ক্রিকেট

বৃহস্পতিবার মাহমুদউল্লাহদের ফিটনেস পরীক্ষা

প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানিয়েছেন, ফিটনেস ক্যাম্পের জন্য ৩২ জন ক্রিকেটারের নাম চূড়ান্ত করেছেন তারা। এদের মধ্যে কয়েকজন বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগ খেলতে আছেন দেশের বাইরে। বাকিদের নিয়ে হওয়া ক্যাম্পে খেলোয়াড়দের শারীরিক অবস্থা খতিয়ে দেখা হবে।
Mahmudullah
অনুশীলনে মাহমদুউল্লাহ। তার সামনে কঠিন চ্যালেঞ্জ। ছবি: ফিরোজ আহমেদ

সোমবার থেকে শুরু হওয়া ফিটনেস ক্যাম্পে যাচাই করা হবে ক্রিকেটারদের অবস্থা। কার ফিটনেসের কী অবস্থা তা বুঝতে বৃহস্পতিবার 'ইয়ো-ইয়ো' পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছে বিসিবি। তারও দুদিন পর ২১-২২ জনের স্কোয়াড নিয়ে শুরু হবে এশিয়া কাপের প্রস্তুতি।

প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানিয়েছেন, ফিটনেস ক্যাম্পের জন্য ৩২ জন ক্রিকেটারের নাম চূড়ান্ত করেছেন তারা। এদের মধ্যে কয়েকজন বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগ খেলতে আছেন দেশের বাইরে। বাকিদের নিয়ে হওয়া ক্যাম্পে খেলোয়াড়দের শারীরিক অবস্থা খতিয়ে দেখা হবে।

রোববার মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আলোচনায় বসেন তিন নির্বাচক। মূলত এশিয়া কাপের দল ও প্রস্তুতি নিয়েই হয়েছে আলাপ।

পরে গণমাধ্যমে মিনহাজুল জানান, খেলোয়াড়দের ফিটনেস যাচাই করার প্রক্রিয়া শুরু করেছেন তারা,  'আমাদের ফিটনেস ক্যাম্প শুরু হচ্ছে। ৩ তারিখে ইয়ো ইয়ো টেস্ট আছে। আমরা দেখতে চাচ্ছি খেলোয়াড়দের ফিটনেস লেভেলটা কোন পর্যায়ে আছে। এটা মূলত একটা মান দেখার জন্য।'

ফিটনেস ক্যাম্প থেকে একটা ধারণা নেওয়ার পর তৈরি করা হবে একটা প্রাথমিক দল। এশিয়া কাপের প্রস্তুতি শুরু হবে তাদের নিয়েই,  'আমরা ৩২ জন খেলোয়াড় তৈরি করেছি। ওরা ইয়ো-ইয়ো টেস্ট করে যাবে। তারপর স্কিল শুরু হবে ৮ তারিখে। এর আগে ৫-৬ তারিখে ২১ বা ২২ জনের একটা দল দেব। ওরাই স্কিল করবে এশিয়া কাপের জন্য।'

ফিটনেস ক্যাম্পে কেউ খারাপ করলেই দলে বিবেচিত হবেন না, এমনটা নয়। ফিটনেস পরীক্ষায় একটা মান দেখা হবে। তারপর স্কিল, দলের কৌশল ও নির্দিষ্ট খেলোয়াড়ের কার্যকারিতার ভিত্তিতে স্কোয়াড বানাবেন নির্বাচকরা।  প্রধান নির্বাচক জানান, স্কোয়াড তৈরিতে বরাবরের মতই ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান, দলের প্রধান কোচ ও অধিনায়কের মতামতের গুরুত্ব থাকবে।

Comments

The Daily Star  | English
Bank mergers in Bangladesh

Bank mergers: All dimensions must be considered

In general, five issues need to be borne in mind when it comes to bank mergers in Bangladesh.

8h ago