কীর্তি গড়ার উৎসবে মেতেছেন স্মিথ

প্রথম ইনিংসে করেছিলেন ১৪৪ রান। দ্বিতীয় ইনিংসে তার ব্যাট থেকে এসেছে ১৪২ রান। কে বলবে গেল ১৬ মাস কোনো টেস্ট ম্যাচ খেলেননি স্টিভ স্মিথ! জোড়া সেঞ্চুরি করে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে এজবাস্টনে অ্যাশেজের প্রথম টেস্টে অস্ট্রেলিয়াকে চালকের আসনে তো বসিয়েছেন-ই তিনি, সেই সঙ্গে গড়েছেন বেশ কয়েকটি অসাধারণ কীর্তি।
steve smith
স্টিভ স্মিথ। ছবি: এএফপি

প্রথম ইনিংসে করেছিলেন ১৪৪ রান। দ্বিতীয় ইনিংসে তার ব্যাট থেকে এসেছে ১৪২ রান। কে বলবে গেল ১৬ মাস কোনো টেস্ট ম্যাচ খেলেননি স্টিভ স্মিথ! জোড়া সেঞ্চুরি করে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে এজবাস্টনে অ্যাশেজের প্রথম টেস্টে অস্ট্রেলিয়াকে চালকের আসনে তো বসিয়েছেন-ই তিনি, সেই সঙ্গে গড়েছেন কয়েকটি অসাধারণ কীর্তি।

রবিবার (৪ আগস্ট) টেস্টের চতুর্থ দিনে তিন অঙ্কের ম্যাজিক্যাল ফিগার ছুঁয়ে করে স্বদেশী ডন ব্র্যাডম্যানের পর দ্বিতীয় দ্রুততম ব্যাটসম্যান হিসেবে ২৫টি টেস্ট সেঞ্চুরি করার কৃতিত্ব দেখিয়েছেন স্মিথ। তার লেগেছে ১১৯ ইনিংস। তিনি পেরিয়ে গেছেন বিরাট কোহলিকে। ভারতীয় দলনেতা ২৫টি সেঞ্চুরি করেছিলেন ১২৭ ইনিংসে। আর কিংবদন্তি ব্র্যাডম্যান মাত্র ৬৮ ইনিংসে ২৫টি সেঞ্চুরি নিয়ে বলতে গেলে ধরাছোঁয়ার বাইরে-ই আছেন।

মাত্র পঞ্চম অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান হিসেবে অ্যাশেজের এক টেস্টে জোড়া সেঞ্চুরি করেছেন স্মিথ। তার আগে এই কীর্তি ছিল ওয়ারেন বার্ডসলে, আর্থার মরিস, স্টিভ ওয়াহ ও ম্যাথু হেইডেনের। সাবেক বাঁহাতি ওপেনার হেইডেন ২০০২ সালে জোড়া সেঞ্চুরি করেছিলেন। ১৭ বছর পর সে ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটিয়েছেন স্মিথ।

আরও একটি কীর্তি গড়ে ইতিহাসের পাতায় নাম উঠিয়েছেন স্মিথ। সেখানে অবশ্য তিনি কারও পেছনে নন, বরং সবার আগে। সাদা পোশাকে ১১৯ ইনিংসে তার সংগ্রহ ৬ হাজার ৪৮৫ রান। সমানসংখ্যক ইনিংস খেলে এই সংস্করণে তার চেয়ে বেশি রান করতে পারেননি আর কেউ। স্মিথের আগে এই রেকর্ড ছিল ইংল্যান্ডের ওয়ালি হ্যামন্ডের (৬ হাজার ৪৪০ রান) দখলে।

দিন শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে ইংলিশরা ৭ ওভারে তুলেছে বিনা উইকেটে ১৩ রান। শেষ বিকালটা তারা কাটিয়ে দিয়েছে বেশ নির্বিঘ্নে। ক্রিজে আছেন ররি বার্নস ৭ ও জেসন রয় ৬ রানে। জয়ের জন্য ১০ উইকেট হাতে নিয়ে তাদের দরকার ৩৮৫ রান। তাই ইংলিশদের জন্য পঞ্চম ও শেষ দিনে অপেক্ষা করছে কঠিন চ্যালেঞ্জ।

এর আগে ৩ উইকেটে ১২৪ রান নিয়ে খেলতে নেমে অসিরা তাদের দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করে ৭ উইকেটে ৪৮৭ রান তুলে। ৯০ রানের ঘাটতি পুষিয়ে পায় ৩৯৭ রানের লিড। স্মিথের পাশাপাশি সেঞ্চুরি দেখা পান ম্যাথু ওয়েড। তার ব্যাট থেকে আসে ১১০ রান। ট্রাভিস হেড করেন ৫১ রান। অষ্টম উইকেটে জেমস প্যাটিনসন (৪৭*) ও প্যাট কামিন্স (২৬*) গড়েন ৭৮ রানের অবিছিন্ন জুটি।

Comments

The Daily Star  | English

No power cuts during Tarabi prayers, Sehri: PM

Sheikh Hasina also said prices of essentials will be stable during Ramadan

49m ago