গাজা যুদ্ধের ১০০ দিন: নিহত ফিলিস্তিনি ২৩,৭০৮, ইসরায়েলি ১,৩০০

বিশ্লেষকরা এই যুদ্ধকে ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের এক দশকেরও বেশি সময় ধরে চলমান সংঘাতের ইতিহাসের সবচেয়ে রক্তাক্ত অধ্যায় হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন।
রাফাহর এক হাসপাতালে এক ব্যক্তি এক নিহত ফিলিস্তিনি শিশুর মরদেহকে চুম্বন করছেন। ছবি: রয়টার্স
রাফাহর এক হাসপাতালে এক ব্যক্তি এক নিহত ফিলিস্তিনি শিশুর মরদেহকে চুম্বন করছেন। ছবি: রয়টার্স

গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনি সশস্ত্র সংগঠন হামাস হামলা পরিচালন করার পর দেশটি গাজায় প্রতিশোধমূলক ও সর্বাত্মক হামলা শুরু করে। এর পর কেটে গেছে ১০০ দিন। ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি ও ধ্বংসযজ্ঞের পরও শিগগির এ যুদ্ধ নিরসনের কোনো সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না।

আজ রোববার এই তথ্য জানিয়েছে কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আল জাজিরা।

বিশ্লেষকরা এই যুদ্ধকে ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের এক দশকেরও বেশি সময় ধরে চলমান সংঘাতের ইতিহাসের সবচেয়ে রক্তাক্ত অধ্যায় হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন।

বার্তাসংস্থা এপি, ফিলিস্তিনি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, ইসরায়েলি কর্মকর্তা ও আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষক ও ত্রাণ সংস্থার কাছ থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আল জাজিরা এই যুদ্ধে হতাহত মানুষ ও অবকাঠামোগত ক্ষয়ক্ষতির একটি তালিকা তৈরি করেছে।

মৃত্যু

গাজায় নিহত ফিলিস্তিনি: অন্তত ২৩ হাজার ৭০৮

ইসরায়েলে নিহত হয়েছেন এক হাজার ৩০০ জনের চেয়েও বেশি মানুষ।

অধিকৃত পশ্চিম তীরে নিহত ফিলিস্তিনি: ৩৪৭

গাজার ধ্বংসযজ্ঞ

গাজার মোট দালানের ৪৫ থেকে ৫৬ শতাংশ ধ্বংস অথবা বড় আকারে ক্ষতির শিকার হয়েছে।

গাজার ৩৬টি হাসপাতালের মধ্যে মাত্র ১৫টি আংশিকভাবে কার্যকর রয়েছে। বাকি ২১টির কার্যক্রম পুরোপুরি বন্ধ আছে।

ব্যাপক আকারে ক্ষুধা ও অনাহারে ভুগছেন পাঁচ লাখ ৭৬ হাজার ৬০০ ফিলিস্তিনি।

গাজার ৬৯ শতাংশেরও বেশি স্কুল ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

ইসরায়েলি হামলায় নিহত ফিলিস্তিনিদের মরদেহের সামনে শোক প্রকাশ করছেন আত্মীয় পরিজন। ছবি: এএফপি
ইসরায়েলি হামলায় নিহত ফিলিস্তিনিদের মরদেহের সামনে শোক প্রকাশ করছেন আত্মীয় পরিজন। ছবি: এএফপি

১৪২টি মসজিদ ও ৩টি গির্জা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

১২১টি অ্যাম্বুলেন্স ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

স্কুল থেকে ঝরে পড়েছে ছয় লাখ ২৫ হাজার শিক্ষার্থী। 

আহত

গাজায় ৬০ হাজার পাঁচ ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন।

অধিকৃত পশ্চিম তীরে চার হাজারেরও বেশি ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন

মোট ১২ হাজার ৪১৫ জন ইসরায়েলি নাগরিক আহত হয়েছেন।

অক্টোবর ৭ থেকে এখন পর্যন্ত আহত হয়েছেন দুই হাজার ৪৯৬ জন ইসরায়েলি সেনা। 

স্থল হামলা পরিচালনার সময়য় আহত হয়েছেন এক হাজার ৮৫ জন ইসরায়েলি সেনা

বাস্তুচ্যুতি

১৮ লাখ ফিলিস্তিনি বাস্তুচ্যুত হয়েছেন

ইসরায়েলের উত্তর ও দক্ষিণ সীমান্ত থেকে দুই লাখ ৪৯ হাজার ২৬৩ ইসরায়েলি বাস্তুচ্যুত হয়েছেন

পশ্চিম তীর থেকে এক হাজার ২০৮ ফিলিস্তিনি বাস্তুচ্যুত হয়েছেন

বন্দী/জিম্মি

অক্টোবর ৭ এ হামাসের হাতে জিম্মি হন প্রায় ২৫০ জন

পরবর্তীতে মুক্তি পান ১২১ জন।

গাজা উপত্যকায় এখনো জিম্মি আছেন ১৩৬ জন।

হামাসের হাতে আটক অবস্থায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩৩ জিম্মি।

যুদ্ধবিরতির সময় ২৪০ জন ফিলিস্তিনি বন্দীকে মুক্তি দেয় ইসরায়েল।

গোলাবারুদ

গাজা ২৯ হাজার বোমা, ক্ষেপণাস্ত্র ও শেল বর্ষণ করা হয়।

ইসরায়েলের উদ্দেশে ১৪ হাজার রকেট ছোঁড়া হয়।

Comments

The Daily Star  | English
Bangladesh lacking in remittance earning compared to four South Asian countries

Remittance hits eight-month high

In February, migrants sent home $2.16 billion, up 39% year-on-year

17m ago