রাজনীতি

আ. লীগের নেতাকর্মীদের পদচারণায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যান উৎসবমুখর

আওয়ামী লীগের ২২তম জাতীয় সম্মেলন উপলক্ষে সারা দেশ থেকে হাজারো নেতাকর্মীরা জড়ো হচ্ছেন সম্মেলনস্থল ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে।
আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের পদচারণায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যান উৎসবমুখর
আজ শনিবার সকাল ৭ টার পর থেকেই মিছিল নিয়ে আসতে শুরু করেছেন অনেকে। আশিক আবদুল্লাহ অপু/স্টার

আওয়ামী লীগের ২২তম জাতীয় সম্মেলন উপলক্ষে সারা দেশ থেকে হাজারো নেতাকর্মীরা জড়ো হচ্ছেন সম্মেলনস্থল ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে।

সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন আজ শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে শুরু হওয়ার কথা থাকলেও সকাল ৭ টার পর থেকেই আসতে শুরু করেছেন অনেকে।

সারা দেশ থেকে বাস, মাইক্রোবাস ও লঞ্চে করে রাতেই ঢাকায় এসেছেন অনেক নেতাকর্মীরা।

ছোট ছোট মিছিল নিয়ে আওয়ামী লীগের বিভিন্ন সহযোগী ও ভাতৃপ্রতিম সংগঠনের নেতাকর্মীরা জড়ো হচ্ছেন সম্মেলন স্থলে। নেতাকর্মীদের পদচারণায় উৎসবমুখর পরিবেশ তৈরি হয়েছে।

ছবি: আশিক আব্দুল্লাহ অপু/স্টার

দ্য ডেইলি স্টারের সঙ্গে আলাপকালে কয়েকজন নেতা জানান, এই সম্মেলনের মধ্য দিয়ে তারা শক্তিশালী নেতৃত্ব আশা করছেন। যারা আগামী জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে তৃণমূলকে সংগঠিত করতে শক্তিশালী ভূমিকা রাখবে।

ছবি: পলাশ খান/স্টার

নেত্রকোনা যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক ও কাউন্সিলর সৈয়দা শামছুন্নাহার বিউটি দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, 'সামনে আগামী জাতীয় নির্বাচনের যে চ্যালেঞ্জ রয়েছে তা মোকাবিলা করতে একজন শক্তিশালী, স্বচ্ছ একজন সাধারণ সম্পাদক চাই। নির্বাচনকে সামনে রেখে এমন একজন সংগঠক দরকার যে তৃণমূলকে সুসংগঠিত করতে পারবে। এক্ষেত্রে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত। তবে তার কাছে আমাদের চাওয়া উনার বিবেক বুদ্ধি বিবেচনা করে এমন নেতৃত্বকে নির্বাচন করবেন যারা তৃণমূলকে সংগঠিত করবে।'

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য জামাল উদ্দিন মাহি বলেন, 'মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে আমাদের সমৃদ্ধির যে অগ্রযাত্রা তা অব্যাহত রাখতে আমরা চাই তরুণরাই এতে নেতৃত্ব দেবে। নবীন ও প্রবীণ নেতৃবৃন্দের সংমিশ্রণে একটা নেতৃত্ব আমরা প্রত্যাশা করছি। তাহলে শেখ হাসিনা রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়ন করা সম্ভব হবে।'

'বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় আগামী জাতীয় নির্বাচন আমাদের জন্য অগ্নিপরীক্ষার। আগামী নির্বাচনে ভোট বিপ্লবের মাধ্যমে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে বিজয়ী করতে। পূর্বে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেমন দুর্নীতিবাজ ও বিতর্কিত নেতাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছেন, সামনেও এমন প্রমাণিত দুর্নীতিবাজ ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে দলীয় ব্যবস্থা নিবেন ও তার পরিবর্তে সেখানে তরুণ নেতৃত্বকে বাছাই করবেন,' তিনি যোগ করেন।

Comments