সৌম্য প্রসঙ্গে হাবিবুল বললেন, 'আমরা অনেককে নিয়ে ভাবছি'

টি-টোয়েন্টি সংস্করণে ওপেনিং জুটি বাংলাদেশের জন্য বড় মাথাব্যথার কারণ। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অনুষ্ঠেয় আগামী বিশ্বকাপে ওপেনার কারা হবেন তা নিয়ে ক্রিকেট অঙ্গনে চলছে বিস্তর আলোচনা।
ছবি: ফিরোজ আহমেদ

টি-টোয়েন্টি সংস্করণে ওপেনিং জুটি বাংলাদেশের জন্য বড় মাথাব্যথার কারণ। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অনুষ্ঠেয় আগামী বিশ্বকাপে ওপেনার কারা হবেন তা নিয়ে ক্রিকেট অঙ্গনে চলছে বিস্তর আলোচনা। জল্পনা-কল্পনায় রয়েছে গত বছর থেকে দলের বাইরে থাকা সৌম্য সরকারের নামও। তবে এই বাঁহাতিকে ফেরানোর বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু বলেননি জাতীয় দলের নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন। তিনি জানিয়েছেন, বেশ কয়েকজন আছেন তাদের ভাবনায়।

চলতি বছর এখন পর্যন্ত দশটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। সেখানে মোট সাত জন ওপেনারকে ব্যবহার করা হয়েছে। তারা হলেন লিটন দাস, নাইম শেখ, এনামুল হক বিজয়, মুনিম শাহরিয়ার, পারভেজ হোসেন ইমন, মেহেদী হাসান মিরাজ ও সাব্বির রহমান। কিন্তু মাত্র দুটি ওপেনিং জুটি ছুঁতে পেরেছে বিশের ঘর। সাম্প্রতিক ফর্ম বিবেচনায় পুরো ফিট হওয়ার পথে থাকা লিটনের জায়গা পাকা। তবে তার জুতসই সঙ্গীর দেখা মিলছে না। লিটন অবশ্য এশিয়া কাপে খেলতে পারেননি। চোটের কারণে আগেই ছিটকে যেতে হয় তাকে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাটিতে টি-টোয়েন্টি সংস্করণের এশিয়া কাপে নিজেদের সবশেষ ম্যাচে অনিয়মিত ক্রিকেটারদের দিয়ে ওপেন করানো হয়। যদিও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মিরাজ ও সাব্বিরের জুটি বড় হয়নি। তবে তাদের ব্যাটিংয়ের ঢঙ হয় প্রশংসিত। বিশেষ করে, মিরাজের নৈপুণ্যে পাওয়ার প্লে কাজে লাগাতে পেরেছিল টাইগাররা। 

আগামী কয়েক দিনের মধ্যে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দল ঘোষণা করবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। সেখানে ওপেনার হিসেবে ২৯ বছর বয়সী সৌম্যের ডাক পাওয়ার গুঞ্জন চড়া। তবে তার সুযোগ পাওয়াটাও হবে ডানহাতি সাব্বিরের মতো। বাদ পড়ার পর ঘরোয়া পর্যায়ে উল্লেখযোগ্য কিছু করে দেখাতে পারেননি দুজনের কেউই। বরং বাকি ওপেনারদের ব্যর্থতাই হবে সৌম্যের ফেরার কারণ। এছাড়া, আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ৬৬ ম্যাচে তার ১২২.১৫ স্ট্রাইক রেটও রাখতে পারে ভূমিকা।

শনিবার মিরপুরে বিসিবি কার্যালয়ে গণমাধ্যমের কাছে হাবিবুল জানান, নিয়মিত নাকি অনিয়মিত ওপেনার দেখা যাবে অস্ট্রেলিয়ায়, তা এখনও ঠিক হয়নি, 'এশিয়া কাপের শেষ ম্যাচে আমরা একটা ভিন্ন কম্বিনেশনে গিয়েছিলাম। এখান যেহেতু বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে খেলা, সেখানে আমরা কাউকে মেকশিফট (অস্থায়ী) ওপেনার করব কিনা, নাকি নিয়মিত ওপেনার... এটা নিয়ে এখনো আলোচনার বাকি আছে। হাতে কিছু সময় আছে। এই কদিনে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলতে পারব।'

সৌম্যের ডাক পাওয়ার সম্ভাবনা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে ভেবেচিন্তে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা বলেন তিনি, 'আমরা অনেককে নিয়ে ভাবছি, শুধু একজন নিয়ে ভাবছি না। শর্ট লিস্টে (সংক্ষিপ্ত তালিকায়) বেশ কিছু ওপেনার আছেন, তারা আগে ওপেন করেছেন, এখনও করছেন। যেহেতু আমাদের খুব গুরুত্বপূর্ণ একটা টুর্নামেন্ট, আমরা সিদ্ধান্তটা একটু ভেবেচিন্তেই নিতে চাই। কারণ, ওই একটা পজিশনে আমরা কাউকে সেটেলড (স্থায়ী) করতে পারছি না টি-টোয়েন্টি সংস্করণে।'

বাংলাদেশের সাবেক এই অধিনায়ক অবশ্য খুব বেশি পরিবর্তনের পক্ষপাতী নন, 'আমরা বেশি পরিবর্তন করতে চাইও না। কারণ, বিশ্বকাপে সাফল্য অনেকখানি ওপেনারদের সাফল্যের ওপর নির্ভর করছে। তাই সিদ্ধান্তটা বেশ ভেবেচিন্তে নিতে চাই। কারণ, এই জায়গায় মনে হয় আমাদের কাজ করার আছে।'

Comments

The Daily Star  | English
At least 50 students injured as BCL activists swoop on protesters

At least 50 students injured as BCL activists swoop on protesters

At least 50 students were injured when activists of the Bangladesh Chhatra League BCL carried out an attack on quota reform protesters at Dhaka University's VC Chattar this afternoon

26m ago