কনওয়ে-ইয়াংয়ের ব্যাটে বড় সংগ্রহের ভিত নিউজিল্যান্ডের

দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে প্রথম ইনিংসে সফরকারী কিউইদের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ২২৯ রান।
conway and young
ছবি: টুইটার

সেঞ্চুরির সুবাস জাগিয়ে থামলেন ওপেনার ডেভন কনওয়ে। শেষবেলায় তার মতো আক্ষেপে পুড়লেন তিনে নামা উইল ইয়াংও। তবে তাদের কল্যাণে বড় সংগ্রহের ভিত পেয়ে গেল নিউজিল্যান্ড।

শুক্রবার এজবাস্টন টেস্টের দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে প্রথম ইনিংসে সফরকারী কিউইদের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ২২৯ রান। এর আগে প্রথম দিনের ৭ উইকেটে ২৫৮ রান নিয়ে খেলতে নামা ইংলিশরা অলআউট হয় ৩০৩ রানে।

৭৪ রানে পিছিয়ে আছে নিউজিল্যান্ড। উইকেটে আছেন অভিজ্ঞ রস টেইলর ৯৭ বলে ৪৬ রানে।

দিনের শেষ বলে আউট হন প্রথম টেস্ট ফিফটির স্বাদ পাওয়া ইয়াং। অধিনায়ক কেইন উইলিয়ামসনের চোটের কারণে পাওয়া সুযোগের সদ্ব্যবহার করেন তিনি। ১১ চারে ২০৪ বলে ৮২ রান আসে তার ব্যাট থেকে। তাকে সাজঘরে পাঠিয়ে সাদা পোশাকে নিজের প্রথম উইকেট পান ইংল্যান্ডের অনিয়মিত স্পিনার ড্যান লরেন্স।

টেইলরের সঙ্গে ৯২ রানের জুটি গড়ার আগে দ্বিতীয় উইকেটে কনওয়ের সঙ্গে ১২২ রান যোগ করেন ইয়াং। আলোড়ন তুলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখা কনওয়ে ৮০ রান করেন ১৪৩ বলে। তার ইনিংস ছিল ১২ চার। তাকে বিদায় করেন অভিজ্ঞ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রড। শুরুতেই টম ল্যাথামের উইকেট তুলে নিয়ে নিউজিল্যান্ডকে প্রথম ধাক্কাও দিয়েছিলেন তিনি।

কনওয়ে আর ইয়াংয়ের আগে ব্যক্তিগত মাইলফলক ছোঁয়া হয়নি লরেন্সেরও। ক্যারিয়ারসেরা ব্যাটিংয়ে ৮১ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। তার নৈপুণ্যে তিনশ পেরিয়ে যায় ইংলিশরা। ১২৪ বলের ইনিংসে ১৩ চার মারেন তিনি।

অষ্টম উইকেটে মার্ক উডকে নিয়ে ৬৬ রান যোগ করেন লরেন্স। এই জুটি ভাঙেন ম্যাট হেনরি। উডের ব্যাট থেকে আসে ৮০ বলে ৪১ রান। পরে ব্রড আর জেমস অ্যান্ডারসনকে সাজঘরে পাঠিয়ে স্বাগতিকদের ইনিংস মুড়িয়ে দেন ট্রেন্ট বোল্ট। সবমিলিয়ে এই বাঁহাতি পেসার ৪ উইকেট নেন ৮৫ রানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংস: (আগের দিন ২৫৮/৭) ১০১ ওভারে ৩০৩ (লরেন্স ৮১*, উড ৪১, ব্রড ০, অ্যান্ডারসন ৪; বোল্ট ৪/৮৫, হেনরি ৩/৭৮, ওয়্যাগনার ১/৬৮, মিচেল ০/২৩, এজাজ ২/৩৪)।

নিউজিল্যান্ড প্রথম ইনিংস: ৭৬.৩ ওভারে ২২৯/৩ (ল্যাথাম ৬, কনওয়ে ৮০, ইয়াং ৮২, টেইলর ৪৬*; অ্যান্ডারসন ০/৪৫, ব্রড ২/২২, উড ০/৪৩, স্টোন ০/৫৮, রুট ০/৩৯, লরেন্স ১/৮)।

Comments

The Daily Star  | English

44 lives lost to Bailey Road blaze

33 died at DMCH, 10 at the burn institute, and one at Central Police Hospital

9h ago