সেই দশরথে এবার নেপালের কাছে হারল ছেলেদের দল

আট দিনের ব্যবধানে দেখা মিলল একেবারে উল্টো চিত্রের। একই ভেন্যুতে একই প্রতিপক্ষের কাছে ধরাশায়ী হলো পুরুষ ফুটবল দল।
ছবি: ফেসবুক

গত ১৯ সেপ্টেম্বর কাঠমুন্ডুর দশরথ রঙ্গশালা স্টেডিয়ামে ইতিহাস গড়ে বাংলাদেশ নারী ফুটবল দল। স্বাগতিক নেপালকে হারিয়ে তারা প্রথমবারের মতো জেতে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের শিরোপা। আট দিনের ব্যবধানে দেখা মিলল একেবারে উল্টো চিত্রের। একই ভেন্যুতে একই প্রতিপক্ষের কাছে ধরাশায়ী হলো পুরুষ ফুটবল দল।

মঙ্গলবার আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে নেপালের কাছে ৩-১ গোলে হেরেছে হাভিয়ের কাবরেরার শিষ্যরা। নারী সাফের ফাইনালেও স্কোরলাইন ছিল একই। তবে নারীরা সেদিন সাফল্যের চূড়ায় পৌঁছানোর উল্লাসে মাতোয়ারা করেছিলেন ৫৬ হাজার বর্গমাইলের অধিবাসীদের।

শুরুতে ভালো কিছুর আভাস দিয়ে পথ হারাতে দেরি হয়নি বাংলাদেশের। প্রথমার্ধেই তিন গোল হজম করে তারা। দ্বিতীয়ার্ধে ঘুরে দাঁড়ানোর আশা দেখালেও তা রূপ নেয়নি বাস্তবে। নেপালের হয়ে দুর্দান্ত হ্যাটট্রিক করেন অঞ্জন বিস্তা। সফরকারীদের হয়ে একমাত্র গোলটি আসে সাজ্জাদ হোসেনের পা থেকে।

লড়াইয়ের আগে কথার ফুলঝুরি ছুটিয়েছিলেন বাংলাদেশের ফুটবলাররা। অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার পাশাপাশি বাকিরা জানিয়েছিলেন নারীদের জয়ের পুনরাবৃত্তির প্রত্যাশা। কিন্তু নাজুক পারফরম্যান্সে মাঠে আলো ছড়াতে ব্যর্থ হন তারা।

ম্যাচের ১৬তম সুবর্ণ সুযোগ নষ্ট হয় লাল-সবুজ জার্সিধারীদের। জামালের ফ্রি-কিক বাধা পায় ক্রসবারে। দুই মিনিট পর লিড নেয় নেপাল। বিমল ঘারতি মাগারের ফ্রি-কিকে মাথা ছুঁইয়ে লক্ষ্যভেদ করেন অঞ্জন। ২৭তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ে। প্রতিপক্ষের প্রথম প্রচেষ্টা বাংলাদেশের গোলরক্ষক আনিসুর রহমান জিকো রুখে দিলেও অঞ্জনের ফিরতি শটে পরাস্ত হন। ৩৮তম মিনিটে হ্যাটট্রিক পূরণ হয় অঞ্জনের। আরেকটি হেডে জাল কাঁপান তিনি।

বিরতির পর ম্যাচের ৫৭তম মিনিটে ব্যবধান কমায় বাংলাদেশ। ডানপ্রান্ত থেকে রাকিব হোসেনের পাস ডি-বক্সের মধ্যে প্রতিপক্ষের এক ডিফেন্ডারের পায়ে লেগে উপরে উঠে যায়। দূরের পোস্টে থাকা স্ট্রাইকার সাজ্জাদ ডাইভিং হেডে নিশানা ভেদ করেন। এরপর বেশ কিছু আক্রমণ করলেও গোল পায়নি বাংলাদেশ। অন্যদিকে, নেপাল মনোযোগী ছিল ব্যবধান ধরে রাখায়।

Comments

The Daily Star  | English
Energy security crisis in Bangladesh

How can Bangladesh enhance its energy security?

Continuous gas exploration and exploitation of renewable energy should be the two pillars of energy security in the country.

16m ago