হেফাজতের তাণ্ডব: ব্রাহ্মণবাড়িয়া পুলিশের ১৩ এসআইকে একযোগে বদলি

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরকে কেন্দ্র করে হেফাজতে ইসলামের তাণ্ডবের দুই মাস পর এবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলায় কর্মরত পুলিশের ১৩ জন সাব-ইন্সপেক্টরকে (এসআই) একযোগে বদলি করা হয়েছে।
b.baria_.jpg

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরকে কেন্দ্র করে হেফাজতে ইসলামের তাণ্ডবের দুই মাস পর এবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলায় কর্মরত পুলিশের ১৩ জন সাব-ইন্সপেক্টরকে (এসআই) একযোগে বদলি করা হয়েছে।

দেশজুড়ে আলোচিত এ ঘটনার পর পুলিশের এএসপি ও ওসি’সহ এই নিয়ে জেলার মোট ১৯ পুলিশ কর্মকর্তাকে বদলি করা হলো।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) মো. রইস উদ্দিন দ্য ডেইলি স্টারকে বদলির বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের উপ-মহাপরিদর্শকের (ডিআইজি) কার্যালয় কর্তৃক জারিকৃত এক আদেশে ১৩ জনকে বদলি করা হয়েছে। এর মধ্যে ১০ জন এসআইকে ‘জনস্বার্থে’ এবং বাকি তিন জনকে ‘প্রশাসনিক কারণে’ বদলির কথা আদেশে উল্লেখ করা হয়েছে।

বদলিকৃতদের আগামী ২৯ মে’র মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগদানের জন্য ছাড়পত্র নেওয়ার কথা বলা হয়েছে। অন্যথায়, তারা পরদিন ৩০ মে থেকে স্ট্যান্ড রিলিজ হিসেবে গণ্য হবেন।

বদলিকৃতদের মধ্যে এসআই মোহাম্মদ জয়নাল আবেদীন ও তপু সাহাকে বান্দরবান জেলায় এবং মো. শাহ সাব খাঁন ও মো. মতিউর রহমানকে খাগড়াছড়ি জেলায় এবং মো. হুমায়ূন কবির, মো. তোফাজ্জল হোসেন, বজলুর রহমান খাঁন, এস এম আতিকুজ্জামান, মো. আমির হামজা ও বিউটি রাণী দাসকে রাঙামাটি জেলায় বদলি করা হয়েছে। এ ছাড়া, এসআই মো. মিজানুর রহমানকে চাঁদপুর, মো. নুরুল আমিনকে নোয়াখালী এবং মো. শফিকুল ইসলামকে যথাক্রমে চাঁদপুর, নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুর জেলায় বদলি করা হয়েছে।

চাঁদপুর, নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুর জেলায় বদলিকৃত এই তিন এসআইকে ‘প্রশাসনিক কারণে’ বদলির কথা উল্লেখ করা হয়েছে। বাকি ১০ জন এসআইকে ‘জনস্বার্থে’ বদলি করা হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়।

ছয়দিন আগে গত ১৯ মে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মুহাম্মদ শাহজাহানকে বদলি করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পুলিশ সুপার কার্যালয়ের নিয়ন্ত্রণ কক্ষে পদায়ন করা হয়। এর আগে, গত ২৬ এপ্রিল একই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আবদুর রহিমকে বদলি করে রংপুর রেঞ্জ পুলিশে সংযুক্ত করা হয়েছিল। এরপর গত ১১ মে একই থানায় কর্মরত আরেক পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) মো. ইশতিয়াক আহমেদকে জেলার নাসিরনগর থানাধীন চাতলপাড় তদন্ত কেন্দ্রে বদলি করা হয়।

উল্লেখ্য, গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ তিন দিনে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতে ইসলামের তাণ্ডবের পর এ নিয়ে জেলার মোট ১৯ পুলিশ কর্মকর্তাকে বদলি করা হলো।

এর আগে, বদলিকৃতরা হলেন- জেলা পুলিশের বিশেষ শাখায় কর্মরত সহকারী পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আলাউদ্দিন চৌধুরী, সরাইল বিশ্বরোড খাঁটিহাতা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গাজী মো. সাখাওয়াত হোসেন এবং সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আল মামুন মুহাম্মদ নাজমুল আহমেদ।

Comments

The Daily Star  | English
Fire exits horrifying at many city eateries

Fire exits horrifying at many city eateries

Just like on Bailey Road, a prominent feature of Banani road-11, Kamal Ataturk Avenue, Satmasjid Road, Khilagon Taltola and Mirpur-11 traffic circle are tall buildings that house restaurants, cafes and commercial kitchens on every floor.

10h ago