যৌথ ব্যাচেলর ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালু করবে ঢাবি ও চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) এবং চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটি’র মধ্যে যৌথ ব্যাচেলর ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালুর ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
যৌথ ব্যাচেলর ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালু করবে ঢাবি ও চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটি
ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত বোর্ড মিটিংয়ে যৌথ সহযোগিতামূলক শিক্ষা ও গবেষণা কার্যক্রম আরও জোরদার করার লক্ষ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটির মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) এবং চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটি'র মধ্যে যৌথ ব্যাচেলর ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালুর ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আজ শনিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কনফুসিয়াস ইনস্টিটিউটের এক ভার্চুয়াল বোর্ড মিটিংয়ে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত ওই বোর্ড মিটিংয়ে যৌথ সহযোগিতামূলক শিক্ষা ও গবেষণা কার্যক্রম আরও জোরদার করার লক্ষ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও চীনের ইউনান ইউনিভার্সিটির মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান এবং ইউনান ইউনিভার্সিটি'র ভাইস প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক ড. হু জিনমিং নিজ নিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে এই চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।

সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিউটের ৪ বছর মেয়াদী চাইনিজ ল্যাঙ্গুয়েজ প্রোগ্রামের শিক্ষার্থীরা ৩ বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এবং ১ বছর ইউনান বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নের সুযোগ পাবেন।

একইভাবে, ইউনান বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা ভাষা প্রোগ্রামের শিক্ষার্থীরা ৩ বছর ইউনান বিশ্ববিদ্যালয়ে এবং ১ বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সুযোগ পাবেন।

যৌথ ব্যাচেলর ডিগ্রি প্রোগ্রাম চালুর ক্ষেত্রে দ্রুত আধুনিক কারিকুলাম প্রণয়নের ব্যাপারে সভায় আলোচনা করা হয়। এছাড়া চীন-বাংলাদেশ গবেষণা কেন্দ্র এবং চীন-বাংলাদেশ শিল্প ও সংস্কৃতি বিনিময় কেন্দ্রের কার্যক্রম আরও গতিশীল করার মাধ্যমে উভয় দেশের মধ্যে শিক্ষক, গবেষক, শিক্ষার্থী ও সংস্কৃতি কর্মী বিনিময়ের ব্যাপারেও সভায় আলোচনা করা হয়।

এসময় ইউনান ইউনিভার্সিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক ড. হু জিনমিং আগামী বছর বিশ্ববিদ্যালয়টির শতবর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানে যোগদানের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে আমন্ত্রণ জানান।

এই আমন্ত্রণের জন্য ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, 'বাংলাদেশ এবং চীনের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বিরাজ করছে। যৌথ শিক্ষা, গবেষণা ও সাংস্কৃতিক কার্যক্রমের মাধ্যমে এই সম্পর্ক ভবিষ্যতে আরও জোরদার হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের জন্য আরও বেশি যৌথ সহযোগিতামূলক শিক্ষা ও গবেষণা কার্যক্রম গ্রহণের ওপর তিনি গুরুত্বারোপ করেন।'

বোর্ড মিটিংয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক ড. এবিএম রেজাউল করিম ফকির, চাইনিজ ল্যাঙ্গুয়েজ প্রোগ্রামের প্রধান ড. মো. আফজাল হোসেন, কনফুসিয়াস ইনস্টিটিউটের পরিচালক ড. ইয়াং হু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় হিসাব পরিচালকের দফতরের উপ-পরিচালক (বাজেট) মো. ফয়েজ উদ্দিন আহমেদসহ  আরও অনেকে অংশ নেন। ইউনান ইউনিভার্সিটির অধ্যাপক ড. উ ইয়ুন ভার্চুয়াল এই বোর্ড মিটিং পরিচালনা করেন।

Comments