রাজধানীতে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪

রাজধানী ঢাকার যাত্রাবাড়ী, খিলক্ষেত ও কামরাঙ্গীর চর এলাকায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় তিন জন নিহত হয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার সকালে মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের ওপরে মোটারসাইকেল দুর্ঘটনায় টিপু সুলতান রনি (২২) নামে এক কলেজছাত্র নিহত হয়েছেন। দুর্ঘটনায় আরও দুই জন আহত হয়েছেন।
dead body
প্রতীকী ছবি। স্টার ডিজিটাল গ্রাফিক্স

রাজধানী ঢাকার যাত্রাবাড়ী, খিলক্ষেত ও কামরাঙ্গীর চর এলাকায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় তিন জন নিহত হয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার সকালে মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের ওপরে মোটারসাইকেল দুর্ঘটনায় টিপু সুলতান রনি (২২) নামে এক কলেজছাত্র নিহত হয়েছেন। দুর্ঘটনায় আরও দুই জন আহত হয়েছেন।

রনি নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার আব্দুর রহিমের ছেলে। তিনি ঢাকা কলেজের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলেন। আহত দুজন রনির বন্ধু শাহিন (২২) ও নাঈম (২১)।

আব্দুর রহিম ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কর্মচারী। তিনি সপরিবারে এলিফ্যান্ট রোডে ঢাকা মেডিকেল স্টাফ কোয়ার্টারে বসবাস করেন। রহিম দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘আজ সকালে রনি তার দুই বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে মোটরসাইকেলে সাইনবোর্ড এলাকায় যাচ্ছিল। রনি নিজেই মোটরসাইকেল চালাচ্ছিল। আমরা জানতে পেরেছি, ফ্লাইওভারের ওপরে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।’

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (পরিদর্শক) বাচ্চু মিয়া তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করে ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ মর্গে রাখা হয়েছে। আহত দুই জনের আঘাত তেমন গুরুতর না।’

আজ ভোর সাড়ে ৫টার দিকে খিলক্ষেত এলাকায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে সড়ক দুর্ঘটনায় শরীফা বেগম (৩২) নামে এক নারী নিহত হয়েছেন।

শরীফার বাড়ি নেত্রকোণার পূর্বধলা উপজেলার আলীপুর গ্রামে। তার স্বামীর নাম মো. রাসেল। ঢাকায় তিনি সপরিবারে খিলক্ষেত বনরূপা এলাকায় বসবাস করতেন। শরীফার চাচা আব্দুস সালাম ডেইলি স্টারকে জানান, গত এক বছর ধরে শরীফা উত্তর সিটি করপোরেশনে অস্থায়ী পরিচ্ছন্নকর্মী হিসেবে কাজ করছিলেন। আজ সকালে জানতে পারি, খিলক্ষেত এলাকায় রাস্তা ঝাড়ু দেওয়ার সময় এই দুর্ঘটনায় ঘটেছে।

খিলক্ষেত থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. শামসুল হক সরকার বলেন, ‘ভোরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে যানবাহন ধাক্কায় ঘটনাস্থলেই ওই নারীর মৃত্যু হয়। খবর পেয়ে আমরা মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠিয়েছি।’

কামরাঙ্গীর চরের খালপাড় এলাকায় মাইক্রোবাসের ধাক্কায় রাহিম মিয়া (১০) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার সকাল পৌনে ৭টার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (পরিদর্শক) মো. বাচ্চু মিয়া ডেইলি স্টারকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসক সকাল সাড়ে ৮টায় শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।’

রাহিম হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার মো. মোহন চানের ছেলে। মোহন দীর্ঘ দিন ধরে স্ত্রী ও তিন সন্তান নিয়ে কামরাঙ্গীরচর আলীনগর এলাকায় বাস করে আসছেন। পেশায় তিনি ঠেলাগাড়িচালক।

বাচ্চু মিয়া আরও বলেন, আমরা জানতে পেরেছি মাইক্রোবাসের ধাক্কায় শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। ওই মাইক্রোবাসের চালক মো. বাবুল নিজেই শিশুটিকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন। বর্তমানে তিনি পুলিশ হেফাজতে রয়েছেন। তার গাড়িটি জব্দ করা হয়েছে।

আজ ভোররাতে যাত্রাবাড়ীর দনিয়া এলাকায় ট্রাকচাপায় মাসুদ (২৫) নামে এক রেকারচালক নিহত হয়েছেন। এ সময় খালেদ (৪০) নামে একজন আহত হয়েছেন।

মাসুদের ভাগিনা রিফাত হোসেন জানান, গত রাতে হানিফ ফ্লাইওভারের নিচে দুর্ঘটনাটি ঘটে। আহত অবস্থায় দুই জনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে ভোররাত ১২টার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক মাসুদকে মৃত ঘোষণা করেন।

Comments

The Daily Star  | English

Death came draped in smoke

Around 11:30pm, there were murmurs of one death. By then, the fire had been burning for over an hour.

9h ago