বাংলাদেশ

কনটেইনার থেকে উদ্ধার কিশোরের বাড়ি কুমিল্লায়, নাম রাতুল: পরিবারের দাবি

চট্টগ্রাম বন্দর থেকে মালয়েশিয়া যাওয়া একটি জাহাজের কনটেইনার থেকে যে কিশোরকে উদ্ধার করা হয়েছে, তার বাড়ি কুমিল্লায়। ২ মাসেরও বেশি সময় আগে সে বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয় বলে দাবি করেছে তার পরিবার।
ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রাম বন্দর থেকে মালয়েশিয়া যাওয়া একটি জাহাজের কনটেইনার থেকে যে কিশোরকে উদ্ধার করা হয়েছে, তার বাড়ি কুমিল্লায়। ২ মাসেরও বেশি সময় আগে সে বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয় বলে দাবি করেছে তার পরিবার।

এই কিশোরের চাচা আজগর মিয়া জানান, তার নাম রাতুল (১৪)। সে কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার সাতপুকুরিয়া গ্রামের দিনমজুর ফারুক মিয়ার বড় ছেলে।

তিনি বলেন, 'মিডিয়ায় রাতুলের ছবি দেখে আমরা তাকে শনাক্ত করেছি। সে মানসিক প্রতিবন্ধী।'

মার্শাল আইল্যান্ডের পতাকাবাহী 'এমভি ইন্টিগ্রা' নামে জাহাজটি মালয়েশিয়ার কেলাং বন্দরে পৌঁছার পর গত মঙ্গলবার রাতে খালি কনটেইনার থেকে ওই কিশোরটিকে উদ্ধার করা হয়। জাহাজটি গত ১২ জানুয়ারি চট্টগ্রাম বন্দরের এনসিটি জেটি থেকে ১৩৩৭ টিইইউএস কন্টেইনার নিয়ে পোর্ট কেলাংয়ের উদ্দেশে ছেড়ে গিয়েছিল।

পরে ওই কিশোরকে উদ্ধারের একটি ভিডিও ক্লিপ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। দ্য ডেইলি স্টারের হাতে এ সংক্রান্ত কয়েকটি ক্লিপ হাতে আসে। সেখানে কেলাং বন্দরের বাংলাদেশি কর্মচারীরা বাংলায় তার নাম জিজ্ঞাসা করলে সে নিজেকে ফাহিম বলে পরিচয় দেয়।

উপজেলার স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য শহিদুল ডেইলি স্টারের কুমিল্লা সংবাদদাতাকে জানান, আজ শনিবার সকালে তিনি ছেলেটির বাড়িতে যান এবং তার বাবা-মা জানান, ভিডিওতে যে ছেলেটিকে দেখা যাচ্ছে সেটি তাদের নিখোঁজ ছেলে।

ওই ইউপি সদস্য বলেন, তাদের পরিবার খুবই দরিদ্র এবং সে নিখোঁজ হওয়ার পর তারা থানায় কোনো সাধারণ ডায়রি করেননি।

উদ্ধার হওয়া কিশোর বর্তমানে মালেশিয়ার একটি স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। মনোহরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিউল আলম ডেইলি ষ্টারকে বলেন, 'আমরা বিষয়টি খোঁজ নিয়ে দেখছি।'

Comments