খেলা

নতুনত্ব উপভোগ করছেন মুশফিক

সোমবার মুশফিক ও জান্নাতুল কেফায়াত মন্ডির সন্তান জন্ম নেয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেলের ছবি দিয়ে সবার দোয়া আগেই চেয়েছিলেন মুশফিক। এবার ক্রিকেট নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে স্বাভাবিক কারণে শুভেচ্ছা পেলেন সবার।
Mushfiqur Rahim
টেস্ট অধিনায়কত্ব হারানোর পর এই প্রথম সংবাদ সম্মেলনে এলেন মুশফিক। ছবি: ফিরোজ আহমেদ

চট্টগ্রাম টেস্ট শেষ করেই ছুটে এসেছিলেন ঢাকায়। পরদিনই আসে মুশফিকুর রহিমের পরিবারে বড় সুখবর। পৃথিবীতে আসে তার পুত্র সন্তান। অবশ্য এমন সময়েও ছুটি কাটানোর ফুরসত নেই মুশফিকের। একদিন পরই যে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্টে নামতে হবে। ছেলের জন্মের পরদিনই তাই মুশফিক মিরপুরে এলেন অনুশীলনে। ভাগ করলেন আনন্দের খবর। টেস্ট দলের নেতৃত্ব হারানোর পরও এই প্রথম সংবাদ মাধ্যমের সামনে আসা তার।

সোমবার মুশফিক ও জান্নাতুল কেফায়াত মন্ডির সন্তান জন্ম নেয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেলের ছবি দিয়ে সবার দোয়া আগেই চেয়েছিলেন মুশফিক। এবার ক্রিকেট নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে স্বাভাবিক কারণে শুভেচ্ছা পেলেন সবার।

‘আলহামদুল্লিাহ। খুব ভালো লাগছে। বাবা হওয়ার অনুভূতিটা আসলে কথা বলে বোঝানো যাবে না। সবাই দোয়া করবেন সে যেন সুস্থ থাকেএবং আমার সহধর্মিণী সেও যেন সুস্থ থাকে।  সে যাতে মানুষের মতো মানুষ হয়, আমি দেশবাসীর কাছে সেই দোয়া চাই।’

‘ছেলের নাম নিয়ে একটু দ্বিধায় আছি। সাত দিনের মধ্যে আকিকা হবে। তখন নাম রাখা ’

তাকে সরিয়ে সাকিব আল হাসানকে টেস্ট অধিনায়ক করার সময় থাইল্যান্ডে ছিলেন মুশফিক। তাই জানা যায়নি প্রতিক্রিয়া। প্রায় চার বছর পর দলে কেবল একজন সাধারণ ক্রিকেটার হিসেবে ফেরার পর জানালেন, ‘অধিনায়ক হলে দলে অটোমেটিক চয়েজে থাকা যায়। সেখানে বিশেষজ্ঞ ব্যাটসম্যান হিসেবে খেললে অবশ্যই পারফরম্যান্স করতে হবে। গত টেস্টে আমি চেষ্টা করেছি আমার দলকে সেরাটা দিতে। দ্বিতীয় ইনিংসে আনলাকি বলব। সামনের ম্যাচে চেষ্টা করব আরও বেশি রান করার।’

আগে টেস্ট দলের অধিনায়ক, উইকেটরক্ষক আবার দলের গুরুত্বপূর্ণ ব্যাটসম্যান। একসঙ্গে অনেক দায়িত্বের ভার ছিল মুশফিকের। এবার কাঁধের বোঝা হালকা হয়েছে। নতুনত্ব উপভোগ করছেন মুশফিক,

‘আগে দায়িত্ব ছিল কয়েকটা এখন একটা। অধিনায়ক থেকে কিপিং করেও অনেক সময় রান পেয়েছি, আবার অনেক সময় শূন্য রানে আউট হয়েছি। আবার একটি দায়িত্বে থেকেও তেমন কিছু করতে পারিনি। যখন যে পরিস্থিতি আসবে, তার মুখোমুখি হয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। আমি সেটাই এখন চেষ্টা করছি। আমার ভালোই লাগছে। আমি খুব উপভোগ করছি।’

Comments

The Daily Star  | English

Dhaka getting hotter

Dhaka is now one of the fastest-warming cities in the world, as it has seen a staggering 97 percent rise in the number of days with temperature above 35 degrees Celsius over the last three decades.

7h ago