তামিমের কাঠগড়ায় বোলার-ফিল্ডাররা!

প্রথম তিন ওভারেই নেই তিন উইকেট। এরপর তামিম ইকবালকে নিয়ে সাকিব আল হাসানের কিছুটা লড়াই। কিন্তু ইনিংস লম্বা করতে পারলেন না কেউই। পারেননি এর পরের ব্যাটাররাও। ব্যাটারদের ব্যর্থতা ছিল চোখে পড়ার মতো। কিন্তু ম্যাচ হারার দায়টা ব্যাটারদের চেয়ে বোলার ও ফিল্ডারদের বেশি দিলেন টাইগার অধিনায়ক তামিম ইকবাল খান।

প্রথম তিন ওভারেই নেই তিন উইকেট। এরপর তামিম ইকবালকে নিয়ে সাকিব আল হাসানের কিছুটা লড়াই। কিন্তু ইনিংস লম্বা করতে পারলেন না কেউই। পারেননি এর পরের ব্যাটাররাও। ব্যাটারদের ব্যর্থতা ছিল চোখে পড়ার মতো। কিন্তু ম্যাচ হারার দায়টা ব্যাটারদের চেয়ে বোলার ও ফিল্ডারদের বেশি দিলেন টাইগার অধিনায়ক তামিম ইকবাল খান।

শুক্রবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে বাংলাদেশকে ১৩২ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়েছে ইংল্যান্ড। ইংলিশদের ৩২৭ রানের জবাবে ৩২ বল বাকি থাকতে ১৯৪ রানে গুটিয়ে যায় বাংলাদেশ। তাতে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই সিরিজ হারে টাইগাররা।

এদিন টস জিতে ফিল্ডিং বেছে নেন তামিম। যেখানে প্রতিপক্ষ অধিনায়ক টস জিতলে বেছে নিতেন ব্যাটিং। আর কেন ব্যাটিং বেছে নিতেন তার প্রমাণও রেখেছেন তিনি। নিজে খেলেছেন দারুণ এক ইনিংস। জেসন রয় পেয়েছেন সেঞ্চুরি। তবে এসবের জন্য নিজেদের বোলার ও ফিল্ডারদের ব্যর্থতাকে বড় করে দেখছেন তামিম।

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে ব্যাটারদের ব্যর্থতার কথা তুলে ধরলে তামিম বলেন, 'আমার কাছে মনে হয় ম্যাচ থেকে ছিটকে যাওয়ার আমাদের আরও অনেক কারণ আছে। যেমনটা আমি মনে করি প্রথম ৪/৫ ওভারে আমরা ভালো বল করিনি। টস জিতে যখন আমরা ফিল্ডিং নেই তখন আমার কাছে মনে হয় (উইকেটে) এনাফ হেল্প ছিল আমরা আরও ভালো বল করতে পারতাম।'

'তারপর রানআউটের সুযোগ। ওইসময় যদি আমরা রানআউটের সুযোগটাও নিতে পারতাম তাহলে হয়তো ৫০ থেকে ৬০ রান উপরে নিচে হতে পারতো। যে ধরণের উইকেট ছিল যদি স্কোরটা ২৬০/৭০ হতো তাহলে আমরা চেজ করতে পারতাম। তারপরও যতই রান হোক না কেন প্রথম দুই তিন ওভারে যদি তিন উইকেট পড়ে যাই তাহলে ব্যাকফুটে এসে যাচ্ছি। এছাড়া আরও অনেক কারণ আছে,' যোগ করেন তামিম।

প্রতিপক্ষ অধিনায়কের ব্যাটিং নেওয়ার ভাবনার কথা জানালে তামিম বলেন, 'আসলে বিপক্ষ অধিনায়ক কি করতে চাইছে সেটা নিয়ে আমি মোটেও ভাবিনি। সে আগে ব্যাট করতে চেয়েছে কিনা সেটা আমার দেখার বিষয় না। আমি ও আমার দল ভেবেছিল পিচ একটু ট্রিকি ছিল। এটা ছিলও, কিন্তু যতই ট্রিকি থাকুক যদি আপনি সঠিক জায়গায় বল করতে না পারেন তাহলে রান হবেই। এছাড়া যেভাবে ওরা ব্যাটিং করেছে ওদের কৃতিত্ব দিতেই হবে।'

এদিন ফিল্ডিং করার করার সময় কিছু বাড়তি রান দিয়েছে বাংলাদেশ। সেটাও উল্লেখ করেন টাইগার অধিনায়ক, 'যদি আমরা প্রথম ম্যাচের সঙ্গে তুলনা করি আমার মনে হয় প্রথম ম্যাচে আউটফিল্ডে আমরা ইংল্যান্ডের চেয়ে ভালো ছিলাম। তবে আজকে আমরা তেমনটা ছিলাম না। আমরা হয়তো ক্যাচ মিস করিনি তবে ফিল্ডিংয়ে অনেক রান দিয়েছি। আমরা জসকে (বাটলার) আগেই রানআউট করতে পারতাম।'

তবে ৩২৬ রান তাড়া করতে গেলে শুরুতেই ৩ উইকেট হারালে কাজটা কঠিনই মনে করে তামিম, 'যখন আপনি প্রথম ওভারেই ২টি উইকেট হারান পরের ওভারে আরও তৃতীয়টি তখন আমরা বিপদেই ছিলাম। তখন আমাদের ইনিংস রিবিল্ড করতে হতো যেটা আমি ও সাকিব চেষ্টা করেছিলাম। ৩২৬ রান করতে গেলে কাউকে না কাউকে কোনো সময় সুযোগ নিতে হয়, যেটা আমি চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত হয়নি। ৩২৬ রানের লক্ষ্য দুই ওভারেই ৩ জন আউট হলে তা করা খুবই কঠিন।'

তবে ব্যাটারদের ইনিংস লম্বা করতে না পারার কথাও বলেন অধিনায়ক, 'আপনি জলদি আউট হতে পারেন এটা ম্যাচের অংশ। কিন্তু যখন আপনি ৩০-৪০ করবেন ইনিংসের শুরু পাবেন তখন ওটা বড় করা উচিত। যেটা ইংল্যান্ডের ওরা করেছে। আজকের ম্যাচে একজন ১৩০ করেছে, আগের ম্যাচে একজন ১২০ এর মতো করেছে। আমার মনে হয় এ জিনিসটা আমাদের ঘাটতি আছে। যে কোনো ব্যাটার জলদি আউট হতে পারে কিন্তু ইনিংস শুরু পেলে এটা বড় করতে হয় যেটা আমরা পারিনি।'

Comments

The Daily Star  | English

Metro rail operations halted due to problems in power service

Metro rail operations remained suspended since this morning due to problems in power service, causing serious sufferings to the passengers, particularly the office goers

24m ago