ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবিলায় সরকার প্রস্তুত: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবিলায় সরকার প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নিয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান।
Fani impact
ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’-র প্রভাব: ছবি: সংগৃহীত

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ মোকাবিলায় সরকার প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নিয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান।

গতকাল (১ মে) বিকালে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এ সংক্রান্ত জরুরি সভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান।

ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী বলেন, “ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ ভারতের উপকূলে আঘাত হানার পর কিছুটা দুর্বল হয়ে বাংলাদেশে আঘাত হানতে পারে। তাই এই ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় আমরা সব ধরনের প্রস্তুতি নিয়েছি।”

তিনি জানান, ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষয়ক্ষতি মোকাবিলায় দেশের উপকূলীয় ১৯টি জেলায় নিয়ন্ত্রণকক্ষ খোলা হয়েছে ও সংশ্লিষ্টদের সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। ক্ষয়ক্ষতি মোকাবিলায় প্রয়োজনীয় সকল প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

এনামুর রহমান বলেন, ইতোমধ্যেই দুর্যোগ মোকাবিলায় ৫৬ হাজার স্বেচ্ছাসেবককে প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এছাড়াও সতর্ক থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি, ফায়ার সার্ভিস ও হাসপাতালগুলোকে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, যেখানে পর্যাপ্ত সাইক্লোন শেল্টার নেই, সেখানে স্কুল কলেজ, মাদ্রাসাকে যেনো প্রয়োজনে ব্যবহার করা যায়, সেভাবে ব্যবহার উপযোগী করে রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

পাশাপাশি ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় এলাকায় মাইকিং করা হচ্ছে। প্রতিটি জেলায় জরুরি প্রয়োজন মেটাতে চাল ও নগদ টাকার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে।

বৈঠকে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. শাহ্ কামাল উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন:

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’র প্রভাবে সারাদেশে নৌচলাচল বন্ধ

মংলা, পায়রা সমুদ্রবন্দরে ৭ নম্বর বিপদ সংকেত

‘ফণী’ মোকাবিলায় বাগেরহাটে ২৩৪ আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ছুটি বাতিল

Comments

The Daily Star  | English
Bangladesh lacking in remittance earning compared to four South Asian countries

Remittance hits eight-month high

In February, migrants sent home $2.16 billion, up 39% year-on-year

3h ago