২ লাখ ৬৩ হাজার কোটি টাকার এডিপি অনুমোদন, সর্বোচ্চ বরাদ্দ রূপপুর প্রকল্পে

অভ্যন্তরীণ উৎস থেকে ১ লাখ ৬৯ হাজার কোটি টাকা এবং বৈদেশিক উৎস থেকে ৯৪ হাজার কোটি টাকা ব্যয় করা হবে। 
এডিপি
বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের সভা। ছবি: পিআইডি

আগামী ২০২৩-২০২৪ অর্থবছরের জন্য ২ লাখ ৬৩ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ের বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির (এডিপি) অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। 

এর মধ্যে অভ্যন্তরীণ উৎস থেকে ১ লাখ ৬৯ হাজার কোটি টাকা এবং বৈদেশিক উৎস থেকে ৯৪ হাজার কোটি টাকা ব্যয় করা হবে। 

আজ বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়।

এডিপির আওতায় প্রকল্প সংখ্যা হবে ১ হাজার ৩০৯টি। এর মধ্যে বিনিয়োগ প্রকল্প ১ হাজার ১১৮টি, সমীক্ষা প্রকল্প ২২টি, কারিগরি সহায়তা প্রকল্প ৮০টি এবং স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান বা করপোরেশনের নিজস্ব অর্থায়নে বাস্তবায়নাধীন প্রকল্প ৮৯টি।

প্রকল্পভিত্তিতে সর্বোচ্চ প্রায় ৯ হাজার ৭০৭ কোটি টাকা বরাদ্দ পাচ্ছে রূপপুর পারমানবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্প। 

এছাড়া, মাতারবাড়ি কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র প্রকল্পে প্রায় ৯ হাজার ৮১ কোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়া হবে।

ঢাকা-আশুলিয়া এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে নির্মাণ প্রকল্পে প্রায় ৫ হাজার ৮৭০ কোটি টাকা, পদ্মা সেতু রেল সংযোগ প্রকল্পে প্রায় ৫ হাজার ৫০০ কোটি টাকা এবং হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সম্প্রসারণ প্রকল্পে প্রায় ৫ হাজার ৪৯৯ কোটি টাকা বরাদ্দের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে এডিপিতে।

এবার সর্বোচ্চ বরাদ্দ দেওয়া হচ্ছে পরিবহন ও যোগাযোগ খাতে প্রায় ৭৫ হাজার ৯৪৫ কোটি টাকা, যা মোট এডিপির ২৮ দশমিক ৮৮ শতাংশ।

এছাড়া, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে প্রায় ৪৪ হাজার ৩৯৩ কোটি টাকা, শিক্ষায় প্রায় ২৯ হাজার ৮৮৯ কোটি টাকা, স্বাস্থ্যখাতে প্রায় ১৮ হাজার ৮৮০ কোটি টাকা, কৃষিতে প্রায় ১০ হাজার ৭০৭ কোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়া হচ্ছে।

স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান বা করপোরেশনের জন্য প্রায় ১১ হাজার ৬৭৪ কোটি ২ লক্ষ টাকার এডিপিও আজ অনুমোদিত হয়।

Comments