শীর্ষ খবর

কোথাও আচরণবিধি লঙ্ঘন হয়নি: সিইসি

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদা জানিয়েছেন, মনোনয়নপত্র জমা দিতে এসে সারাদেশে কোথাও কোনো প্রার্থী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেননি। উৎসবমুখর পরিবেশে প্রার্থীরা তাদের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।
CEC
প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নূরুল হুদা। স্টার ফাইল ছবি

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদা জানিয়েছেন, মনোনয়নপত্র জমা দিতে এসে সারাদেশে কোথাও কোনো প্রার্থী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেননি। উৎসবমুখর পরিবেশে প্রার্থীরা তাদের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

আজ (২৯ নভেম্বর) সকালে নির্বাচন ভবনে আয়োজিত এক প্রশিক্ষণ কর্মসূচি উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। নির্বাচন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট ঢাকা, চট্টগ্রাম, কুমিল্লা ও গাজীপুরের ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষকদের প্রশিক্ষণের আয়োজন করে।

তিনি বলেন, “প্রার্থীদের সঙ্গে ৫-৭ সমর্থক মনোনয়নপত্র জমা দিতে এসেছিলেন। দলীয় কর্মী এবং সমর্থকরা মূলত বাইরে অপেক্ষা করেছেন। সেটাকে শো-ডাউন বলা যাবে না।”

AMA Muhith
২৮ নভেম্বর ২০১৮, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে সিলেটে রিটানিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে মনোনয়পত্র জমা দিতে আসেন একে আব্দুল মোমেন। এ সময় ভাই অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিতসহ দলীয় নেতা-কর্মী ও বিভিন্ন কর্মকর্তা তার সঙ্গে ছিলেন। ছবি: শেখ নাসের/ সংগৃহীত

যদিও সারাদেশে ক্ষমতাসীন দল এবং বিরোধী দলের প্রার্থীদের নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের বেশ কিছু দৃষ্টান্ত ডেইলি স্টারের নজরে এসেছে।

প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে তিনি আরও বলেন, নির্বাচন কমিশন একটি প্রতিযোগিতামূলক এবং অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে সক্ষম হয়েছে।

নির্বাচনী তফসিল অনুযায়ী, গতকাল (২৮ নভেম্বর) ছিলো মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন। আগামী ২ ডিসেম্বর যাচাই-বাছাই এবং ৯ ডিসেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন।

Mirza Fakhrul Islam Alamgir
২৮ নভেম্বর ২০১৮, ঠাকুরগাঁওয়ে রিটানিং কর্মকর্তা কামরুজ্জামান সেলিমের কাছে মনোনয়পত্র জমা দেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ছবি: রাজীব রায়হান

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণ প্রসঙ্গে প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেন, বাংলাদেশে এখন নির্বাচনী উৎসবের আমেজ রয়েছে। যদিও প্রধান বিরোধীজোট জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচন পেছানোর দাবি জানিয়ে আসছিল, পরবর্তীতে বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্টের অন্য শরিকদলগুলো নির্বাচনে আসার সিদ্ধান্ত নেয়। সে অনুযায়ী তারা মনোনয়ন ফরম বিক্রি করে এবং গতকাল মনোনয়ন জমা দেয়। আমরা মনে করছি, গতবারের মতো শেষ মুহূর্তে রাজনৈতিকদলগুলো নির্বাচন ছেড়ে যাবে- এমন ঝুঁকি নেই।

Amir Khasru Mahmud Chowdhury
২৮ নভেম্বর ২০১৮, চট্টগ্রাম-১১ আসনের জন্যে নিজ নিজ মনোনয়নপত্র জমা দিতে আসেন আওয়ামী লীগের এমএ লতিফ এবং বিএনপির আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। এসময় তারা শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। ছবি: কামরুল ইসলাম রুবাইয়াত

Comments

The Daily Star  | English

The taste of Royal Tehari House: A Nilkhet heritage

Nestled among the busy bookshops of Nilkhet, Royal Tehari House is a shop that offers students a delectable treat without burning a hole in their pockets.

49m ago