আগামী সপ্তাহে ঢাকায় আসবেন মার্কিন উপসহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী আফরিন আক্তার

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর এটি হবে যুক্তরাষ্ট্রের কোনো জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার প্রথম ঢাকা সফর।
আফরিন আক্তার। ছবি: সংগৃহীত

যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়াবিষয়ক উপসহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী আফরিন আক্তার আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় আসছেন।

কূটনৈতিক সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর এটি হবে যুক্তরাষ্ট্রের কোনো জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার প্রথম ঢাকা সফর।

র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) বিরুদ্ধে ওয়াশিংটনের নিষেধাজ্ঞা আরোপ এবং ২০২১ ও ২০২৩ সালে বাইডেনের গণতন্ত্রের শীর্ষ সম্মেলনে বাংলাদেশকে আমন্ত্রণ না জানানোর কারণে গত দুই বছর ধরে বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্রের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে যে টানাপোড়েন দেখা দিয়েছে, তা এগিয়ে নেওয়াই তিন দিনের এই সফরের লক্ষ্য।

গত বছরের মে মাসে যুক্তরাষ্ট্র একটি ভিসানীতি ঘোষণা করে বলেছিল, গণতান্ত্রিক নির্বাচনকে ক্ষতিগ্রস্ত করা বাংলাদেশিদের ভিসা প্রত্যাখ্যান করবে তারা।

নির্বাচনের পর মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তর এক বিবৃতিতে জানায়, নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হয়নি। তবে বৃহত্তর ইন্দো-প্যাসিফিক কৌশলের প্রেক্ষাপটে যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের জনগণের সঙ্গে যোগাযোগ ও অর্থনৈতিক অংশীদারিত্ব গভীর করবে।

সংসদ নির্বাচনের আগে গত অক্টোবরেও আফরিন আক্তার ঢাকা সফর করেন। এবারের সফরে তিনি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন এবং উন্নয়ন অংশীদারিত্ব, বাণিজ্য, রোহিঙ্গা সংকট ইত্যাদি নিয়ে আলোচনা করতে পারেন।

এর আগে গত বছরের ১৬-১৭ অক্টোবর সফরকালে তিনি সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, রোহিঙ্গা শরণার্থী ও মানবিক সহায়তা সংস্থার প্রতিনিধিদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। তিনি কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পও পরিদর্শন করেন।

১৪ ফেব্রুয়ারি ওয়াশিংটনে ফরেন প্রেস সেন্টারে এক ব্রিফিংয়ে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, বাংলাদেশকে আরও গণতান্ত্রিক হতে সক্ষম করে তুলবে—এমন প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলতে সুশীল সমাজ, শ্রমিক সংগঠন ও গণমাধ্যমকে সম্পৃক্ত করার ওপর গুরুত্ব দিচ্ছে ওয়াশিংটন।

Comments

The Daily Star  | English
Awami League's peace rally

Relatives in UZ Polls: AL chief’s directive for MPs largely unheeded

Awami League lawmakers’ urge to tighten their grip on the grassroots seems to be prevailing over the party president’s directive to have their family members and close relatives withdraw from the upazila parishad polls.

4h ago