জাহালমের ঘটনায় প্রশ্নবিদ্ধ দুদক, ক্ষতিপূরণ দেয়ার দাবি টিআইবির

বিনা অপরাধে কারাগারে থাকা জাহালমের জীবন থেকে তিন বছর নষ্ট হওয়ায় তাকে ক্ষতিপূরণ দিতে এবং এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)।
TIB

বিনা অপরাধে কারাগারে থাকা জাহালমের জীবন থেকে তিন বছর নষ্ট হওয়ায় তাকে ক্ষতিপূরণ দিতে এবং এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)।

সোনালী ব্যাংকের অর্থ আত্মসাৎ মামলায় শেষ পর্যন্ত হাইকোর্টের হস্তক্ষেপে পাটকল শ্রমিক জাহালম মুক্তি পাওয়ায় স্বস্তি প্রকাশ করে সংস্থাটির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, “জাহালম মুক্তি পেয়ে গেছেন- এটা ভেবেই আত্মতুষ্টিতে ভোগার সুযোগ নেই। বরং হাইকোর্টের নির্দেশনা অনুযায়ী তাকে অবিলম্বে যথাযথ ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। যদিও জাহালমকে যে অবর্ণনীয় ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে তার প্রকৃত ক্ষতিপূরণ কখনই সম্ভব নয়। এ বিবেচনা থেকেই ঘটনাটির গুরুত্ব নির্ধারণ এবং দায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।”

আজ সোমবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক বলেন, দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) এ ঘটনায় প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে। কমিশনের প্রতি দেশের জনগণের আস্থাহীনতা সৃষ্টির আশঙ্কা রয়েছে। তাই কীভাবে এ ঘটনা সংঘটিত হলো, কারা জড়িত ছিলেন, কেন এমন ভুল তারা করলেন, নাকি প্রকৃত অপরাধীর সঙ্গে যোগসাজশে তারা এ জালিয়াতিতে অংশগ্রহণ করেছেন- এসব বিষয় তদন্ত করে দেখতে হবে।

তিনি আরও বলেন, “গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, জাতীয় মানবাধিকার কমিশন গত বছরের মে মাসে বিষয়টি দুদককে অবহিত করেছিল। তারপর দীর্ঘ আট মাসেও কেন দুদক কোনো পদক্ষেপ নিল না তা খতিয়ে দেখতে হবে। এখানে কোনো যোগসাজশের সম্ভাবনা তদন্ত ছাড়া নাকচ করে দেয়ার সুযোগ নেই। এছাড়া দুদকের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সক্ষমতা নিয়েও প্রশ্ন উঠা অস্বাভাবিক নয়।”

টিআইবি প্রধানের আশা, জাহালমকে বিনা দোষে আসামী হিসেবে চিহ্নিত করার ঘটনা তদন্তে দুদকের গঠন করা কমিটি সুষ্ঠুভাবে দায়িত্ব পালন করবে এবং তদন্তের ভিত্তিতে নেয়া পদক্ষেপ দেশের জনগণকে জানানো হবে। পাশাপাশি তার দাবি, তদন্তে যারা দোষী সাব্যস্ত হবেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর বিভাগীয় ও আইনগত ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে, যেন ভবিষ্যতে এ ধরনের অবিচার আর কারও সঙ্গে না হয়।

Comments

The Daily Star  | English

Foreign airlines’ $323m stuck in Bangladesh

The amount of foreign airlines’ money stuck in Bangladesh has increased to $323 million from $214 million in less than a year, according to the International Air Transport Association (IATA).

11h ago