লক্ষ্মীপুর গণধর্ষণ মামলায় ৪ জনের ফাঁসি

লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে এক গৃহবধুকে গণধর্ষণের মামলায় আজ চারজনের ফাঁসি ও একজনকে খালাসের রায় দিয়েছেন জেলা ও দায়রা জজ বিচারক ড. একেএম আবুল কাশেম।
Lakshmipur

লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে এক গৃহবধুকে গণধর্ষণের মামলায় আজ চারজনের ফাঁসি ও একজনকে খালাসের রায় দিয়েছেন জেলা ও দায়রা জজ বিচারক ড. একেএম আবুল কাশেম।

এছাড়াও, প্রত্যেক আসামিকে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানার নির্দেশ দেয়া হয়।

অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় আনোয়ার নামের অপর এক আসামিকে এ মামলা থেকে বেকসুর খালাস দেওয়া হয়।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এডভোকেট আবুল বাশার রায়ে সন্তুষ্ট প্রকাশ করে বলেন, “রায়ের সময় সকল আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্তরা হচ্ছেন জেলার কমলনগর উপজেলার চরবসু এলাকার ছানা উল্যাহ, চরকালকিনি গ্রামের মো: হারুন ও কাশেম ওরফে কাশেম মাঝি এবং নোয়াখালীর সুধারাম উপজেলার আন্ডার চর গ্রামের মো: রহিম।

খালাস পেয়েছেন চরকাদিরা গ্রামের তাজল হকের ছেলে আনার উল্যাহ।

আদালত সূত্র জানায়, ২০১৪ সালের ২২ ডিসেম্বর গভীর রাতে কমলনগর উপজেলার চর কাদিরা এলাকায় জোরপূর্বক ওই গৃহবধুর ঘরে ঢুকে তাঁকে পালাক্রমে গণধর্ষণের পর নির্যাতন ও আঘাত করে পালিয়ে যায় অভিযুক্ত আসামিরা। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে প্রথমে কমলনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও পরে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ঘটনায় ২০১৪ সালের ২৯ ডিসেম্বর গৃহবধুর স্বামী জয়নাল আবদীন বাদী হয়ে কমলনগর থানায় চারজনের নাম উল্লেখ করে আরও অজ্ঞাত পাঁচজনসহ নয়জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

পরে পাঁচজনকে অভিযুক্ত করে ২০১৫ সালের ৩১ মে আদালতে চার্জশিট দেয় পুলিশ। বাদী ও বিবাদী পক্ষের আইনজীবীদের দীর্ঘ শুনানি ও নয়জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আজ দুপুরে আদালত এ রায় দেন।

Comments

The Daily Star  | English

Pm’s India Visit: Dhaka eyes fresh loans from Delhi

India may offer Bangladesh fresh loans under a new framework, as implementation of the projects under the existing loan programme is proving difficult due to some strict loan conditions.

3h ago