তত্ত্বাবধায়ক বা নির্বাচনকালীন সরকার প্রসঙ্গ ইশতেহারে নাও থাকতে পারে: মান্না

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে এককভাবে নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। আজ (২ ডিসেম্বর) দ্য ডেইলি স্টার অনলাইনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঐক্যফ্রন্ট নেতা ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। এর আগে জানা গিয়েছিলো যে, জোটভুক্ত দলগুলো আলাদা আলাদাভাবে ইশতেহার ঘোষণা করতে পারে।
মাহমুদুর রহমান মান্না। ফাইল ছবি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে এককভাবে নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। আজ (২ ডিসেম্বর) দ্য ডেইলি স্টার অনলাইনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঐক্যফ্রন্ট নেতা ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। এর আগে জানা গিয়েছিলো যে, জোটভুক্ত দলগুলো আলাদা আলাদাভাবে ইশতেহার ঘোষণা করতে পারে।

বরাবরের দাবি মতো ঐক্যফ্রন্টের ইশতেহারে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিষয়টি থাকবে কী না?- এমন প্রশ্নের জবাবে মান্না বলেন, “তত্ত্বাবধায়ক সরকার আর নির্বাচনকালীন সরকার, যাই বলি না কেন, নির্বাচনে যাওয়ার জন্য এটি ছিলো আমাদের অন্যতম দাবি। তবে, এবারের ইশতেহারে বিষয়টির উল্লেখ নাও থাকতে পারে। তারপরও সবার সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমেই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।”

নির্বাচনকালীন সরকারের বিষয়ে তিনি বলেন, “নির্বাচনকালীন সরকার ব্যবস্থা প্রণয়নের বিষয়টি আমাদের চিন্তা-ভাবনায় রয়েছে। এটি এমন এক সরকার ব্যবস্থা, যে সরকারের কোনো ব্যক্তি নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে না। শুধু নির্বাচন পরিচালনাকালীন সময়ে তারা নিরপেক্ষভাবে সরকারের দায়িত্ব সুষ্ঠুভাবে পালন করে যাবেন।”

গতকাল জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনেও এ বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন।

জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট যদি ক্ষমতায় যায় তবে শাসনব্যবস্থায় পরিবর্তনসহ তত্ত্বাবধায়ক ব্যবস্থা ফিরিয়ে আনা হবে কী না?- এমন প্রশ্নের জবাবে কামাল হোসেন বলেন, “নতুন করে কিছু করতে হবে না। সংবিধানকে অক্ষরে অক্ষরে পালন করা হবে।”

তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “তিক্ত অভিজ্ঞতা থেকেই তত্ত্বাবধায়ক ব্যবস্থা করা হয়েছিলো। এটা কোনো বিতর্কিত বিষয় না, সংবিধানের ব্যাখ্যার বিষয়।” তিনি আশা করেন, জনগণের সমর্থন তাদের আছে। জনগণের আস্থা অর্জন করে তারা সংবিধান মেনে চলবেন। প্রয়োজন হলে সংবিধান সংশোধনও করা হবে।

Comments

The Daily Star  | English

Our civil society needs to do more to challenge power structures

Over the last year, human rights defenders, demonstrators, and dissenters have been met with harassment, physical aggression, detainment, and maltreatment by the authorities.

8h ago