থামল ঝুলনের ২০ বছরের ক্যারিয়ার

মেয়েদের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি ঝুলন।
Jhulan Goswami & Harmanpreet Kaur
বিদায়ী মঞ্চে ঝুলনকে জড়িয়ে আবেগতাড়িত হয়ে যান হারমানপ্রিত কাউর।

বাংলাদেশের সীমান্ত ঘেঁষা পশ্চিমবঙ্গে নদিয়া জেলা থেকে উঠে ভারতের ক্রিকেটের বড় নাম হয়ে উঠেছিলেন ঝুলন গোস্বামী। ২০০২ সালে অভিষেকের পর এই পেসার খেলেছেন টানা ২০ বছর। অবশেষে লর্ডসে শনিবার বিদায়ী ম্যাচ খেলেছেন ভারতের এই ক্রিকেটার।

শনিবার লর্ডসে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে ইংল্যান্ড নারী দলকে ১৬ রানে হারায় ভারতের নারী দল। এই ম্যাচ দিয়েই আবেগঘন বিদায় নেন ঝুলন।

সতীর্থদের ভালোবাসা, প্রতিপক্ষের শ্রদ্ধা অর্জন করে ক্রিকেট ক্যারিয়ার থামান ৩৯ পেরুনো এই বাঙালি ক্রিকেটার।

ঝুলনের বিদায়ী মঞ্চে বেশ আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন ভারতের নারী ক্রিকেটাররা। অধিনায়ক হারমানপ্রিত কাউর দেন প্রতিক্রিয়া, 'আমার অভিষেকের সময় ঝুলনকে পেয়েছি। এখন তার ক্যারিয়ারের শেষ ম্যাচে আমি অধিনায়ক। এটা আমার জন্য সৌভাগ্যের।'

সহ-অধিনায়ক স্মৃতি মান্ধানা ভারতে নারী ক্রিকেটের অগ্রদূত ছিলেন ঝুলন, 'আর ঝুলনদিকে খেলতে দেখব না ভেবেই খারাপ লাগছে। নারী ক্রিকেটের উত্থানের তার নেপথ্যে অবদান অনস্বীকার্য। তার অভাব থাকবে।'

মেয়েদের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি ঝুলন। তিন সংস্করণ মিলিয়ে ডানহাতি এই পেসার নিয়েছেন ৩৫৫ উইকেট। টেস্টে ৪৪ আর টি-টোয়েন্টিতে আছে তার ৫৬ উইকেট। তবে ওয়ানডেতেই উইকেট নেওয়ায় নিজেকে তুলেছেন শিখরে। ২০৪ ওয়ানডেতে ২৫৫ উইকেট তার। ২০০ উইকেটও নেই আর কারো। ১৯১ উইকেট নিয়ে তার পরে আছেন দক্ষিণ আফ্রিকার শাবনিম ইসমাইল।

ঝুলনের বিদায়ী ম্যাচে আগে ব্যাট করে ১৬৯ রান করে ভারত। জবাবে ইংল্যান্ড গুটিয়ে যায় ১৫৩ রানে। তাতে ১০ ওভার বল করে ৩০ রান দিয়ে ২ উইকেট ঝুলনের।

Comments

The Daily Star  | English

Cyclone Remal may make landfall anytime between evening and midnight

Rain with gusty winds hit coastal areas as a peripheral effect of the severe cyclone

4h ago