রাজনীতি

আ. লীগ রাষ্ট্রের ত্রাণ ভাণ্ডার লুট করছে: আবদুস সালাম

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির আহ্বায়ক আবদুস সালাম বলেছেন, রাষ্ট্রের ত্রাণ ভাণ্ডার লুট করছে আ. লীগ। পদ্মা সেতু উদ্বোধনের পেছনে খরচ হওয়া টাকাও যদি বানভাসি মানুষকে দিতো তাহলে মানুষ কিছু পেত।
শনিবার দুপুরে ফেনী শহরের ইসলামপুর রোডের বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলন। ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির আহ্বায়ক আবদুস সালাম বলেছেন, রাষ্ট্রের ত্রাণ ভাণ্ডার লুট করছে আ. লীগ। পদ্মা সেতু উদ্বোধনের পেছনে খরচ হওয়া টাকাও যদি বানভাসি মানুষকে দিতো তাহলে মানুষ কিছু পেত।

তিনি আরও বলেন, দেশে বন্যা হয়েছে আওয়ামী লীগ স্বীকারই করতে চায় না। প্রধানমন্ত্রী হেলিকপ্টার নিয়ে ঘোরেন, উপর থেকে দেখেন পানি কোথায়। কোনো দুর্যোগপূর্ণ এলাকায় যাননি। আজ ফেনীতে বিএনপিকে কেন বাধা দেওয়া হলো। চ্যালেঞ্জ দিতে চাই, বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিন। ৩০০ সিটে বেগম খালেদা জিয়া আর আপনি ভোট করেন। দেখেন আপনি কয়টা ভোট পান, খালেদা জিয়া কয়টা পান। পারবেন তো? নির্বাচনে জয়লাভ করতে পারবেন না, আপনাদের ভরাডুবি হবে।'

আবদুস সালাম বলেন, 'আ. লীগ ভয় পাইছে। তারা নাই, তাদের বিদায় দিতে হবে। ভবিষ্যতে তাদের ক্ষমতায় আসার সুযোগ নাই। তারা দেশে অরাজকতা সৃষ্টি করে একটা চেষ্টা করবে। ফেনীবাসী সবসময় যুদ্ধ করে টিকে আছে। ফেনীসহ বৃহত্তর নোয়াখালীতে আ. লীগ ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করছে।'

আজ শনিবার দুপুরে ফেনী শহরের ইসলামপুর রোডের বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম আরও বলেন, '৩ বারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া এখনো জনপ্রিয় নেত্রী। তাকে ভয় পায় বলে মুক্তি দিচ্ছে না। তার নির্বাচনী এলাকায় ত্রাণ দিতে আওয়ামী ক্যাডার ও পুলিশ সম্মিলিতভাবে বাধা দিয়েছে। বিএনপি গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে, ভোটে বিশ্বাস করে। জনগণকে সাহস দিতে পারি সেজন্য জনগণের মাঝে এসেছি।'

'ফুলগাজীর ঘটনায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। দেশে কী মগের মুল্লুক চলছে। আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল বলেই ফুলগাজীতে যাইনি,' বলেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, 'পদ্মা সেতুতে আ. লীগের নেতারা যাবেন বলে অস্থায়ী টয়লেট তৈরি করা হয়। ওখানে ১০ কোটি টাকা খরচ হয়। আ. লীগ কখনো জনগণের কথা চিন্তা করেনি। স্বাধীনতার পর থেকে আ. লীগের সঙ্গে মোকাবিলা করে আসছি। তারা হত্যার রাজনীতি করে। যতবার ক্ষমতায় এসেছে ততবার দুঃশাসনের রাজনীতি নিয়ে এসেছে। বিএনপিকে জনগণের কাছে যেতে দিতে চায় না। বিএনপি নেত্রীকে খালেদা জিয়াকে মানুষের কাছে যেতে দেয় না। তারেক রহমানকে দেশে এসে জনগনণের সামনে যেতে দিতে ভয় পায়।

জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ বাহার ফুলগাজীতে ত্রাণ বিতরণে বাধা দেওয়ায় আগামী সোমবার ফেনীর প্রত্যেক উপজেলা ও পৌরসভা এবং মঙ্গলবার জেলা সদরে বিএনপির উদ্যোগে বিক্ষোভ সমাবেশ কর্মসূচী ঘোষণা করেন।

জেলা বিএনপির সদস্য সচিব আলাল উদ্দিন অভিযোগ করেন, 'আজ শনিবার সকাল থেকে বিএনপির নেতা-কর্মীরা যেন ফুলগাজীতে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের জন্য ত্রাণ সামগ্রী নিয়ে যেতে না পারে সেজন্য আ. লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীরা হাসপাতাল মোড়সহ বিভিন্ন পথে ব্যারিকেড দিয়ে পাহারা বসিয়েছে।'

সংবাদ সম্মেলন শেষে ফুলগাজীর বন্যাদুর্গত এলাকায় বিতরণের জন্য ঢাকা মহানগর বিএনপির পক্ষ থেকে বরাদ্দ করা ত্রাণ জেলা বিএনপির নেতাদের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

এসময় সেখানে আরও উপস্থিত ছিলেন- বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা জয়নাল আবদীন (ভিপি জয়নাল), চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক জালাল উদ্দিন আহেমদ, হারুনুর রশিদ, কেন্দ্রীয় গ্রাম সরকার বিষয়ক সহ-সম্পাদক বেলাল আহমেদ,  জাতীয় কমিটির সদস্য মশিউর রহমান বিপ্লব, আবু তালেব।

Comments