১৫ দেশে মুক্তি পেল শাকিব খানের ‘তুফান’

নিজের অভিনীত সিনেমা একদিন পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে মুক্তি পাবে, গত ২৫ বছর ধরে এই স্বপ্ন দেখতেন শাকিব খান।
‘তুফান’ সিনেমার দৃশ্যে শাকিব খান ও মিমি চক্রবর্তী। ছবি: সংগৃহীত

মুক্তির পর থেকেই প্রেক্ষাগৃহে তুমুল সাড়া ফেলেছে রায়হান রাফী নির্মিত শাকিব খান অভিনীত 'তুফান'। বাংলাদেশে মুক্তির পর থেকেই সিনেমাটি বিশ্বের অন্যান্য দেশে মুক্তির বিষয়ে আলোচনা চলছিল।

অবশেষে আজ শুক্রবার একযোগে ১৫টি দেশে মুক্তি পেয়েছে 'তুফান'। আমেরিকা, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, বেলজিয়াম, সুইডেন, জার্মানি, নেদারল্যান্ডস, স্পেন, পর্তুগাল, আবুধাবি, বাহরাইন, কাতার, ওমানের শতাধিক থিয়েটারে মুক্তি পেয়েছে তুফান।

বেশিরভাগ দেশে প্রথমদিনের শো-য়ের অগ্রিম টিকেট বিক্রির আগেই হাউজফুল নিশ্চিত হয়েছে। বিশেষ করে, অস্ট্রেলিয়াতে প্রায় ২৫০০ টিকেট অগ্রিম বিক্রির মাধ্যমে রেকর্ড করেছে।

এছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক, ডালাস, সানফ্রান্সিসকো, কুইন্স, লন্ডন, আবুধাবির বড় বড় সিনে থিয়েটারে আগেই 'তুফান' এর অগ্রিম টিকেট সোল্ড আউট হয়েছে।

'তুফান'র ইন্টারন্যাশনাল ডিসট্রিবিউটর ও এসভিএফের প্রযোজক মহেন্দ্র সনি বলেন, 'পৃথিবীতে প্রায় ৪০ কোটি বাঙালি ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছেন। পৃথিবীময় যেখানে যেখানে বাঙালি বসবাস করেন সেখানে "তুফান" মুক্তি দেব।'

নিজের অভিনীত সিনেমা একদিন পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে মুক্তি পাবে, গত ২৫ বছর ধরে এই স্বপ্ন দেখতেন শাকিব খান।

তিনি বলেন, 'এখন আমাদের ইন্ডাস্ট্রি নতুন করে ভালো স্থানে যাচ্ছে। সেই সঙ্গে গ্লোবালি আমাদের অবস্থান মজবুত হচ্ছে। করোনা পরবর্তী আমরা দারুণ এক সুসময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। আমি অনেক আগে থেকে স্বপ্ন দেখছি, বাংলাদেশের সিনেমাকে বিশ্বব্যাপী দেখতে চাই। প্রথমে অনেকেই ভাবতো এগুলো আমি কথার কথা বলছি, এগুলো সম্ভব নয়। কিন্তু যেটা আমি স্বপ্ন দেখতাম সেটাই এখন হচ্ছে।'

গত ঈদে মুক্তির পর স্টার সিনেপ্লেক্সের সর্বোচ্চ ৫৮টি শো নিয়ে ২০ বছরের সকল রেকর্ড ভেঙে দেয় 'তুফান'। মুক্তির ১০ দিন পরেও সর্বোচ্চ শো নিয়ে ব্যবসা করছে 'তুফান'।

আজ শুক্রবার সকালে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সিনেপ্লেক্সে ৫০টির মতো শো চলছে এর মধ্যে ৪৭টিই হাউজফুল।

Comments