ইংলিশ-অস্ট্রেলিয়ানদের মতো মানসিকতা দেখাতে চাইছেন সাকিব

প্রতিপক্ষ কিছুটা দুর্বল হলে তাদের বিপক্ষে শতভাগ জয়ের কথাই ভাবে অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডের মতো দলগুলো। সিরিজ জিতে নিলেও ক্ষান্ত হয় না। ঠিক তেমনি আইরিশদের বিপক্ষে সিরিজ জিতে তৃতীয় ম্যাচে একই ধাঁচে খেলার ইঙ্গিত সাকিব।

ইংল্যান্ড সিরিজ থেকেই দিন বদলের গল্প বলতে শুরু করেছিল টাইগাররা। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তো দুর্দান্ত বাংলাদেশ। এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ নিশ্চিত করেছে তারা। এবার তৃতীয় ম্যাচ জিতে আইরিশদের হোয়াইটওয়াশ করতে চান টাইগার অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। ঠিক যেমনটা করে থাকে অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডের মতো দলগুলো।

প্রতিপক্ষ কিছুটা দুর্বল হলে তাদের বিপক্ষে শতভাগ জয়ের কথাই ভাবে অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডের মতো দলগুলো। সিরিজ জিতে নিলেও ক্ষান্ত হয় না। শেষ পর্যন্ত জয়ের ক্ষুধা নিয়েই খেলে থাকে তারা। ঠিক তেমনি আইরিশদের বিপক্ষে সিরিজ জিতে তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে কিছু খেলোয়াড়দের বিশ্রাম দেওয়ার ইঙ্গিত দিলেও জয়ের জন্য ক্ষুধার্ত থাকবেন বলেই জানান সাকিব।

বুধবার আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ৭৭ রানের বিশাল জয় নিশ্চিত করার পর পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, 'আপনি যখন অস্ট্রেলিয়া বা ইংল্যান্ডে যান, তারা যদি ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে যায় তাহলে সবসময় ৩-০ ব্যবধানে জিততে চেষ্টা করে। আমরাও একই চেষ্টা করব।'

শেষ ম্যাচে নিয়মিত একাদশের খেলোয়াড়দের বিশ্রাম দিয়ে নতুন কিছু খেলোয়াড়কে সুযোগ দেওয়ার কথা ভাবছেন সাকিব। তবে তারাও একই মানসিকতা নিয়ে খেলবেন বলেই মনে করেন সাকিব, 'আমাদের আত্মতুষ্ট হওয়ার কোনো সুযোগ নেই। আমরা হয়তো কিছু নতুন খেলোয়াড়কে চেষ্টা করতে পারি কিন্তু তারাও রান করতে বা উইকেট পাওয়ার জন্যই ক্ষুধার্ত থাকবে।'

এদিন হারানো রেকর্ড পুনরুদ্ধার করেছেন সাকিব। পাঁচ উইকেট শিকারের পথে পেছনে ফেলেছেন টিম সাউদিকে। ১৩৬টি উইকেট নিয়ে টি-টোয়েন্টি সংস্করণে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি তিনি। ফের রেকর্ডটি গড়তে পেরে দারুণ উচ্ছ্বসিত এ অলরাউন্ডার 'একজন বাংলাদেশি হিসেবে শীর্ষে থাকতে পেরে ভালো লাগছে।'

এবার দল হিসেবেই নিজেদের শীর্ষে দেখতে চান সাকিব, 'আমরা বিগত কয়েকটি ম্যাচে যে পারফরম্যান্স করেছিলাম একই ধারাবাহিকতা রাখতে চেয়েছিলাম এবং আমরা এটা পেরেছি। আমরা যদি দুর্দান্ত একটি দল হতে চাই তাহলে আমাদের সেখানে যেতে হবে এবং প্রথম বল থেকেই নিজেদের প্রকাশ করতে হবে। এটা নিয়েই আমরা আলোচনা করেছি এবং সম্মত হয়েছি এভাবেই (আক্রমণাত্মকভাবে) আমরা খেলতে যাচ্ছি।'

সাম্প্রতিক সময়ে পেসাররা দুর্দান্ত করলেও এদিন তাদের সুযোগ না দিয়ে স্পিনারদেরই বেশি সুযোগ দিয়েছেন সাকিব। আর সফল হয়েছেন। এর কারণটাও ব্যাখ্যা করেছেন অধিনায়ক, 'আমি যখন ব্যাটিং করছিলাম, তখন টেক্টর বোলিং করছিল। বল স্পিন করেছে এবং গ্রিপ করেছে। তাই আমি ভাবলাম যে স্পিনারদের জন্য কিছু রয়েছে এবং তখনই স্পিন দিয়ে শুরু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।'

Comments

The Daily Star  | English

Situation still tense at Shanir Akhra

Panic as locals join protesters in clash with cops; Hanif Flyover toll plaza, police box set on fire; dozens feared hurt

5h ago