ক্রিকেট

ভারত বিশ্বকাপের প্রস্তুতি দেশেই নিবেন টাইগাররা

ভারতের সঙ্গে কন্ডিশনে সাদৃশ্য থাকায় এবার দেশেই হবে টাইগারদের প্রস্তুতি ক্যাম্প।

ওয়ানডে কিংবা টি-টোয়েন্টি, কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে সাম্প্রতিক সময়ে বিশ্বকাপের আগে আয়োজক দেশেই ক্যাম্প করেছিল বাংলাদেশ। ফলে কিছুটা হলেও এর সুবিধা পেয়েছিল টাইগাররা। তবে এবার ভারত বিশ্বকাপে এমন কোনো পরিকল্পনা নেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি)। দুই দেশের কন্ডিশনে সাদৃশ্য থাকায় এবার দেশেই হবে টাইগারদের ক্যাম্প।

মঙ্গলবার (২৭ জুন) বিশ্বকাপ প্রস্তুতি নিয়ে গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেন বিসিবির অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস। এবার ক্যাম্প ভারতে হবে কি-না জানতে চাইলে বলেন, 'না! এবার আমরা বাইরে কোনো ক্যাম্প করছি না। ভারতের কন্ডিশনের সঙ্গে সাদৃশ্য আছে। সেজন্য আমাদের কোথাও না গেলেও চলবে।'

আর ঠিক ১০০ দিন পরেই পর্দা উঠতে যাচ্ছে ভারত বিশ্বকাপের। কিছুটা দেরি হলেও অবশেষে এই আসরের সূচি প্রকাশ করেছে আইসিসি। ৭ অক্টোবর আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে টাইগারদের বিশ্বকাপ মিশন। এরপর ১০ অক্টোবর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে খেলবে তারা। এ দুটি ম্যাচই হবে ধর্মশালায়। যেখানকার কন্ডিশনের সঙ্গে কিছুটা পার্থক্য রয়েছে বাংলাদেশের।

তবে সেই পার্থক্য খুব বেশি সমস্যা হবে না বলেই মনে করেন জালাল, 'একটা জায়গা ছাড়া কম-বেশি সবগুলোই ট্রপিক্যাল থাকবে। ধর্মশালায় একটু ঠাণ্ডা থাকবে। গড়ে হয়তো ২০ থেকে ২৫ ডিগ্রি থাকবে। এটা খুব একটা সমস্যা হবে না। এর চেয়েও ঠাণ্ডায় খেলে এসেছি আমরা। এটা ছাড়া বাকি যেসব ভেন্যুতে খেলা হবে, কম-বেশি একই। ওরাও ট্রপিক্যাল দেশ। আমরা সেরকম কন্ডিশনেই এখানে অনুশীলন করব। সেজন্য বাইরে গিয়ে অনুশীলন করার তেমন দরকার পড়বে না।'

বিশ্বকাপের আগে নিয়মিত খেলার মধ্যে থাকায় প্রস্তুতি কোনো ঘাটতি হবে না বলেও মনে করে অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান, 'আমাদের প্রস্তুতি ভালো আছে। আপনারা জানেন, আমরা আফগানিস্তান সিরিজের মাঝে আছি। এরপর এশিয়া কাপ আছে। এশিয়া কাপের পর যখন আমরা বিশ্বকাপ খেলতে যাব, তার আগে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তিনটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ খেলব। প্রস্তুতির দিক থেকে আমরা খুব খুশি, সন্তুষ্ট।'

আর মাঝের সময়টায় ঘরের মাঠে ক্যাম্প করবে টাইগাররা। সন্তোষজনক প্রস্তুতি থাকায় বিশ্বকাপে ভালো কিছুর প্রত্যাশা করছেন জালাল, 'মাঝে আগস্টে স্কিল ট্রেনিং হবে, অনুশীলন হবে- সবমিলিয়ে আমরা প্রস্তুত। ভালোভাবে প্রস্তুতি নিয়েই আমরা যাব। যেহেতু প্রস্তুতিতে কোনো ঘাটতি নেই। ভালো প্রস্তুতি নিয়েই যাব। তাই আমি মনে করি, আমরা ভালো করতে পারব।'

'কন্ডিশন অনুযায়ী যেখানে খেলব এবার, সেখানে আমাদের সঙ্গে সাদৃশ্য আছে। তারপর আমাদের অনুশীলনও ভালো হচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে, আপনার হাতে অনেক বাড়তি ক্রিকেটারও আছে, প্রতিযোগিতা আছে। একজনের জায়গা নেওয়ার জন্য আরও ক্রিকেটার আছে। সব কিছু মিলিয়ে কিন্তু কোনো ঘাটতি থাকছে না। সেজন্য আশা করছি, আমরা ভালো খেলতে পারি,' বলেন জালাল ইউনুস। 

Comments

The Daily Star  | English

Dos and Don’ts during a heatwave

As people are struggling, the Met office issued a heatwave warning for the country for the next five days

5h ago