‘নির্বাচনে অংশ নেব কি নেব না, আজকের বৈঠকের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত’

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ শিবিরে চলছে উৎসব। অন্যদিকে অন্যতম বিরোধী দল বিএনপি ও এর শরিকরা নির্বাচনে অংশ নেবে কি নেবে না, তা এখনও চূড়ান্ত করতে পারেনি। এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে আজ (১০ নভেম্বর) বিকেলে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্যরা। এরপর, সন্ধ্যায় ২০ দলীয় জোটের নেতাদের সঙ্গেও তাদের বৈঠক করার কথা রয়েছে।
২০ দলীয় জোটভুক্ত লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) সভাপতি কর্নেল (অব.) অলি আহমদ। ফাইল ছবি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ শিবিরে চলছে উৎসব। অন্যদিকে অন্যতম বিরোধী দল বিএনপি ও এর শরিকরা নির্বাচনে অংশ নেবে কি নেবে না, তা এখনও চূড়ান্ত করতে পারেনি। এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে আজ (১০ নভেম্বর) বিকেলে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠকে বসতে যাচ্ছে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্যরা। এরপর, সন্ধ্যায় ২০ দলীয় জোটের নেতাদের সঙ্গেও তাদের বৈঠক করার কথা রয়েছে।

জানা গেছে, এ দুই বৈঠকে নির্বাচনে অংশগ্রহণ, মনোনয়ন ও আগামী দিনের আন্দোলন কর্মসূচি নিয়ে নিজেদের পরিকল্পনা চূড়ান্ত করবেন বিএনপি ও শরিক দলের নেতারা।

বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটভুক্ত লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) সভাপতি কর্নেল (অব.) অলি আহমদ আজ দ্য ডেইলি স্টার অনলাইনকে বলেন, ‘এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে আজ বিকেল ৫টায় বৈঠকে বসবে বিএনপি। তারপর সন্ধ্যা ৬টায় আমার সভাপতিত্বে ২০ দলীয় জোটের বৈঠক হবে। নির্বাচনে অংশ নেব কি নেব না, আজকের বৈঠকের পরই আমরা আমাদের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিব।’

এদিকে, গতকাল শুক্রবার সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ বলেন, ‘জোটগতভাবে নির্বাচন করতে চাইলে আগামী তিন দিনের মধ্যে নির্বাচন কমিশনকে জানাতে হবে। কোনো অনিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের সদস্য যদি নিবন্ধিত কোনো দলের হয়ে বা স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করতে চান, তাহলে সেটি সম্ভব।’

এরপর, নির্বাচন কমিশনের যুগ্ম সচিব ফরহাদ আহাম্মদ খান জানান, তফসিল ঘোষণার পর নিবন্ধিত ৩৯টি দলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বরাবর গতকাল এ সংক্রান্ত চিঠি দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ৮ নভেম্বর জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন আগামী ২৩ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে জানিয়ে তফসিল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদা।

এর পরপরই গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠকে বসে ২০ দলীয় জোট। সেখানে তফসিল ঘোষণার পরবর্তী করণীয় সম্পর্কে জোটের শরিকদের কাছ থেকে বিস্তারিত মতামত নেওয়া হয়।

Comments

The Daily Star  | English

Small businesses, daily earners scorched by heatwave

After parking his motorcycle and removing his helmet, a young biker opened a red umbrella and stood on the footpath.

1h ago