জিগাতলায় শিক্ষার্থীদের ওপর কাঁদানে গ্যাস

ধানমন্ডির জিগাতলায় অবস্থান নেওয়া কয়েক হাজার শিক্ষার্থীকে ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়েছে পুলিশ।
নিরাপদ সড়কের দাবি
শাহবাগ থেকে সায়েন্স ল্যাবের দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বুয়েট ও মেডিকেল কলেজের কয়েক হাজার শিক্ষার্থীর মিছিল। ছবি: রাফি হোসেন

-বিক্ষোভে যোগ দিয়েছে ঢাবি ও বুয়েটের শিক্ষার্থীরা

-জিগাতলা থেকে ছাত্রদের ছত্রভঙ্গ করেছে পুলিশ

-সায়েন্স ল্যাব এলাকায় শিক্ষার্থীদের ছাত্রলীগের ধাওয়া

 

ধানমন্ডির জিগাতলায় অবস্থান নেওয়া কয়েক হাজার শিক্ষার্থীকে ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়েছে পুলিশ।

নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে গতকাল শনিবার দুপুর থেকে পাঁচ ঘণ্টা ধরে পুলিশ ও ক্ষমতাসীন দলের লোকদের সংঘর্ষের পর আজও এই এলাকায় মিছিল নিয়ে অবস্থান নেওয়ার চেষ্টা করে শিক্ষার্থীরা।

প্রতিবাদের অংশ হিসেবে আজ দুপুরে সায়েন্স ল্যাব মোড়ে অবস্থান নেয় শিক্ষার্থীরা। গত কয়েক দিনের মতো সেখানে তারা যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণ করেছে। এর ঘণ্টা খানেক পরই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বুয়েট ও মেডিকেল কলেজের ছাত্ররা তাদের সঙ্গে যোগ দেন।

একত্রিতভাবে তারা মিছিল করে ধানমন্ডির জিগাতলার দিকে অগ্রসর হন। সীমান্ত স্কয়ারের দিকে পৌঁছতেই পুলিশ তাদের লক্ষ্য করে কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়তে শুরু করে। এসময় প্রায় ২০-২৫টি কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়েছে পুলিশ। সেখান থেকে শিক্ষার্থীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে সায়েন্স ল্যাবের দিকে জড়ো হলে ধানমন্ডি-১ এলাকা থেকে ঢাকা কলেজের ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা ইটপাটকেল নিয়ে সেখানে ধাওয়া করে। তারা হেলমেট পরা ছিলেন। হাতে ছিল লাঠি। সেখানেও ছাত্রদের লক্ষ্য করে অন্তত আটটি কাঁদানে গ্যাসের শেল ছুড়েছে পুলিশ। দুপুর পৌনে ২টার দিকে ওই এলাকা দিয়ে কোনো যানবাহন চলাচল করছিল না।

ঘটনাস্থল থেকে আমাদের স্টাফ করেসপন্ডেন্ট জানান, জিগাগতলা বাস স্ট্যান্ড এলাকায় বিশাল সংখ্যায় পুলিশের উপস্থিতি দেখা গেছে। দুপুর সোয়া ১টার দিকে ছাত্ররা ছত্রভঙ্গ হয়ে যাওয়ার পর সেখানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

বনানী: সাউথ ইস্ট, প্রাইম এশিয়া ও নর্দার্ন ইউনিভার্সিটিসহ বেশ কয়েকটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বনানীতে বিক্ষোভ করেছে। ব্যবস্ততম ওই এলাকায় যান চলাচল বন্ধ করে দেয় তারা।

Read More: 5 photojournalists hurt in ‘BCL attack’ at Science Lab

Comments

The Daily Star  | English

Dhaka stares down the barrel of water

Once widely abundant, the freshwater for Dhaka dwellers continues to deplete at a dramatic rate and may disappear far below the ground.

7h ago