প্রতিদ্বন্দ্বীদের প্রতি কাফুর হুঙ্কার, 'ব্রাজিল ফিরে এসেছে'

ব্রাজিল শেষবার বিশ্বকাপের শিরোপা উঁচিয়ে ধরেছিল ২০০২ সালে। সেবার ফুটবলের সর্বোচ্চ আসরের সফলতম দলটির অধিনায়ক ছিলেন কিংবদন্তি ডিফেন্ডার কাফু।
ছবি: সংগৃহীত

ব্রাজিল শেষবার বিশ্বকাপের শিরোপা উঁচিয়ে ধরেছিল ২০০২ সালে। সেবার ফুটবলের সর্বোচ্চ আসরের সফলতম দলটির অধিনায়ক ছিলেন কিংবদন্তি ডিফেন্ডার কাফু। তার মতে, কাতারে এবার বিশ্বমঞ্চে দুই দশকের শিরোপাখরার অবসান ঘটাতে পারে তার উত্তরসূরিরা। নেইমারের নেতৃত্বে ফের সেলেসাওদের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সুবর্ণ সুযোগ দেখছেন তিনি।

রেকর্ড পাঁচবার বিশ্বকাপের শিরোপা জেতা ব্রাজিল গত চার আসরে হয়েছে ব্যর্থ। তিনবার তারা বিদায় নেয় কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে। নিজেদের মাটিতে ২০১৪ সালে সম্ভাবনা জাগালেও শেষ পর্যন্ত করুণ পরিণতির শিকার হয় তারা। সেমিফাইনালে তাদের অভিযান থামে জার্মানির কাছে ৭-১ গোলে বিধ্বস্ত হয়ে। সবশেষ ২০১৮ রাশিয়া আসরের শেষ আট থেকে তাদের বিদায় করে দেয় বেলজিয়াম।

আসন্ন কাতার বিশ্বকাপে ব্রাজিল যাচ্ছে ফর্মের তুঙ্গে থেকে। দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চলের বাছাই পর্বে ১৭ ম্যাচের ১৪টিতে জিতে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষস্থান দখল করে তারা। অপরাজিত থাকার পাশাপাশি ওই অঞ্চলের বাছাইয়ের ইতিহাসে রেকর্ড ৪৫ পয়েন্ট অর্জন করে। সবশেষ দুই আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে কোচ তিতের শিষ্যরা ঘানাকে ৩-০ ও তিউনিসিয়াকে ৫-১ গোলে উড়িয়ে দেয়।

২০০২ সালের পর থেকে অনুষ্ঠিত সবকটি বিশ্বকাপের শিরোপা গেছে ইউরোপে। ২০০৬ সালে ইতালি, ২০১০ সালে স্পেন, ২০১৪ সালে জার্মানি ও ২০১৮ সালে ফ্রান্স হয় চ্যাম্পিয়ন। ব্রাজিলের জন্য ইউরোপের একচ্ছত্র আধিপত্য ভাঙার এখনই সময় বলে মনে করেন কাফু। বুধবার বার্তা সংস্থা এএফপিকে তিনি বলেন, 'এটা ইউরোপের প্রাধান্য অবসানের দারুণ একটি সুযোগ। ব্রাজিলের জন্য এখনই উপযুক্ত সময় (গত ২০ বছরের) অমঙ্গল দূর করার এবং শিরোপা জেতার।'

স্বদেশের পাশাপাশি প্রতিবেশী ও চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী আর্জেন্টিনাকে ফেভারিট মানেন বিশ্বকাপ জয়ী সাবেক তারকা, 'আর্জেন্টিনা আর সেলেসাওরা হলো দুই ফেভারিট। একদিকে, ব্রাজিল দারুণ সব পারফরম্যান্সের সমন্বয়ে খুব ভালো একটি মৌসুম কাটিয়ে এসেছে। অন্যদিকে, আর্জেন্টিনাও খুব ভালো দল। এই দুই দলের বিশ্বকাপ জেতার দারুণ সম্ভাবনা রয়েছে।'

ব্রাজিলের জার্সিতে বিশ্বকাপজয়ী কাফু অবশ্য সতর্ক করে দেন শিরোপাপ্রত্যাশী বাকি দলগুলোকে, 'ব্রাজিল যে ২০ বছর ধরে শিরোপা জেতেনি, এই বিষয়টা সমর্থকদের ওপর কিছুটা প্রভাব ফেলেছে এবং জাতীয় দলের ওপর থেকে বিশ্বাসযোগ্যতা কিছুটা কমিয়ে দিয়েছে। তবে এই বছর আমি মনে করি, ব্রাজিল ফিরে এসেছে।'

ফরাসি লিগের শিরোপাধারী পিএসজির জার্সিতে এবারের ২০২২-২৩ মৌসুমটা অসাধারণ কাটছে নেইমারের। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ২০ ম্যাচ খেলে ১৫ গোল ও ১২ অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। তার দিকে তাকিয়ে কাফু, 'নেইমার ফিট থাকায় আমাদের বিশ্বকাপ জেতার ভালো সুযোগ রয়েছে। কারণ, সে এমন একজন খেলোয়াড় যে মাঠে পার্থক্য গড়ে দেয়। আমরা তার দক্ষতার ওপর ভরসা করলেও সে কিন্তু একা খেলবে না।'

সতীর্থদের ওপর নেইমারের উপস্থিতির ইতিবাচক প্রভাব নিয়ে তিনি যোগ করেন, 'আমি মনে করি, ভালো খেলে ও রোমাঞ্চিত থেকে নেইমার বাকি খেলোয়াড়দেরও রোমাঞ্চিত করবে এবং তাদেরকে গুরুত্বপূর্ণ অনুভব করাবে যাতে তারা জিততে পারে।'

কয়েক দিন পরই পর্দা উঠতে যাওয়া কাতার বিশ্বকাপ 'জি' গ্রুপে খেলবে ব্রাজিল। সেখানে তিতের দলের তিন প্রতিপক্ষ হলো ইউরোপের সার্বিয়া ও সুইজারল্যান্ড এবং আফ্রিকার ক্যামেরুন।

Comments

The Daily Star  | English

Doctors, engineers grab a third of civil admin jobs

The general cadre jobs in the civil service have become so lucrative that even medical and engineering graduates are queuing up for them, giving up careers in the two highly specialised fields.

10h ago