খেলা

ফাইনালে উঠে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের নারীরা

ফাইনালে উঠতে পারলেই মিলবে ২০২০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মূল পর্বে খেলার টিকিট, জানা ছিল বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের। বিশ্ব আসরে জায়গা করে নেওয়ার পথে সেমিফাইনালে ছিল আয়ারল্যান্ড নামক বাধা। খুব অনায়াসে না হলেও সেই বাধা টপকে গেছেন নারীরা। তাতে বাছাইপর্বের ফাইনাল নিশ্চিত করার পাশাপাশি বিশ্বকাপেও নাম লিখিয়েছে বাংলাদেশ।
Bangladesh Women's Cricket Team
Photo: ICC

ফাইনালে উঠতে পারলেই মিলবে ২০২০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মূল পর্বে খেলার টিকিট, জানা ছিল বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের। বিশ্ব আসরে জায়গা করে নেওয়ার পথে সেমিফাইনালে ছিল আয়ারল্যান্ড নামক বাধা। খুব অনায়াসে না হলেও সেই বাধা টপকে গেছেন নারীরা। তাতে বাছাইপর্বের ফাইনাল নিশ্চিত করার পাশাপাশি বিশ্বকাপেও নাম লিখিয়েছে বাংলাদেশ।

বৃহস্পতিবার (৫ সেপ্টেম্বর) স্কটল্যান্ডের ডান্ডিতে প্রথম সেমিফাইনালে আয়ারল্যান্ডকে ৪ উইকেটে হারিয়েছে বাংলাদেশের নারীরা। টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে আইরিশ নারীরা করে মাত্র ৮৫ রান। জবাবে সানজিদা ইসলামের ব্যাটিং নৈপুণ্যে ৯ বল হাতে রেখেই ৬ উইকেটে ৮৬ রান করে জয় তুলে নিয়েছে সালমা খাতুনের দল।

সহজ লক্ষ্য তাড়ায় বাংলাদেশের শুরুটা একেবারে মন্দ ছিল না। ওপেনিং জুটিতে আসে ২১ রান। কিন্তু মুর্শিদা খাতুন ১৩ রান করে বিদায় নেওয়ার পর লাগে মড়ক। দলের খাতায় আর মাত্র ৯ রান যোগ হতেই সাজঘরের পথ ধরেন আয়েশা রহমান (৭), নিগার সুলতানা (১) ও ফারজানা হক (২)।

৩০ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ফাইনালের স্বপ্নটা যখন ফিকে হতে শুরু করেছে, তখন দলের হাল ধরেন সানজিদা। সঙ্গী হিসেবে পান ঋতু মণিকে। তারা পঞ্চম উইকেটে যোগ করেন ৩৮ রান। তাতে চাপ সরিয়ে জয়ের পথের দিশা খুঁজে পায় বাংলাদেশ।

ঋতু ১৫ রান করে আউট হওয়ার পর ফাহিমা খাতুনও (০) টিকতে পারেননি। তবে সানজিদা ছিলেন অবিচল। ৩৭ বলে ৩২ রান করে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছাড়েন তিনি। তার ইনিংসে ছিল ৩টি চার। আটে নামা জাহানারা আলম অপরাজিত থাকেন ৬ রানে।

এর আগে আইরিশদের একশোর নিচে গুটিয়ে দিতে বড় ভূমিকা রাখেন লেগব্রেক বোলার ফাহিমা। তিনি ১৮ রানে নেন ৩ উইকেট। বাংলাদেশের বাকি চার বোলারও দারুণ অবদান রাখেন। জাহানারা, নাহিদা আকতার, অধিনায়ক সালমা ও ঋতু নেন একটি করে উইকেট।

আইরিশদের পক্ষে দলনেতা লরা ডেলানি ৩৯ বলে ২৫ ও ইমার রিচার্ডসন ঝড়ো ব্যাটিংয়ে ১৭ বলে ২৫ রান করেন। ষষ্ঠ উইকেটে তারা গড়েন ৩০ রানের জুটি। এই জুটির পতনের পর দলটি শেষ ৫ উইকেট হারায় মাত্র ১১ রানে।

এদিন একই মাঠে দ্বিতীয় সেমিতে মুখোমুখি হবে পাপুয়া নিউগিনি ও থাইল্যান্ড। এ ম্যাচের জয়ী দলকে আগামী শনিবার শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে মোকাবেলা করবে বাংলাদেশ। ফাইনালে ওঠা দুদলই বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পাবে।

আগামী বছর ফেব্রুয়ারি-মার্চে নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আসর বসবে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে। গেলবার বাছাইপর্বে চ্যাম্পিয়ন হয়ে বিশ্বকাপের মূল পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছিল বাংলাদেশ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

আয়ারল্যান্ড নারী দল: ২০ ওভারে ৮৫ (ওয়ালড্রন ১, লুইস ৫, গার্থ ২, ডেলানি ২৫, প্রেনডারগাস্ট ১০, পল ৫, রিচার্ডসন ২৫, কাভানাঘ ৬*, রেমন্ড-হোয়ে ৩, ম্যাকমোহন ০, মারিটজ ২; জাহানারা ১/২১, নাহিদা ১/১৭, সালমা ১/১০, ঋতু ১/১৯, ফাহিমা ৩/১৮)

বাংলাদেশ নারী দল: ১৮.৩ ওভারে ৮৬/৬ (মুর্শিদা ১৩, আয়েশা ৭, নিগার ১, সানজিদা ৩২*, ফারজানা ২, ঋতু ১৫, ফাহিমা ০, জাহানারা ৬*; গার্থ ১/১৩, রিচার্ডসন ০/২৬, ম্যাকমোহন ১/৯, প্রেনডারগাস্ট ২/১১, ডেলানি ০/১১, পল ০/১৫)।

Comments

The Daily Star  | English
Corruption in Bangladesh civil service

The nine lives of a corrupt public servant

Let's delve into the hypothetical lifelines in a public servant’s career that help them indulge in corruption.

9h ago