অপরাধ ও বিচার

চুল কেটে ৩ শিশুকে নির্যাতন, পৌর মেয়রের বিরুদ্ধে মামলা

মেয়র হালিম সিকদার উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক
এমএ হালিম সিকদার
মেয়র হালিম সিকদার। ছবি: সংগৃহীত

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ৩ শিশুকে মারধর এবং চুল কেটে পুরো গ্রাম ঘোরানোর অভিযোগে গোপালদী পৌরসভার মেয়র এম এ হালিম সিকদারের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার সকালে ভুক্তভোগী এক শিশুর অভিভাবক মামলা করেন বলে জানান আড়াইহাজার থানার ওসি আজিজুল হক৷ মামলায় মেয়র হালিম সিকদার ও তার তিন সহযোগীকে আসামি করা হয়েছে।

অন্য আসামিরা হলেন- ফারুক, দিপক, উৎপল৷ তাদের মধ্যে ফারুক ও দিপক গ্রেপ্তার হয়েছেন বলে জানান ওসি। 

চুরির অপবাদ দিয়ে গতকাল সোমবার সকালে উপজেলার গোপালদী পৌরসভার রামচন্দ্রদী বাসস্ট্যান্ডে তিন শিশুকে নির্যাতনের অভিযোগ ওঠে গোপালদী পৌরসভার মেয়র এম এ হালিম সিকদারের বিরুদ্ধে।

শিশুদের নির্যাতন নিয়ে কারো সঙ্গে কথা না বলার জন্য মেয়রের লোকজন হুমকি দেন বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগীদের পরিবার।

এমএ হালিম সিকদার উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক। শিশুদের বেঁধে গ্রাম ঘোরানো এবং জনসমক্ষে চুল কেটে দেওয়ার কথা স্বীকার করলেও তিনি কোনো অন্যায় করেননি বলে দাবি করেছিলেন।

পৌর মেয়র গতকাল দ্য ডেইলি স্টারকে বলেছিলেন, 'ওরা আমার কারখানার জিনিসপত্র চুরি করেছে। এই কারণে একটু শাস্তি দিয়েছি।'

ভুক্তভোগী ৩ শিশু মাদরাসায় পড়ে। ১১ বছর বয়সী শিশুটি একটি দাখিল মাদরাসার ষষ্ঠ শ্রেণির শিক্ষার্থী, ৯ বছর বয়সী শিশুটি একই মাদরাসার তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থী এবং ৭ বছর বয়সী শিশুটি মক্তবের শিক্ষার্থী।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক শিশুর অভিভাবক বলেন, 'মাদরাসায় পড়া শেষে মেয়রের বাড়ির পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় একটি লোহার শেকল কুড়িয়ে পায় ২ শিশু। হাতে শেকল দেখে চুরির অপবাদ দিয়ে তাদের মারধর করেন মেয়র হালিম সিকদার। পরে তাদের পিছমোড়া করে বেঁধে আরেক শিশুকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে আসেন তিনি। পরে একইভাবে ৩ জনকে বেঁধে গ্রাম ঘোরান মেয়র। তাদের মারধরও করেন। প্রায় ৩ ঘণ্টা এভাবে ঘোরানোর পর জনসমক্ষে ৩ জনেরই চুল কেটে দেন তিনি।'

 

Comments

The Daily Star  | English

Two Bangladeshi fishermen injured in BGP firing in Teknaf

At a time when Bangladesh is providing shelter to members of Myanmar Border Guard Police (BGP) fleeing the conflict in their country, the force opened fire on a Bangladeshi fishing boat in Naf river of Teknaf upazila in Cox’s Bazar, leaving two fishermen injured

15m ago