অপরাধ ও বিচার

বাঞ্ছারামপুরে মা ও ২ ছেলেকে কুপিয়ে হত্যা

বাঞ্ছারামপুর উপজেলার আইয়ুবপুর ইউনিয়নের চরছয়ানী গ্রামের  দক্ষিণপাড়ায় মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটে। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে এক প্রবাসীর স্ত্রী ও তার দুই ছেলেকে কুপিয়ে ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। 

আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে ঘরের দরজা ভেঙে তাদের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

বাঞ্ছারামপুর উপজেলার আইয়ুবপুর ইউনিয়নের চরছয়ানী গ্রামের  দক্ষিণপাড়ায় মর্মান্তিক এই ঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলেন, জেকি আক্তার (৩৫), তার ছেলে মাহিন (১৪) ও মহিন (৭)। নিহতরা সৌদি আরব প্রবাসী শাহ আলমের স্ত্রী ও ছেলে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, বাঞ্ছারামপুর উপজেলার আইয়ূবপুর ইউনিয়নের চরছয়ানি গ্রামের সৌদি আরব প্রবাসী শাহ আলমের স্ত্রী, দুই ছেলে ও এক মেয়ে সন্তান নিয়ে একটি পাকা ভবনে বসবাস করেন। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে বাসায় কাজ করতে আসা গৃহপরিচারিকা জেসমিন আক্তার দরজা বন্ধ দেখে ডাকাডাকি করে। কিন্তু কেউ দরজা না খোলায় জেকি আক্তারে জায়ের কাছ থেকে চাবি নিয়ে প্রধান ফটক খুলে ভিতরে গিয়ে ভবনের দরজা বন্ধ পাওয়া যায়। পরে আশেপাশের লোকজনকে ডেকে এনে বিষয়টি জানান তিনি। এরপর এলাকাবাসী থানায় খবর দিলে পুলিশ সদস্যরা গিয়ে ঘরের দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে কক্ষের মেঝেতে জেকি আক্তার ও তার বড় ছেলে মাহিনের মরদেহ এবং পাশের টয়লেটে ছোট ছেলে মহিনের মরদেহ পাওয়া যায়। 

তবে এ সময় সাত মাস বয়সী কন্যা সন্তানকে অক্ষত অবস্থায় পাওয়া যায়।

এ বিষয়ে বাঞ্ছারামপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নূরে আলম জানান, নিহত মা ও বড় ছেলের মাথায় কোপের আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। 

তিনি আরও জানান, ধারণা করা হচ্ছে, পূর্ব পরিচিত কেউ আজ ভোরে পূর্বপরিকল্পিতভাবে এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটাতে পারে। তার কারণ, ভিকটিমের ঘর থেকে কোনো মালামাল লুট হয়নি।

 

Comments