আফগান বোলারদের কৃতিত্বে 'ব্যাটার' নাসিম, রউফের স্ত্রী ভাগ্য

আফগানিস্তানের বিপক্ষে আবারও দারুণ ব্যাটিং করেছেন নাসিম শাহ। মজার ছলে এমন ব্যাটিংয়ের কৃতিত্ব আফগান বোলারদের দিলেন তিনি। অন্যদিকে স্ত্রী ভাগ্যে বল হাতে জ্বলে উঠেছেন বল জানান হারিস রউফ।

ব্যাট হাতে আফগানিস্তানের বিপক্ষে বরাবরই জ্বলে ওঠেন নাসিম শাহ। অথচ একজন বোলার হিসেবেই পরিচিত তিনি। আগের দিনও দলের সম্মানজনক পুঁজি গড়তে দারুণ অবদান ছিল তার। মজার ছলে তাই এমন ব্যাটিংয়ের কৃতিত্ব আফগান বোলারদেরই দিলেন নাসিম। অন্যদিকে স্ত্রী ভাগ্যে বল হাতে জ্বলে উঠেছেন বল জানান হারিস রউফ।

আফগানিস্তানকে হারানোর পর দলের তিন পেসার শাহিন শাহ, হারিস রউফ ও নাসিম শাহকে নিয়ে মোহাম্মদ হারিসের সঞ্চালনায় একটি টক শোর আয়োজন করে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। সামাজিকমাধ্যমে তুলে ধরা এই টক শোতেই মজার ছলে অনেক কথাই বলেন ক্রিকেটাররা।

মঙ্গলবার শ্রীলঙ্কার হাম্বানটোটায় সিরিজের প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে আফগানিস্তানকে ১৪২ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়েছে পাকিস্তান। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৪৭.১ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ২০১ রান করে তারা। জবাবে ১৯.২ ওভারে মাত্র ৫৯ রানেই গুটিয়ে যায় আফগানরা।

এদিন বল হাতে আগুন ঝরিয়েছেন পাকিস্তানি পেসাররা। বিশেষকরে হারিস রউফ। বিয়ের পর প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে নামা এই পেসার নিজের প্রথম বলেই তুলে নেন উইকেট। শেষ পর্যন্ত একে একে পেয়েছেন পাঁচটি উইকেট। ফলা লড়াইটুকুও করতে পারেননি আফগানরা।

ম্যাচ শেষে সেই টক শোতে রউফ এমন আগুন বোলিংয়ের জন্য তার স্ত্রীর কৃতিত্ব রয়েছে কি-না জানতে চান সঞ্চালক মোহাম্মদ হারিস। তার জবাবে এই পেসার বলেন, 'বিয়ের পর জীবনে অনেক কিছুরই পরিবর্তন আসে। আলহামদুলিল্লাহ আমার স্ত্রী আমার জন্য সৌভাগ্য বয়ে এনেছে।' 

রউফের এই কথার পর নাসিমকে প্রশ্ন করে মোহাম্মদ হারিস বলেন, 'নাসিম, তোমার বোলিং তো খুব ভালো হচ্ছে। এই কৃতিত্ব কার?' তখন হাসতে হাসতেই নাসিম বলেন, 'কৃতিত্ব কাউকে দিতে হলে ওদের (আফগানিস্তান) বোলারদের দিতে হবে।'

পরে যোগ করে আরও বলেন, 'হ্যাঁ, দলের প্রয়োজন ছিল। আর আমি চেষ্টা করেছি। সবাই ব্যাটিং অনুশীলন করে কারণ যদি কখনো প্রয়োজন হয় যেন ব্যাটিং করতে পারি। তাতে দলের ভালো হয়। আমাদের রান অনেক কম ছিল। যেই ২০ রান করেছি তাতে আমরা দুইশ পার করতে পেরেছি। জয় পেয়েছি।'

উল্লেখ্য, গত এশিয়া কাপে ফজলহক ফারুকিকে টানা দুই বলে ছক্কা হাঁকিয়ে পাকিস্তানকে ফাইনালে তুলেছিলেন নাসিম।  অথচ শেষ ওভারে দলের শেষ জুটি হিসেবে হাসনাইনকে নিয়ে ব্যাট করছিলেন তিনি। তখন জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল ১১ রান।

Comments

The Daily Star  | English

Coastal villagers shifted to LPG from Sundarbans firewood

'The gas cylinder has made my life easy. The smoke and the tension of collecting firewood have gone away'

51m ago