কাদের সিদ্দিকী, আমান, রনি, রেজার মনোনয়ন বাতিল

কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আব্দুল কাদের সিদ্দিকী, বিএনপি নেতা আমানুল্লাহ আমানসহ সারাদেশে ৭৮৬ জন প্রার্থীর মনোনয়পত্র বাতিল করা হয়েছে।
Aman
কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আব্দুল কাদের সিদ্দিকী এবং বিএনপি নেতা আমানুল্লাহ আমান ও গোলাম মওলা রনি। ছবি: সংগৃহীত

কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আব্দুল কাদের সিদ্দিকী, বিএনপি নেতা আমানুল্লাহ আমানসহ সারাদেশে ৭৮৬ জন প্রার্থীর মনোনয়পত্র বাতিল করা হয়েছে। 

গত ২৮ নভেম্বর পর্যন্ত সারাদেশে রাজনৈতিক দলের ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মিলিয়ে মোট ৩০০ আসনের জন্য ৩,০৫৬টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছিল রিটার্নিং কর্মকর্তাদের কার্যালয়ে। এর মধ্যে এক চতুর্থাংশের বেশি প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়ে গেল। মামলায় সাজা, খেলাপি ঋণসহ মনোনয়নপত্রে নানা অসঙ্গতির কারণে এদের মনোনয়ন বাতিল হয়েছে বলে রিটার্নিং কর্মকর্তাদের সূত্রে জানা গেছে।

তবে মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া প্রার্থীরা আগামী ৩, ৪ ও ৫ ডিসেম্বর নির্বাচন কমিশনে আপিল করতে পারবেন। ৬, ৭ ও ৮ ডিসেম্বর আপিলের শুনানির পর তাদের প্রার্থিতার ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দিবে নির্বাচন কমিশন।

যাদের মনোনয়নপত্র বাতিল হলো তাদের মধ্যে দুর্নীতির মামলায় সাজাপ্রাপ্ত বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াও রয়েছেন। তার তিনটি মনোনয়নের সবগুলোই সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং কর্মকর্তারা বাতিল করেছেন।

দুর্নীতি মামলায় সাজা পাওয়ায় ‘ঢাকা-২’ আসনে বিএনপি নেতা আমানুল্লাহ আমানের মনোনয়ন বাতিল করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

আমাদের টাঙ্গাইল সংবাদদাতা জানান, রিটার্নিং কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম ঋণ খেলাপি হওয়ার অভিযোগে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আব্দুল কাদের সিদ্দিকীর টাঙ্গাইল-৪ এবং টাঙ্গাইল-৮ আসনের মনোনয়ন বাতিল করে দিয়েছেন।

এদিকে, রাজশাহী সংবাদদাতা জানান, রাজশাহী-১ আসনের জন্যে সাবেক মন্ত্রী ও বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার আমিনুল হকের জমা দেওয়া মনোনয়নপত্র বাতিল করে দিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। এই আসনে আরও সাতজনের মনোনয়ন বাতিল করে দেওয়া হয়েছে।

পটুয়াখালী সংবাদদাতা জানান, বিএনপির হয়ে পটুয়াখালী-৩ এর জন্যে গোলাম মওলা রনির মনোনয়ন বাতিল করে দিয়েছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। হলফনামায় নিজের স্বাক্ষর দেওয়া হয়নি এমন অভিযোগে পটুয়াখালীর রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ মতিউল ইসলাম চৌধুরী বিএনপি প্রার্থী রনির মনোনয়ন বাতিল করে দেন।

২০০৮ সালে রনি আওয়ামী লীগের হয়ে এই আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছিলেন। তবে আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি বিএনপির মনোনয়ন পেয়েছিলেন।

গণফোরামের হয়ে হবিগঞ্জ-১ আসনে মনোনয়ন জমা দেওয়া সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়ার ছেলে রেজা কিবরিয়ার মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ঋণ খেলাপের অভিযোগ রয়েছে বলে জানান সংশ্লিষ্ট এলাকার রিটার্নিং কর্মকর্তা।

এছাড়াও, হলফনামায় স্বাক্ষর নেই- এমন অভিযোগে স্বতন্ত্র প্রার্থী কেয়া চৌধুরীর মনোনয়নও বাতিল করে দেওয়া হয়েছে।

Comments

The Daily Star  | English

Avoid heat stroke amid heatwave: DGHS issues eight directives

The Directorate General of Health Services (DGHS) released an eight-point recommendation today to reduce the risk of heat stroke in the midst of the current mild to severe heatwave sweeping the country

24m ago