‘নেইমার নয় ব্রাজিলের সেরা খেলোয়াড় কৌতিনহো’

বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দামি তারকা নেইমার। ২২২ মিলিয়ন ইউরোতে কেনা পিএসজি তারকাকে সেরা খেলোয়াড়ের তকমা দিয়েই রাশিয়ায় পা দিয়েছে ব্রাজিল। পেলে-রোনাল্ডোর পর তিনিই দেশটির সর্বোচ্চ গোলদাতা। কিন্তু নেইমারের চেয়ে বার্সেলোনা তারকা ফিলিপ কৌতিনহোকে বেশি ভয়ংকর বলছেন মেক্সিকোর কোচ হুয়ান কার্লোস ওসোরিও।

বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে দামি তারকা নেইমার। ২২২ মিলিয়ন ইউরোতে কেনা পিএসজি তারকাকে সেরা খেলোয়াড়ের তকমা দিয়েই রাশিয়ায় পা দিয়েছে ব্রাজিল। পেলে-রোনাল্ডোর পর তিনিই দেশটির সর্বোচ্চ গোলদাতা। কিন্তু নেইমারের চেয়ে বার্সেলোনা তারকা ফিলিপ কৌতিনহোকে বেশি ভয়ংকর বলছেন মেক্সিকোর কোচ হুয়ান কার্লোস ওসোরিও।

মূলত চলতি বিশ্বকাপের ফর্মের কারণেই এ কথা বলেছেন ওসোরিও। এখন পর্যন্ত দুটি গোল করেছেন কৌতিনহো। করিয়েছেন একটি। সবচেয়ে বড় কথা ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ এনে দেওয়ায় বড় ভূমিকা রেখেছেন ২৬ বছর বয়সী এ খেলোয়াড়। আর অন্যদিকে নেইমার প্রতিপক্ষকে ভুগিয়েছেন তুলনামূলক অনেক কম। তবে বিশ্বকাপের আগে লম্বা সময় ইনজুরির কারণে মাঠে ছিলেন না তিনি।

সব কিছুই জানেন ওসোরিও। দ্বিতীয় রাউন্ডে এই ব্রাজিলের বিপক্ষেই খেলবে তার দল মেক্সিকো। প্রতিপক্ষ নিয়ে ছক কষতে হচ্ছে তাকে। আর কৌতিনহোকেই বিপদজনক খেলোয়াড় মনে করেছেন ওসোরিও, ‘ড্রয়ের সময় তিতে সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। সে আমাকে জিজ্ঞাসা করেছে কাকে আমি ব্রাজিলের সেরা খেলোয়াড় মনে করি। এবং আমি তাকে বলেছিলাম অন্য সবার চেয়ে কৌতিনহো এগিয়ে আছে।’

শুধু কৌতিনহো নয়, পুরো ব্রাজিল দলকেই বিপদজনক মানছেন ওসোরিও। তবে গ্রুপ পর্বের ম্যাচের ফলাফলে কৌতিনহোকে নিয়ে আলাদা করে ভাবতে হচ্ছেই তাকে, ‘ব্রাজিলের আক্রমণভাগ নিয়ে কেউ সন্দেহ করবে না। উইলিয়ান, ডগলাস কস্তা, নেইমার... কিন্তু আমার মনে হয় কৌতিনহোই ম্যাচের পার্থক্য গড়ে দিচ্ছে। সে এমন একজন খেলোয়াড় যে মিডফিল্ডেও খেলতে পারে আবার ফরোয়ার্ড হিসেবেও পারে। ’

আর এ কারণেই দলের খেলোয়াড়দের সাবধান করে দিয়েছেন মেক্সিকান কোচ। কোয়ার্টার ফাইনালের স্বপ্ন দেখতে হলে কৌতিনহোকে আটকানোর বিকল্প দেখছেন না তিনি, ‘ম্যাচে আমাদের তার দিকেও নজর রাখতে হবে। ব্রাজিলের খেলায় সেই গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। ’

Comments

The Daily Star  | English

Three lakh stranded as flash flood hits 4 upazilas of Sylhet

Around three lakh people in four upazilas of Sylhet remain stranded by a flash flood triggered by heavy rain in the bordering areas and India's Meghalaya

18m ago