পুরনো বন্ধুদের দেখে ভালো লেগেছে রোনালদোর

সৌদি আরবের ফুটবলে যাত্রা শুরু হলো ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। রোমাঞ্চকর প্রীতি ম্যাচে রিয়াদ অল-স্টারের হয়ে আলো ছড়ালেন তিনি। প্রতিপক্ষ পিএসজির জার্সিতে ছিল পর্তুগিজ মহাতারকার খুব চেনা কিছু মুখ। সার্জিও রামোস, কেইলর নাভাস, লিওনেল মেসি, নেইমারদের দেখে ভালো লেগেছে তার।
ছবি: এএফপি

সৌদি আরবের ফুটবলে যাত্রা শুরু হলো ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। রোমাঞ্চকর প্রীতি ম্যাচে রিয়াদ অল-স্টারের হয়ে আলো ছড়ালেন তিনি। প্রতিপক্ষ পিএসজির জার্সিতে ছিল পর্তুগিজ মহাতারকার খুব চেনা কিছু মুখ। সার্জিও রামোস, কেইলর নাভাস, লিওনেল মেসি, নেইমারদের দেখে ভালো লেগেছে তার।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে কিং ফাহাদ আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে রিয়াদ সিজন কাপের ম্যাচে সৌদি আরবের প্রো লিগের ফুটবলারদের নিয়ে গড়া অল-স্টার একাদশ ৫-৪ ব্যবধানে হেরেছে পিএসজির কাছে। স্বাগতিকদের হয়ে জোড়া গোল করেন রোনালদো। তাদের বাকি গোলদাতারা হলেন হিউন সু-ইয়াং ও অ্যান্দারসন তালিস্কা। প্যারিসিয়ানদের পক্ষে একবার করে নিশানা ভেদ করেন মেসি, মার্কুইনহোস, রামোস, কিলিয়ান এমবাপে ও হুগো একিতিকে।

বিপুল অঙ্কের বেতন-ভাতায় গত বছরের শেষদিনে ইউরোপ ছেড়ে আড়াই বছরের চুক্তিতে আল নাসরে যোগ দেন রোনালদো। কিন্তু নতুন ক্লাবের জার্সিতে এখনও অভিষেক হয়নি পাঁচবারের ব্যালন ডি'অর জয়ী ফুটবলারের। ইংলিশ পরাশক্তি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে থাকাকালে এক দর্শকের ফোন ভাঙার ঘটনায় দুই ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা পেয়েছিলেন রোনালদো। সেকারণে আল নাসরের সবশেষ দুটি ম্যাচে খেলতে পারেননি তিনি। নিষেধাজ্ঞা শেষে প্রীতি ম্যাচের মাধ্যমে সৌদি ফুটবলে যাত্রা শুরু হয়েছে তার। আর প্রথম ম্যাচেই নিজের সামর্থ্যের ছাপ রাখেন ৩৭ বছর বয়সী ফরোয়ার্ড।

ছবি: এএফপি

গত মাসে কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে শেষবার মাঠে নেমেছিলেন রোনালদো। সেই ম্যাচে মরক্কোর কাছে ১-০ গোলে হেরে গিয়েছিল পর্তুগাল। দ্বিতীয়ার্ধে বদলি হিসেবে নেমে বিবর্ণ ছিলেন সিআর সেভেন। এরপর পিএসজির বিপক্ষে প্রীতি ম্যাচ দিয়ে মাঠে ফেরেন তিনি। অল-স্টারকে জেতাতে না পারলেও তার পারফরম্যান্স ছিল নজরকাড়া। ম্যাচের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে নিজের স্বীকৃত পেজে তিনি লিখেছেন, 'মাঠে ও স্কোরশিটে ফিরে খুব আনন্দ হচ্ছে। আর পুরনো কিছু বন্ধুদের দেখেও ভালো লেগেছে।'

স্প্যানিশ ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদে থাকাকালে রামোস ও নাভাসের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে খেলেছেন রোনালদো। লা লিগায় তাদের মূল প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল বার্সেলোনা। সেসময় কাতালানদের প্রতিনিধিত্ব করতেন মেসি আর নেইমার। সবাই এখন দল পাল্টে পিএসজির ডেরায় থিতু হয়েছেন। আর ফরাসি লিগ ওয়ানের শিরোপাধারীদের স্কোয়াডে আগে থেকেই আছেন হালের অন্যতম সেরা ফুটবলার এমবাপে।

ছবি: এএফপি

শেষবার মেসি ও রোনালদোর দেখা হয়েছিল ২০২০ সালের ডিসেম্বরে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গ্রুপ পর্বে। মেসির বার্সেলোনার বিপক্ষে ৩-০ গোলে জেতা ম্যাচে জুভেন্তাসের হয়ে জোড়া লক্ষ্যভেদ করেছিলেন রোনালদো। এবারও রোনালদো জোড়া গোল করলেন। তবে জয়ের হাসি হাসলেন ৩৫ বছর বয়সী মেসি।

Comments

The Daily Star  | English

Big Tobacco Push drives up per hectare production

Bangladesh’s tobacco production per hectare has grown by nearly 21 percent over the last five years, indicating a hard push by big tobacco companies for more profit from a product known to be a serious health and environmental concern.

3h ago