মেসিকে বলেছি আমি চ্যাম্পিয়ন হব, ওর বিপক্ষে জিতব: নেইমার

'আমরা বিশ্বকাপে পৌঁছে গেছি - এখন চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পালা।' দ্য টেলিগ্রাফকে দেওয়া সাক্ষাৎকারের শুরুটা বেশ আত্মবিশ্বাসের সঙ্গেই শুরু করলেন নেইমার। এরপর একে একে বললেন নিজের স্বপ্নের কথা। সম্ভাব্য শেষ বিশ্বকাপটা কীভাবে রাঙাতে চান এ ব্রাজিলিয়ান তারকা।

'আমরা বিশ্বকাপে পৌঁছে গেছি - এখন চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পালা।' দ্য টেলিগ্রাফকে দেওয়া সাক্ষাৎকারের শুরুটা বেশ আত্মবিশ্বাসের সঙ্গেই শুরু করলেন নেইমার। এরপর একে একে বললেন নিজের স্বপ্নের কথা। সম্ভাব্য শেষ বিশ্বকাপটা কীভাবে রাঙাতে চান এ ব্রাজিলিয়ান তারকা।

কাতার বিশ্বকাপ শুরু হতে আর দিন চারেক বাকি। ডামাডোল তো আগেই শুরু হয়ে গেছে এ আসরের। এ আসরে অনেক তারকাকেই শেষবারের মতো দেখা যেতে পারে বিশ্বকাপে। যে তালিকায় আছেন নেইমারও। বয়সটা ৩০ হলেও আররেকটি বিশ্বকাপ খেলতে পারা নিয়ে অনিশ্চিতায় আছেন, তা কিছুদিন এক সাক্ষাৎকারে নিজেই বলেছিলেন এ ব্রাজিলিয়ান।

এর আগেও দুটি বিশ্বকাপে খেলেছেন নেইমার। ২০১৪ আসরে ঘরের মাঠে শেষটা ভালো হয়নি তাদের। কলোম্বিয়ার বিপক্ষে ইনজুরিতে পড়ে নিজে ছিটকে যান কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই। এরপর দলও আর বেশি আগাতে পারেনি। সেমি-ফাইনালে জার্মানির কাছে বিধ্বস্ত হয়ে ঘরের মাঠে দর্শক হতে হয় তাদের।

দারুণ একটি দল নিয়ে হয়নি রাশিয়াতেও। সোনালি প্রজন্মের বেলজিয়ামের কাছে কোয়ার্টার ফাইনালে হেরে যায় ব্রাজিল। এবার কাতারে যেন আগের সব আক্ষেপ ঘোচাতে চান নেইমার, 'বিশ্বকাপ আমার সবচেয়ে বড় স্বপ্ন। ফুটবল বলতে কি বুঝায় তা যখন বুঝতে পেরেছি তখন থেকেই। এখন আমি আরেকটি সুযোগ পাচ্ছি, তাই আমি এটি করতে আশা করি।'

তবে কাজটা যে সহজ নয়, তা খুব ভালো করেই জানেন এ ব্রাজিলিয়ান। তাদের সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী প্রতিবেশি দল আর্জেন্টিনা। ব্রাজিলের মতো দারুণ একটি দল রয়েছে তাদেরও। সে দলে রয়েছেন আবার লিওনেল মেসি, যার সঙ্গে দারুণ বন্ধুত্ব নেইমারের। গত বছর এই নেইমারের ব্রাজিলকে হারিয়েই আন্তর্জাতিক শিরোপার আক্ষেপ ঘুচিয়েছিলেন মেসি।

সবঠিক থাকলে দুই বন্ধুর মধ্যে দেখা হতে পারে সেমি-ফাইনালে। আর এবার সে লড়াইয়ে জিততে মরিয়া নেইমার। মেসিকে তো এক প্রকার চ্যালেঞ্জই ছুঁড়ে দিয়েছেন। যদিও মজার ছলেই। নেইমারের ভাষায়, 'আমরা এ নিয়ে খুব বেশি আলোচনা করিনি তবে কখনো কখনো রসিকতা করেছি। আমি ওকে (মেসিকে) বলেছি যে আমি চ্যাম্পিয়ন হব এবং ওর বিরুদ্ধে জিতব। এরপর দুইজনই হেসে উঠি।'

বিশ্বকাপে যে কোনো দলই চমকে দিতে পারেন বলে মনে করেন নেইমার। সম্ভাব্য চ্যাম্পিয়ন হিসেবে একাধিক দলকেই দেখছেন তিনি, 'বিশ্বকাপ চমকে ভরা। অপ্রত্যাশিতভাবে কিছু দল অনেক দূরত্ব অর্জন করে যাদের উপর অনেকেই বিশ্বাস রাখে না। তবে আমি বিশ্বাস করি ফেভারিট আর্জেন্টিনা, জার্মানি, স্পেন এবং ফ্রান্স। এই চার দলের সঙ্গে ব্রাজিলের জিততে পারে।'

প্রথমে পাঁচটি দলকে নিজের ফেভারিট তালিকায় রাখলেও পরে ইংল্যান্ডের কোথাও উল্লেখ করেন নেইমার, 'আমি সত্যিই ইংল্যান্ড সম্পর্কে বলতে ভুলে গেছি তবে স্পষ্টতই তাদের একটি সুযোগ রয়েছে!'

Comments

The Daily Star  | English

Quota system in govt jobs: Reforms must be well thought out

Any disproportionate quota system usually hurts a merit-based civil service, and any kind of decision to reform the system, in place since independence, should be well thought out, experts say.

10h ago