সাবিনার পর ভারতীয় লিগে সানজিদা, কোচের মতে ‘সেরা সুযোগ’

বেঙ্গালুরুর কিক স্টার্ট এফসিতে সাবিনা খাতুন খেলতে যাওয়ার দিনই উইঙ্গার সানজিদা আক্তার প্রস্তাব পান ঐতিহ্যবাহী ইস্ট বেঙ্গল ক্লাব থেকে। সব ঠিক থাকলে সানজিদাও যাচ্ছেন ভারতে।
Sabina Khatun & Sanjida Akther

সাফ জেতার পরই বাংলাদেশের নারী ফুটবলারদের নিয়ে আগ্রহ তৈরি হয় ভারতে। সেদেশের লিগে খেলার প্রস্তাব পান বাংলাদেশের একাধিক খেলোয়াড়। তবে বাফুফের অনাপত্তিপত্র না পাওয়ায় যেতে পারেননি। এবার ফাঁকা সময়ে মিলছে সুযোগ। বেঙ্গালুরুর কিক স্টার্ট এফসিতে সাবিনা খাতুন খেলতে যাওয়ার দিনই উইঙ্গার সানজিদা আক্তার প্রস্তাব পান ঐতিহ্যবাহী ইস্ট বেঙ্গল ক্লাব থেকে। সব ঠিক থাকলে সানজিদাও যাচ্ছেন ভারতে। নারী ফুটবল দলের কোচ সাইফুল বারী টিটুর মতে এটা সেরা এক সুযোগ।

বাফুফে সাধারণ সম্পাদক ইমরান হোসেন জানান, ২২ বছর বয়েসী সানজিদাকে তারা অনাপত্তিপত্র দিয়ে দিয়েছেন। ভিসা পেলেই সানজিদা উড়াল দেবেন ভারতে, 'আমরা এরমধ্যে তাকে এনওসি দিয়ে দিয়েছি। সানজিদা ভারতীয় ভিসা সেন্টারে আবেদন জমা দিয়েছে। আশা করছি দ্রুত ভিসা পেয়ে খেলতে যাবে।'

এদিকে সোমবারই বেঙ্গালুরুর ক্লাবে খেলতে দেশ ছেড়েছেন জাতীয় দলের অধিনায়ক সাবিনা খাতুন। এর আগে বিদেশি লিগ খেলার অভিজ্ঞতা আছে তার, বিদেশি লিগে খেলার অভিজ্ঞতা আছে কৃষ্ণা রানি সরকার, মাউতুসিমা সুমাইয়ারও।

এদিকে ইস্ট বেঙ্গলে খেলার প্রস্তাব আগেও পেয়েছিলেন বলে দ্য ডেইলি স্টারকে জানান সানজিদা, 'সিঙ্গাপুরের বিপক্ষে ফিফা প্রীতি ম্যাচের আগে ইস্ট বেঙ্গলে খেলার প্রস্তাব পাই। তখন তা ফিরিয়ে দিয়েছিলাম আন্তর্জাতিক খেলা থাকায়। তারা পরে বলেছে আমার জন্য অপেক্ষা করবে। এবার আবার প্রস্তাব দিলে রাজী হই।' চার ম্যাচে তিন পয়েন্ট নিয়ে সাত দলের মধ্যে ভারতের নারী লিগে পাঁচে আছে ইস্ট বেঙ্গল।

নব্বুই দশকে ভারতীয় লিগে নিয়মিত খেলতেন বাংলাদেশের মোনেম মুন্না, শেখ মোহাম্মদ আসলাম, কাইসার হামিদ, রুম্মান বিল ওয়ালি সাব্বির, গোলাম গৌস, রিজভি করিম, মাহবুবুর রহমান রক্সিরা। সর্বশেষ ইন্ডিয়ার সুপার লিগে অ্যাটলেটিকো দ্য কলকাতায় খেলতে দেখে গেছে মাহমুল হককে। এরপর আর কোন পুরুষ ফুটবলারের প্রতি আগ্রহ দেখায়নি তারা।

দক্ষিণ এশিয়ার নারী ফুটবলে বাংলাদেশের শক্ত অবস্থানের কারণে মেয়েদের কাছে আসছে সুযোগ। কোচ সাইফুল বারী তাই এটাকে দেখছেন বড় সুযোগ হিসেবে, 'পেশাদার আবহে ভিন্ন পরিবেশ খেলার দারুণ সুযোগ এটি। হোম ও অ্যাওয়ে ম্যাচ খেলবে, ভিন্ন জায়গায় ভ্রমণ করবে। যেটার অভিজ্ঞতা মেয়েরা দেশে পায় না।'

'বিদেশি খেলোয়াড়দের সঙ্গে খেলা অভিজ্ঞতায় ঋদ্ধ হতে পারবে। সাবিনা, সানজিদার এই অংশগ্রহণ বাকিদেরও ভালো করতে অনুপ্রেরণা যোগাবে।'

Comments

The Daily Star  | English
Bangladesh Remittance from top 10 countries

UAE emerges as top remittance source for Bangladesh

Bangladesh received the highest remittance from the United Arab Emirates in the first 10 months of the outgoing fiscal year, well ahead of traditional powerhouses such as Saudi Arabia and the United States, central bank figures showed.

11h ago