ক্রিকেট

চ্যালেঞ্জ নয়, নেতৃত্ব পাওয়া শান্তর কাছে গর্ব আর আনন্দের

বয়সভিত্তিক পর্যায় থেকেই নাজমুল হোসেন শান্তর মাঝে খুঁজে পাওয়া গিয়েছিল নেতৃত্বগুণ। পরে ঘরোয়া ক্রিকেটে নেতৃত্বের সামর্থ্য তিনি দেখিয়েছেন একাধিকবার। এবার এই ব্যাটার বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেবেন।
Najmul Hossain Shanto
ফুরফুরে মেজাজে নাজমুল হোসেন শান্ত। ছবি: ফিরোজ আহমেদ

বয়সভিত্তিক পর্যায় থেকেই নাজমুল হোসেন শান্তর মাঝে খুঁজে পাওয়া গিয়েছিল নেতৃত্বগুণ। পরে ঘরোয়া ক্রিকেটে নেতৃত্বের সামর্থ্য তিনি দেখিয়েছেন একাধিকবার। এবার এই ব্যাটার বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেবেন। সিরিজে পিছিয়ে থাকা অবস্থায় এমন দায়িত্ব পেলেও সেটা তার কাছে প্রবল আনন্দের। যাতে মিশে আছে দেশকে নেতৃত্ব দেওয়ার গর্ব।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম দুই ওয়ানডেতে বিশ্রামে ছিলেন এশিয়া কাপে চোটে পড়া শান্ত। এই সিরিজে নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসান না খেলায় প্রথম দুই ম্যাচে অধিনায়কত্ব করেন তার ডেপুটি লিটন দাস।

লিটনও বিশ্রাম পেয়েছেন শেষ ম্যাচে। সাকিব-লিটন কেউ না থাকায় স্বাভাবিকভাবেই শান্তকেই বেছে নেয় টিম ম্যানেজমেন্ট। বাংলাদেশের ১৬তম ওয়ানডে  অধিনায়ক হিসেবে মঙ্গলবার টস করতে নামবেন এই ব্যাটার। 

সোমবার সংবাদ সম্মেলনে এসে জানালেন এমন দায়িত্বের সামনে রোমাঞ্চে বুঁদ তিনি,  'আমার মনে হয় যে ক্রিকেট খেলোয়াড় হিসেবে আমার জন্য অনেক গর্বের ব্যাপার। আমার পরিবারের সদস্যের জন্যও অনেক গর্বের ব্যাপার। কাজেই আলহামদুল্লিলাহ, ক্রিকেট বোর্ড এই সুযোগটা তৈরি করে দিয়েছেন খুবই রোমাঞ্চিত এবং উপভোগ  করব ইনশাল্লাহ কালকে।'

শান্তর আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারও শুরু হয়েছিল কিছুটা আচমকা। ২০১৭ সালে নিউজিল্যান্ডে সফরে অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে ছিলেন। কয়েকজনের চোটে হয়ে যায় টেস্ট অভিষেক। এবার নেতৃত্বের অভিষেকেও মিশে থাকছে এমন পরিস্থিতি।

কেবল ঠেকার কাজ নয়, আগামীতে স্থায়ী নেতৃত্ব পাওয়ারও স্বপ্ন দেখেন এই ক্রিকেটার,  'ভ্রমনের কথা যেটা বলি, শুরু থেকে খুবই ভালো যাচ্ছে। এখনও অনেক দূর যাওয়া বাকি। উপভোগ করেছি। প্রত্যেকটা সময় উপভোগ করেছি। ভালো সময় বলেন বা খারাপ সময় বলেন। প্রত্যেকটা সময় উপভোগ করার চেষ্টা করেছি। এবং ভবিষ্যতে যদি ওই সুযোগ আসে দলের হয়ে, দেশের হয়ে নেতৃত্ব দেওয়ার অবশ্যই ওইটা করার চেষ্টা করব। এবং এটা আসলে আমার মনে হয় প্রত্যেকটা ক্রিকেটারেরই স্বপ্ন যে দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করবে। এটা আমার এখন পর্যন্ত আসছে। ভবিষ্যতে যদি আবার অপরচুনিটি আসে, আবার ভালোভাবে করার চেষ্টা করব।' 

নিউজিল্যান্ড সিরিজে প্রথম ম্যাচ বৃষ্টিতে ভেস্তে যাওয়ার পর দ্বিতীয় ম্যাচ হেরে পিছিয়ে আছে বাংলাদেশ। শেষ ম্যাচ তাই সিরিজ হার এড়ানোর মিশনও। বিশ্বকাপের আগে প্রস্তুতির চিন্তা বেশি থাকলেও সিরিজ বাঁচানোর হিসাবটাও রাখতে হচ্ছে মাথায়। এই পরিস্থিতিতে অবশ্য কোন চ্যালেঞ্জ দেখছেন না শান্ত, 'চ্যালেঞ্জ না আমার কাছে মনে হয় আনন্দের। খুব ভালো লাগছে এমন সুযোগ এবং এমন অবস্থায় আমাদের দল আছে, সামনে বিশ্বকাপ। সব মিলিয়ে আমার কাছে মনে হয় যদি আমরা এই জায়গায় ভালোভাবে শেষ করতে পারি ম্যাচটা আমার ভবিষ্যতের জন্য ভালো হবে।'

Comments

The Daily Star  | English

Cyclones now last longer at sea, on land

Remal was part of a new trend of cyclones that take their time before making landfall, are slow-moving, and cause significant downpours, flooding coastal areas and cities. 

1h ago