবশ্য পরে স্কোরশিটে নিজের নাম ঠিকই ওঠান। রদ্রিগোর পাসে ডি-বক্সের ভেতর থেকে জোরালো শটে লক্ষ্যভেদ করেন বেনজেমা।

সদ্যসমাপ্ত মৌসুমে ৩৪ ম্যাচে এই ফরাসি স্ট্রাইকারের এটি ২৩তম গোল। সতীর্থদের নিয়ে তিনি করিয়েছেন আরও নয়টি গোল। তার উপরে থেকে আসরের সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার হিসেবে টানা পঞ্চম ও সবমিলিয়ে অষ্টমবারের মতো পিচিচি ট্রফি জিতেছেন লিওনেল মেসি। বার্সার এই আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড ৩৫ ম্যাচে করেছেন ৩০ গোল। এইবারের বিপক্ষে অবশ্য বিশ্রামে ছিলেন তিনি।

Comments

The Daily Star  | English

Death came draped in smoke

Around 11:30, there were murmurs of one death. By then, the fire, which had begun at 9:50, had been burning for over an hour.

2h ago